• সুব্রত সীট
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

প্রতি দিনই দিল্লির বিমান মেলার আশা নতুন বছরে

Flight will commence to Delhi from Andal from March 2020
প্রতীকী চিত্র।

Advertisement

নতুন বছরে অণ্ডাল বিমানবন্দর থেকে সপ্তাহে সাত দিন দিল্লি রুটে উড়ান চালাবে একটি বেসরকারি সংস্থা। বর্তমানে এয়ার ইন্ডিয়া সপ্তাহে চার দিন ওই রুটে উড়ান চালায়। কিন্তু সেই পরিষেবা নিয়ে নানা অসন্তোষ রয়েছে যাত্রীদের মধ্যে। নতুন উড়ান চালু হলে সুবিধা হবে, দাবি শিল্পাঞ্চলের যাত্রীদের অনেকের। সপ্তাহে সব দিন দেশের রাজধানীর সঙ্গে উড়ান-যোগ গড়ে ওঠার সম্ভাবনায় খুশি বিভিন্ন বণিক সংগঠনও। অণ্ডাল বিমানবন্দরের ডিরেক্টর অপূর্ব শর্মা বলেন, ‘‘২৯ মার্চ থেকে সপ্তাহের সব দিন ওই বেসরকারি সংস্থা বিমান চালাবে বলে সব কিছু চূড়ান্ত হয়ে গিয়েছে। সে জন্য যাবতীয় অনুমোদনও মিলেছে।’’

দিল্লি রুটে এয়ার ইন্ডিয়া ১২২ আসনের বিমান চালায়। সকাল ৫টা ৫০ মিনিটে দিল্লি থেকে ছেড়ে সেটি অণ্ডালে পৌঁছয় ৭টা ৫০ মিনিট নাগাদ। আবার সকাল ৮টা ২৫ মিনিটে অণ্ডাল থেকে ছেড়ে দিল্লি পৌঁছয় ১০টা ৪০ মিনিট নাগাদ। রবি, সোম, বৃহস্পতি ও শুক্রবার এই উড়ানটি চালু থাকার কথা। কিন্তু সংস্থার অভ্যন্তরীণ কিছু কারণের কথা জানিয়ে নভেম্বরের মাঝামাঝি থেকে রবি ও বৃহস্পতিবারের উড়ান বন্ধ রেখেছে এয়ার ইন্ডিয়া। ১২ জানুয়ারি পর্যন্ত এই পরিস্থিতি চলবে বলে সংস্থা সূত্রে জানা গিয়েছে। এর ফলে বিপাকে পড়ছেন বলে অভিযোগ অনেক যাত্রীর। তাঁদের দাবি, চাহিদা থাকা সত্ত্বেও পরিষেবা মাঝেমাঝেই অনিয়মিত হয়ে পড়ায় সমস্যা হচ্ছে। কলকাতা হয়ে যাতায়াত করতে অনেক বেশি খরচ হয়। সময়ও অনেক বেশি লাগে।

অণ্ডাল বিমানবন্দর সূত্রে জানা গিয়েছে, এখন মুম্বই ও চেন্নাই রুটে সপ্তাহের সব দিন ১৮৯ আসনের বিমান চালায় বেসরকারি সংস্থা ‘স্পাইসজেট’। তারাই দিল্লি রুটে সপ্তাহে সব দিন ১৮৯ আসনের বিমান চালাবে বলে ঠিক হয়েছে। বিমানবন্দরের জেনারেল ম্যানেজার (ফিনান্স) ত্রিদিব লাহিড়ি জানান, প্রাথমিক ভাবে ঠিক হয়েছে, বিমানটি দিল্লি থেকে সকাল ৯টা নাগাদ ছাড়বে। অণ্ডাল পৌঁছবে সকাল ১১টা ১০ মিনিট নাগাদ। এর পরে সেটিই ১১টা ৪০ মিনিট নাগাদ ছেড়ে দিল্লি পৌঁছবে দুপুর ১টা ৫০ নাগাদ।

সপ্তাহে সাত দিন দিল্লির সঙ্গে সরাসরি উড়ান-যোগের খবরে যাত্রীদের পাশাপাশি খুশি বিভিন্ন বণিক সংগঠন। ‘পশ্চিম বর্ধমান ডিস্ট্রিক্ট চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ’-এর কার্যকরী সভাপতি পবন গুটগুটিয়া জানান, ব্যবসা, চিকিৎসা, পর্যটন-সহ নানা প্রয়োজনে এলাকার বহু মানুষকে দিল্লি যাতায়াত করতে হয়। অনেকেই বিমানে যেতে চান। তাঁর বক্তব্য, ‘‘অনিয়মিত পরিষেবার জন্য এখন অণ্ডাল থেকে দিল্লির উড়ানের প্রতি তেমন ভরসা নেই যাত্রীদের। তাই সপ্তাহে সব দিন অন্য সংস্থা বিমান চালালে যাত্রীদের খুব সুবিধা হবে।’’ ‘দুর্গাপুর চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ’-এর সভাপতি কবি দত্ত বলেন, ‘‘সপ্তাহে সাত দিনই পরিষেবা মিললে নিজেদের সুবিধা মতো দিনে যাতায়াতের সুযোগ পাবেন যাত্রীরা।’’

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন