বলিউডে তাঁর কেরিয়ারের বয়স নয় নয় করে নয়। কিন্তু সোনাক্ষী সিংহের প্রেমের সম্পর্ক বরাবরই থেকেছে পর্দার আড়ালে। সচেতন ভাবে নিজের সম্পর্ক লুকিয়ে রাখেন তিনি। সহ অভিনেতাদের সঙ্গে তাঁকে জড়িয়ে বিশেষ গুঞ্জরিত হয়নি গুঞ্জন। কিন্তু শত্রুঘ্ন-কন্যা নিজেই স্বীকার করলেন অতীতে একজন সেলেব্রিটির সঙ্গে তাঁর প্রণয়ের সম্পর্ক ছিল। কিন্তু কাকপক্ষীতেও টের পায়নি তাঁদের প্রেম।

সোনাক্ষীর প্রেমের জন্যও নাকি ছিল শর্ত। নায়িকাকে সেই শর্ত দিয়েছিলেন তাঁর বাবা মা। প্রেম করা যাবে, কিন্তু কোনও ‘সুশীল পুরুষের’ সঙ্গে। ইন্ডাস্ট্রির কারও সঙ্গে প্রেমে প্রবল আপত্তি ছিল সোনাক্ষীর পরিবারের। কিন্তু বাবা-মায়ের কথা শোনেননি সোনাক্ষী। তাঁর বাবা-মায়ের চোখে ‘দুষ্টু’ কোনও বলিউডি লুটেরাই চুরি করেছিল তাঁর মন। দিব্যি চলেছিল গোপন ডেটিং। কিন্তু সেই ডেটিং প্রেম পর্যন্ত নাকি পৌঁছয়নি।

প্রেম নিয়ে সব সময়ই লো প্রোফাইল বজায় রেখে এসেছেন। অন্য নায়িকাদের মতো আজ এই নায়ক, কাল ওই নায়ক, পরশু তাবড় শিল্পপতি, এই রসায়নে কোনও দিনই বিশ্বাসী ছিলেন না সোনাক্ষী। সম্পর্কে প্রতারণাকে কোনও দিনই প্রশ্রয় দেননি তিনি। প্রেমে ঘুণ ধরা, অবিশ্বাসের কথা ভাবতেও পারেন না ‘দাবাং’ দুহিতা। প্রেমিক যদি বিশ্বাসঘাতকতা করেন? সে দিনটা দেখতেই চান না সোনাক্ষী।

আরও পড়ুন: অনটনে পড়ে বাংলো, গাড়ি, সংগ্রহের বই পর্যন্ত বেচতে বাধ্য হন বলিউডের এই মহাতারকা

আরও পড়ুন: যোগব্যায়ামের শিক্ষক ছিলেন ‘বাহুবলী’র দেবসেনা, জানতেন!

মাঝে গুঞ্জন শোনা গিয়েছিল যে, সোনাক্ষী নাকি বান্টি সজদেহকে ডেট করছেন। কিন্তু সেই রটনাকে নস্যাত করে দিয়েছিলেন সুন্দরী। সম্পর্ক যত ক্ষণ না অবধি বিয়ের মণ্ডপ অবধি এগোচ্ছে, তত ক্ষণ কাউকে বলবেন না বলেও ঠিক করেছিলেন নায়িকা। কিন্তু কবে সেই মাহেন্দ্রক্ষণ? অদূর ভবিষ্যতে তো একেবারেই নয়। কাজ নিয়ে তিনি এতই ব্যস্ত, বিয়ের কথা ভাবার সময়ই নেই, জানিয়েছেন সোনাক্ষী। কিন্তু যখন বিয়ে ঠিক হবে, তখন তিনি নিজে দুনিয়ার সবাইকে জানাবেন, ভেবেই রেখেছেন ‘বুলেট রাজা’র নায়িকা। তবে তাঁর সবথেকে বিরক্ত লাগে, যখন সবাই তাঁর বিয়ে নিয়ে জল্পনা কল্পনা শুরু করে দেয়। যেন, যার বিয়ে তার হুঁশ নেই, পাড়া পড়শির ঘুম নেই।

বরুণ শর্মার সঙ্গে সোনাক্ষীর আগামী ছবি ‘খানদানি শাফাখানা’-র মুক্তি আগামী দোসরা অগস্ট।