Advertisement
৩১ জানুয়ারি ২০২৩
Oscar Nominations

এত, এত ভাল লাগছে...! তাঁর সৃষ্ট তথ্যচিত্র অস্কারে মনোনীত হওয়ায় খুশির সীমা নেই বঙ্গসন্তানের

অস্কারে সেরা ফিচার তথ্যচিত্রের বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছে ‘অল দ্যাট ব্রিদস’। কেমন সেই অনুভূতি? আনন্দবাজার অনলাইনকে জানালেন পরিচালক শৌনক।

সত্যজিতের পর বাঙালি আবার অস্কারে, শৌনক সেনের তথ্যচিত্র ‘অল দ্যাট ব্রিদস’ মনোনীত।

সত্যজিতের পর বাঙালি আবার অস্কারে, শৌনক সেনের তথ্যচিত্র ‘অল দ্যাট ব্রিদস’ মনোনীত। গ্রাফিক: সনৎ সিংহ।

তিয়াস বন্দ্যোপাধ্যায়
কলকাতা শেষ আপডেট: ২৪ জানুয়ারি ২০২৩ ২০:৪২
Share: Save:

উচ্ছ্বাস! তা ছাড়া আর কী-ই বা থাকবে শৌনক সেনের কণ্ঠে। “এত ভাল লাগছে...! এত ভাল লাগছে...! যে বলার নয়! এটা একটা অসামান্য অনুভূতি, যা ভাষায় প্রকাশ করা মুশকিল। অন্য রকম খুশির মুহূর্ত। আমি, আমার দল সবাই ভীষণ ভীষণ খুশি।”

Advertisement

আগে থেকেই নজরে ছিলেন শৌনক। ২০২২ সালে কান-এ পুরস্কৃত হয়েছিল তাঁর তৈরি তথ্যচিত্র ‘অল দ্যাট ব্রিদস’। এ বার অস্কারের দৌড়েও সগৌরবে জায়গা করে নিলেন তরুণ বাঙালি পরিচালক। তাঁর প্রতিক্রিয়া জানতে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আনন্দবাজার অনলাইন যোগাযোগ করেছিল শৌনকের সঙ্গে।

শৌনক কৃতজ্ঞতা জানালেন তাঁর টিমকে। সেই সঙ্গে ধন্যবাদ দিলেন অ্যাকাডেমি কর্তৃপক্ষকে, তাঁর ছবিকে মনোনীত করার জন্য। তাঁর ছবি সেরা হিসাবে মনোনীত হবে কি? স্বপ্ন দেখছেন? জবাবে শৌনক বললেন, “সেটা এখন অনুমাননির্ভর। মার্চ মাস অবধি অপেক্ষা করতে হবে।” তবে এই মুহূর্তের খুশিটুকুই তিনি চুটিয়ে উপভোগ করছেন।

অস্কারে সেরা ফিচার তথ্যচিত্রের বিভাগের মনোনয়ন পেয়েছে ‘অল দ্যাট ব্রিদস’। এর আগে বাঙালির অস্কার বলতে সত্যজিৎ রায়ের সারা জীবনের সম্মান। তাতে অবশ্য প্রতিযোগিতার কোনও অবকাশ ছিল না। সত্যজিতের আজীবনের কাজের স্বীকৃতির জন্য তাঁকে ওই পুরস্কার দিয়েছিল অ্যাকাডেমি অফ মোশন পিকচার্স। তার পর ২০২১ সালে বাঙালি সুস্মিত ঘোষের তৈরি তথ্যচিত্র ২০২২ সালের অস্কার পুরস্কারের জন্য লড়াইয়ে মনোনীত হয়েছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত শিকে ছেঁড়েনি।

Advertisement

গ্রাফিক:শৌভিক দেবনাথ।

অতঃপর সেরা তথ্যচিত্রের অস্কারের লড়াইয়ে জায়গা করে নিলেন আরও এক বাঙালি পরিচালক শৌনক। এর আগে ‘বাফটা’-তেও (ব্রিটিশ অ্যাকাডেমি অফ ফিল্ম ও টেলিভিশন আর্টস) সেরা তথ্যচিত্রের বিভাগে মনোনয়ন পেয়েছিল শৌনকের পরিচালিত ‘অল দ্যাট ব্রিদস’। ২০২২ সালে ‘সানডান্স চলচ্চিত্র উৎসব’-এ ‘গ্র্যান্ড জুরি প্রাইজ়’ জিতে নিয়েছিল ‘অল দ্যাট ব্রিদস’। গত বছর কান চলচ্চিত্র উৎসবেও সম্মানিত হয়েছে শৌনকের এই তথ্যচিত্র।

জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র শৌনক। ২০১৫ সালে কান চলচ্চিত্র উৎসবের সহযোগিতায় ফরাসি লেখকদের একটি গোষ্ঠী ‘ল’ওয়েল ডি‘অর’ পুরস্কার দেওয়ার রীতি চালু করেছে। যার আর এক নাম, ‘গোল্ডেন আই অ্যাওয়ার্ড’। সেই সম্মানই গত বছর পেয়েছিলেন শৌনক। একমাত্র ভারতীয় ছবি হিসেবে ২০২২ সালের ‘ল’ওয়েল ডি‘অর’ পুরস্কারেও ভূষিত হয়েছে শৌনকের তৈরি তথ্যচিত্র। এ বার সেরার সেরা মঞ্চে তাঁর সৃষ্টি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.