• অগ্নি রায়, অনমিত্র সেনগুপ্ত ও প্রেমাংশু চৌধুরী
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দিল্লি ডায়েরি

Delhi Diaries

Advertisement

ঝরঝর করে কেঁদে ফেললেন মেরি কম...

মুষ্টিবিক্রমের জন্য তিনি বিশ্ববিখ্যাত। রিংয়ের মধ্যে তাঁর ক্রুদ্ধ রূপই মানুষ দেখেছে। কিন্তু এ-হেন মেরি কম-কে রাজধানী দেখল সম্পূর্ণ অন্য ভাবে। সম্প্রতি এমস-এর জওহরলাল নেহরু অডিটোরিয়াম-এ বসেছিল এক অভিনব সম্মেলন। অঙ্গদান বিষয়ক দাতা ও গ্রহীতাদের এই সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন মেরি কম।

সে সভায় শোনা গেল একের পর এক মর্মন্তুদ মৃত্যুর বর্ণনা। একই সঙ্গে জীবনের নতুন অধ্যায় রচনার গল্প। মৃত ব্যক্তির কোনও অঙ্গ নতুন প্রাণ দিচ্ছে, আশা দিচ্ছে জীবিত কাউকে। উঠে এল, এক জনের চোখে অন্যের দেখতে পাওয়ার কাহিনি। ধার করা হৃদয়ে বেঁচে থাকার লড়াই। সম্মেলনে আবেগের পর্দা শীর্ষবিন্দু ছুঁল, যখন সবাই গলা মিলিয়ে গেয়ে উঠলেন ‘আজিব দাস্তা হ্যায় ইয়ে...’ ঝরঝর করে কেঁদে ফেললেন মেরি কম। দাতাদের পরিবারের বিধুর ভাষ্য শুনতে শুনতেও বার বার রুমালে চোখ মুছতে দেখা গেল তাঁকে।  

বহুরূপে: মেরি কম রিং-এ বজ্রাদপি কঠোর, বাইরে সহমর্মী 

গাঁধীর শরণ

‘‘আমি এখন গাঁধীজির আত্মজীবনী পড়ছি। শক্তি ও শিক্ষার বিরাট উৎস’’— বলছেন নির্বাচন কমিশনার অশোক লাভাসা। লোকসভা ভোটের সময় নরেন্দ্র মোদীর বিরুদ্ধে বহু বার নির্বাচনী বিধি ভাঙার অভিযোগ উঠেছিল। কমিশন সব অভিযোগ খারিজ করে দেয়। কিন্তু বাকিদের সঙ্গে সম্মত হননি লাভাসা। তার পর থেকেই বিপদে পড়েছেন অবসরপ্রাপ্ত আইএএস। তিনি নির্বাচন কমিশনার, তাঁর মেয়ে অবনীও আইএএস, এ দিকে আয়কর দফতর তাঁর স্ত্রী-পুত্রের বিরুদ্ধে তদন্তে নেমেছে। নিয়ম করে নোটিস পাঠানো হচ্ছে। এই সব চাপের মুখেই কি গাঁধীজি-র আত্মজীবনী পড়ে সত্যের পথে লড়াইয়ের শিক্ষা নিতে চাইছেন লাভাসা!

নতুন তেজস্বী

কদম ছাঁটের বদলে এখন বেশ লম্বা চুল। ওজনও কমেছে অনেকখানি। নতুন ‘স্মার্ট’-অবতারে উদয় হয়েছে লালুপ্রসাদ-পুত্র তেজস্বী যাদবের। জন্মদিন পালন করছেন চার্টার্ড প্লেনে। প্লেনেই কেক কাটছেন। শামি কাবাব খেয়ে চায়ের কাপে চুমুক দিচ্ছেন। তা নিয়ে সমালোচনার ঝড়ও উঠেছে। তেজস্বী জবাবে বলেছেন, দুধওয়ালা প্লেনে চড়ে কী করে চা খেল, তা নিয়ে অনেকের নালিশ দেখছি। আমি রাস্তায় দাঁড়িয়ে পেয়ারা, ভুট্টা, চাট খাই। প্লেনে কাবাবও খাই। তাতে অন্য লোকের পেটে ব্যথা হয়!

বাঁদর ধরবে কে

চিন্তায় পড়েছে দিল্লির পুরসভাগুলো। বাঁদর পাকড়াও করার চাকরি রয়েছে। কিন্তু কাজ করার লোক নেই। রাইসিনা হিলসের সাউথ ব্লক-নর্থ ব্লক থেকে সংসদ চত্বর, ভিভিআইপি থেকে ভিআইপি-দের ভিড়। তার সঙ্গে ভিড় বাঁদর বাহিনীর। উৎপাত বেশি হলে বাঁদর ধরার জন্য ডাক পড়ে ‘মাঙ্কি-ক্যাচার’দের। একটি বাঁদর ধরলে ২৪০০ টাকা। উত্তর ভারতের মুসলিম কলন্দর গোষ্ঠীর লোকেরাই এত দিন এ কাজ করতেন। কিন্তু এখন লোকের অভাব। এ দিকে সাহায্য চেয়ে ফোনেরও অভাব নেই। পুরসভার কর্তারা এ বার হাত তুলে দিয়েছেন। বনবিভাগের কাছে তাঁদের আর্জি, আপনারাই বরং বাঁদর-বন্দির দায়িত্ব নিন!

নায়কের ভাব

দিল্লির কনট প্লেসের কাছে পাঁচতারা হোটেলের জিমে তাঁকে নিয়মিত দেখা যায়। দিল্লিতে থাকলে সন্ধ্যাবেলায় শরীরচর্চা করতে জিমে যাবেনই। বলিউডে পা রেখেছিলেন। কিন্তু অভিনেতা হিসেবে তেমন কদর পাননি। তবে পেটানো চেহারা, রং করা চুলে নায়কের ভাব রয়ে গিয়েছে। চিরাগ পাসোয়ানই এ বার লোক জনশক্তি পার্টির কান্ডারি। এনডিএ-র শরিক দলের নতুন প্রধান দলের দায়িত্ব নিয়েই বিজেপির সঙ্গে ঝাড়খণ্ডের ভোটে দর কষাকষি করছেন। পাঞ্জার লড়াই? বাইসেপ দেখিয়ে মুচকি হাসছেন চিরাগ।

বাহুবলী: চিরাগ পাসোয়ান

সাইকেলে ডেরেক

দূষণ আর ধোঁয়ায় আচ্ছন্ন শহর। সাউথ অ্যাভিনিউয়ের বাসভবন থেকে রাষ্ট্রপতি ভবনই ঠাহর করতে পারছেন না তৃণমূলের রাজ্যসভার নেতা ডেরেক ও ব্রায়েন। তিনি সম্প্রতি দিল্লিতে এসে স্থির করলেন, প্রতীকী প্রয়াস হলেও, কিছু একটা করতে হবে দূষণ-প্রতিবাদে। পরের দিনই ছিল তাঁর সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠক। গাড়ির ডিজেলে যাতে বায়ুদূষণ না হয়, সে জন্য বাড়ির পরিচারকের পুরনো এবং ঢিলে সাইকেলটি নিলেন, আর তাতে চেপেই পৌঁছলেন সোজা সংসদে। 

 

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন
বাছাই খবর

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন