Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৭ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

বকেয়া মেটাতে হবে তিন মাসেই

সংস্থাগুলির আয়ের কোন হিসেব ধরে লাইসেন্স ও স্পেকট্রাম ব্যবহারের ফি ধার্য হবে, তা নিয়ে সম্প্রতি ডটের হিসেবকে মান্যতা দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট। 

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ১৪ নভেম্বর ২০১৯ ০৫:৫৯
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

টেলি সংস্থাগুলিকে তিন মাসের মধ্যে বকেয়া টাকা মেটানোর নোটিস পাঠাল টেলিকম দফতরের (ডট)। জানাল, সুপ্রিম কোর্টের রায় মেনেই এই নির্দেশ। এ নিয়ে সংস্থাগুলির প্রতিক্রিয়া মেলেনি। তবে তারা ইতিমধ্যে যে রকম ঋণ ভারে জর্জরিত, তাতে এই ফরমান জারির পরে উদ্বেগ বেড়েছে সংশ্লিষ্ট মহলে। বিশেষত এর আগে যেখানে টেলি শিল্পের সংগঠন সিওএআই শীর্ষ আদালতের সিদ্ধান্তকে তাদের পক্ষে ‘সর্বনাশা ধাক্কা’ তকমা দিয়েছিল।

সংস্থাগুলির আয়ের কোন হিসেব ধরে লাইসেন্স ও স্পেকট্রাম ব্যবহারের ফি ধার্য হবে, তা নিয়ে সম্প্রতি ডটের হিসেবকে মান্যতা দিয়েছে সুপ্রিম কোর্ট।

তা অনুযায়ী সংস্থাগুলির মোট বকেয়া ১.৩৩ লক্ষ কোটি টাকা। তার পরেই কেন্দ্রের কাছে রিলায়্যান্স-জিয়ো বাদে পুরনো টেলি সংস্থাগুলি বকেয়া মকুব বা দীর্ঘ মেয়াদে শোধের সুযোগ চেয়ে আর্জি জানায়। দরবার করে ত্রাণের জন্য। বুধবার সিওএআইয়ের দাবি, ডট সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ ও লাইসেন্সের নিয়ম মেনে নোটিস দিয়েছে। তবে তারা ত্রাণের আর্জি থেকে সরছে না। সংস্থাগুলি রায় খতিয়ে দেখে আইনগত ভাবে যা মানার কথা, মানবে।

Advertisement

অখুশি কেন্দ্র: বকেয়া লাইসেন্স ফি-র প্রেক্ষিতে ভোডাফোন গোষ্ঠীর সিইও নিক রিড বলেছিলেন, ভারতে তাঁদের ব্যবসার ভবিষ্যৎ অনিশ্চিত। এ দেশে মূলধন ঢালার দায়বদ্ধতা তাঁদের নেই।

সূত্রের খবর, বুধবার এই বক্তব্য নিয়ে অসন্তোষ জানিয়েছে কেন্দ্র। এর পরে প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি দিয়ে রিড জানান, ভারতে লগ্নি করবেন। দাবি, সংবাদ-মাধ্যমে তাঁর মন্তব্য বিকৃত করা হয়েছে।

আরও পড়ুন

Advertisement