×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৬ জুন ২০২১ ই-পেপার

Bengal Polls: বল ভেবে বোমা নিয়ে খেলতে গিয়ে বিস্ফোরণ বর্ধমানে, নিহত ১ শিশু

নিজস্ব সংবাদদাতা
বর্ধমান ২২ মার্চ ২০২১ ১৬:৪৮
এখান থেকে উদ্ধার করা হয় জখম দুই শিশুকে। বিস্ফোরণের পর তল্লাশি পুলিশের।

এখান থেকে উদ্ধার করা হয় জখম দুই শিশুকে। বিস্ফোরণের পর তল্লাশি পুলিশের।

বল ভেবে বোমা নিয়ে খেলতে গিয়ে বিস্ফোরণে নিহত এক শিশু। জখম আরও এক জন। সোমবার এই ঘটনা ঘটেছে বর্ধমান শহরে। ভোটের মুখে ওই ঘটনা ঘিরে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক চাপানউতোর। শিশু মৃত্যুর এই ঘটনায় রিপোর্ট তলব করেছে নির্বাচন কমিশন।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, সোমবার সকালে বর্ধমান থানার কাছে রসিকপুর এলাকায় একটি ক্লাবের সামনে ওই ঘটনা ঘটে। ক্লাবের আশপাশে খেলছিল শিশুরা। প্রত্যক্ষদর্শীদের বয়ান অনুযায়ী, আচমকা পর পর দু’টি বিস্ফোরণ ঘটে। আশপাশের লোকজন ছুটে এসে দেখতে পান দু’টি শিশু রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিয়ে লুটিয়ে পড়েছে। শেখ ইব্রাহিম এবং শেখ আফরোজ নামে বছর পাঁচেকের ওই দুই শিশুকে জখম অবস্থায় বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। পরে হাসপাতালেই মারা যায় আফরোজ।

ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। ক্লাব এবং আশপাশের এলাকা তন্নতন্ন করে তল্লাশি চালানো হয়। তবে আর কোনও বোমার হদিশ মেলেনি। জেলার পুলিশ সুপার ভাস্কর মুখোপাধ্যায় বলেন, ‘‘আমরা তদন্ত শুরু করেছি। হাঁড়ি বা ছোট কলসির মতো কোনও পাত্রে বোমা রাখা ছিল।’’

Advertisement

বিস্ফোরণ কাণ্ড ঘিরে শুরু হয়েছে তৃণমূল এবং বিজেপি-র মধ্যে চাপানউতর। বিজেপি-র জেলা সম্পাদক শ্যামল রায়ের মতে, ‘‘কারা অশুভ শক্তি তা রাজ্যের মানুষ জানেন। কয়েক দিন আগে ১৩ নম্বর ওয়ার্ডের একটি এলাকায় বোমা পাওয়া গিয়েছে। এই ঘটনার সঙ্গে প্রত্যক্ষ্য ভাবে তৃণমূল নেতারা যুক্ত। বোমা ফাটিয়ে বিজেপি-র নামে দোষ চাপানোই ওঁদের উদ্দেশ্য ছিল।’’

যদিও বিজেপি-র অভিযোগ উড়িয়ে পূর্ব বর্ধমান জেলা তৃণমূলের মুখপাত্র প্রসেনজিৎ দাস বলেন, ‘‘আমরা চাই প্রশাসন এই ঘটনার তদন্ত করুক। জড়িতদের গ্রেফতার করা হোক। প্রশাসনকে বদনাম করার জন্য কোনও অশুভ চক্র এই কাজ করে থাকতে পারে।’’

Advertisement