Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

Deboshree Roy: ‘নিন্দুকের মুখে ছাই দিয়ে আরও একবার প্রমাণিত হল দেবশ্রী রায় হারতে শেখেনি’

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২০ অগস্ট ২০২১ ২১:০৮
দেবশ্রী রায়

দেবশ্রী রায়

‘বাসি রসগোল্লা’ কটূক্তি নস্যাৎ করলেন ‘কলকাতার রসগোল্লা’! সম্প্রচার শুরুর এক সপ্তাহের মধ্যে রেটিং চার্টে তৃতীয় স্থান দখল করল দেবশ্রী রায় অভিনীত ‘সর্বজয়া’ ধারাবাহিক। ১০ বছর পরে অভিনয়ে ফিরে অভিনেত্রী বুঝিয়ে দিলেন, এখনও তিনি টক্কর দেওয়ার ক্ষমতা রাখেন। শুক্রবার সে কথা তিনিও সামাজিক পাতায় প্রকাশ্যে জানিয়েছেন। নিজের ছবি দিয়ে দেবশ্রীর দাবি, ‘শুরুতেই বাজিমাত! প্রথম সপ্তাহেই সকলকে টেক্কা দিল "সর্বজয়া"! নিন্দুকের মুখে ছাই দিয়ে আরও একবার প্রমাণিত হল দেবশ্রী রায় হারতে শেখেনি’!

একই সঙ্গে প্রশ্ন তুলে দিলেন, এই প্রজন্মের অভিনেত্রীরা এ বার সমঝে চলতে বাধ্য হবেন তাঁকে?

জবাবে আনন্দবাজার অনলাইনকে দেবশ্রী বললেন, ‘‘এর আগের সাক্ষাৎকারেই বলেছিলাম আমি কথা কম কাজ বেশিতে বিশ্বাসী। সেটাই করে দেখালাম। ক্যামেরা আমার আজন্ম সখী। ওর আর আমার বাঁধন ছেঁড়ার নয়’’। এও জানালেন, একবার সাঁতার বা সাইকেল শিখলে যেমন কেউ ভোলে না, অভিনয়টাও তাইই। এক বার রক্তের সঙ্গে মিশে গেলে আর সেটা যাওয়ার নয়। একই সঙ্গে তাঁর দাবি, ধারাবাহিকের প্রযোজক-পরিচালক স্নেহাশিস চক্রবর্তী খুব খুশি। বলছেন, ‘‘আমার জহুরির চোখ। রত্ন চিনতে ভুল হয় না। নিন্দুকেরা দেখুক, ‘কলকাতার রসগোল্লা’ কেমন টগবগিয়ে ফুটছে!’’

Advertisement

অনেকের কাছেই এটা রাতের ঘুম কেড়ে নেওয়ার মতো বিষয়। দেবশ্রী কিন্তু একটুও বিচলিত নন। উল্টে তাঁর অনুরোধ, ‘‘দর্শকেরা একটু ধৈর্য ধরুন। দেখুন, দেবশ্রী কেমন একের পর এক ছক্কা হাঁকাবে।’’ কেবল যাতায়াতের ধকল সামান্য কাবু করে ফেলেছে তাঁকে। যদিও অভিনেত্রীর কথায়, খুব শিগগিরি এটুকুও সামলে নেবেন তিনি।


গত ১০ বছর দেবশ্রীর পরিচয় ছিল, তিনি শাসক দলের বিধায়ক। ২০২১-এর বিধানসভা নির্বাচনের আগে রাজনীতি থেকে সরে আসেন তিনি। তখন থেকেই জাতীয় পুরস্কারজয়ী অভিনেত্রী নেটমাধ্যমে কটাক্ষ, জল্পনার শিকার। কটাক্ষ আরও তীব্র হয় দেবশ্রী অভিনয়ে ফিরছেন, এই খবর ছড়াতেই। তখনই তাঁকে শুনতে হয়েছিল তিনি ‘বাসি রসগোল্লা’! ব্লুজ-এর নতুন ধারাবাহিকের প্রথম ঝলক প্রকাশ্যে আসতে আরেক প্রস্থ ট্রোলের শিকার তিনি। ‘সর্বজয়া’ নাকি শ্রীময়ী ধারাবাহিকের হুবহু অনুকরণ’, আওয়াজ তুলেছিলেন নেটাগরিকেরা। সেই সময় দেবশ্রী এবং স্নেহাশিস চক্রবর্তীকে সমর্থন করেছিলেন ইন্দ্রাণী হালদার। আনন্দবাজার অনলাইনকে বলেছিলেন, ‘‘স্নেহাশিস কখনও কারওর অনুকরণ করেননি। আর দেবশ্রীদির মতো প্রতিভাময়ী অভিনেত্রী চিত্রনাট্য না শুনে অভিনয়ে রাজি হন না। সবটাই ভুয়ো রটনা’’।

সেই সময় দেবশ্রীও বলেছিলেন, ইন্ডাস্ট্রির অনেকেই তাঁর ফিরে আসায় ভয় পাচ্ছেন। সেই জায়গা থেকেই অপপ্রচার করে বিভ্রান্তি ছড়ানোর চেষ্টা চলছে নেটমাধ্যমে।

আরও পড়ুন

Advertisement