Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৭ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

...বর্ষা তুমি ঝোরো না গো অমন জোরে

০৩ জুলাই ২০১৫ ০০:০১

বৃষ্টির জন্য ঈশ্বরকে ধন্যবাদ?

নাকি ভাবছেন হা ঈশ্বর এত বৃষ্টি কেন হচ্ছে?

বৃষ্টি হচ্ছে বলে সুন্দর জামাকাপড় পরবেন না? রাস্তাঘাট নোংরা বলে যে পোশাকটা আপনার সব চেয়ে অপছন্দের সেটাই পরতে হবে এমনটা কিন্তু নয়। ভাবুন বর্ষাকালে শ্রীহীন পোশাক পরে রাস্তায় বেরিয়েছেন। আর আপনার সঙ্গে পুরনো প্রেমিকের হঠাৎ দেখা হয়ে গেল। কিংবা ধরুন আপনার যাকে ভাল লাগে দেখা হয়ে গেল এমন কারও সঙ্গে। তখন?

Advertisement

এই বর্ষায় গড়পড়তা সাজে না গিয়ে কী ভাবে নিজেকে সুন্দর করে তুলবেন, সে রাস্তাই বাতলাতে আমরা আসছি বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিয়ে।



এ কথা নতুন করে বলার নয়, যে বর্ষা মানেই উজ্জ্বল রং। দিনে হোক বা রাতে যে কোনও সময়ই আপনি উজ্জ্বল রঙের পোশাক বা মেকআপ ব্যবহার করতে পারেন। ঘ্যানঘ্যানে বর্ষায় এক ধরনের অবসাদ গ্রাস করে। সেই অনুভূতি কাটাতেই যে কোনও সময় উজ্জ্বল রঙে সাজুন। সোজা কথায় জীবন মেলে দিন রঙের ফোয়ারায়।

কী ভাবে রাঙাবেন নিজেকে?

পোশাকে যদি হাল্কা রং থাকে পরে নিন একটা ঝকঝকে নেকপিস। দেখবেন সামান্য ওই নেকপিস আপনার ‘লুক’টাই পাল্টে দিয়েছে।

বর্ষার জন্য কোনও ডিজাইনারই আলাদা করে পোশাক ডিজাইন করেন না। কিন্তু অনেক সময়ই বর্ষার প্রেরণা থেকেই অনুপ্রাণিত হয়ে তাঁরা পোশাক বানান। ওঁরাই বলে থাকেন এই মরসুমে সুতি, ক্রেপ, অরগ্যাঞ্জা না পরাই ভাল। তবে কেউ কেউ মনে করেন সিল্ক পরা যায়, সিল্কের পোশাকে রঙের বৈচিত্র আছে বলেই।

ডিজাইনার অনিতা ডোগরে মনে করেন বর্ষার সাজের জন্য আলমারিতে আলাদা একটা তাক থাকা উচিত। ‘‘আগেকার দিনে অনেক মহিলাই বর্ষার জন্য আলাদা কালেকশন রাখতেন ওয়ার্ড্রোবে। এখন আবার অনেকে সেই ট্র্যাডিশন ফিরিয়ে আনতে চাইছেন। তবে আমার মনে হয় ফিউশনওয়্যার এই মরসুমের জন্য সেরা বাছাই,’’ বলছেন অনিতা।

বর্ষায় সালোয়ার-কুর্তা না পরে পরুন লেগিংস আর টিউনিক। দোপাট্টার জায়গায় ব্যবহার করুন ধাতব লুপ বা পাথর বসানো স্কার্ফ। যাঁরা শাড়ি পরতে পছন্দ করেন, তাঁরা পেটিকোটের জায়গায় পরতে পারেন হারেম প্যান্ট বা ফিটেড প্যান্ট। তবে সুতির পোশাকে আপাদমস্তক না ঢেকে জর্জেট বা ব্লেন্ডেড ফেব্রিকের পোশাক পরুন। ব্লেন্ডেড ফেব্রিক হল কিছুটা পলিয়েস্টার, কিছুটা সুতির মিশ্রণ।

একরঙা বা মোনোক্রোম্যাটিক লুক খুব জনপ্রিয় ট্রেন্ড। এই মরসুমে শর্টস, স্কার্ট আর কেপ্রি ছাড়া যেটা পরতে পারেন তা হল রিপড জিনস। খুব চলছে এখন। জিনসের ছেঁড়া জায়গাগুলোতে সুন্দর সব নকশা হচ্ছে। কখনও পুঁতি, কখনও গ্লিটার দিয়ে। এই বর্ষায় পুরনো কালো বা নীল জিনস রিপ না করে অন্য রঙের জিনসগুলোকে নিয়ে রিপ করে দেখতে পারেন। তবে বাড়াবাড়ি না করাই ভাল।

মনে রাখবেন বর্ষা হল নিওন রঙের সেরা সময়। স্মার্ট মিক্স অ্যান্ড ম্যাচ করুন নিউট্রাল শেডের সঙ্গে। তবে পা থেকে মাথা পর্যন্ত যেন শুধুই উজ্জ্বল রং না থাকে। ফুলেল প্রিন্ট বা হাল্কা রঙের পোশাক পরলে রঙের ছোঁয়া আনুন রঙিন জুতো বা ব্যাগে। গয়না পরুন জমকালো, সুন্দর, দেখনদার। স্টেটমেন্ট নেকপিস, পাথর বসানো কাফ, ককটেল রিং এই বর্ষায় সাজার পক্ষে খুব ভাল। তা ছাড়া মেটালিক হেড ব্যান্ডও এখন ইন।

সঙ্গে পরুন ফ্যান্সি ফ্লিপ ফ্লপ বা জেলির রঙিন ব্যালেরিনা। বাজারে অনেক নতুন নতুন ডিজাইনের ছাতা পাওয়া যাচ্ছে। সেই সব ছাতা নিয়ে দারুণ ফ্যাশন করা যায়।

বর্ষায় নানা ধরনের চেন আর ব্রেসলেট পরতে পারেন। পায়ে ধাতব বা রঙিন বিডেড অ্যাঙ্কলেট পরুন। নেল আর্ট দেখাবার সেরা সময় এটি। মেক আপের কথা আসতে মেক আপ বিশেষজ্ঞ মিকি কনট্রাকটর বললেন, ‘‘আমি মনে করি না বিশেষ কোনও ট্রেন্ড অনুসরণ করার দরকার আছে।’’ কিন্তু যেমনই মেক আপ করুন, সেটা ওয়াটারপ্রুফ হতে হবে। ফাউন্ডেশন লাগানোর দরকার নেই। কিন্তু যাঁরা লাগাতে চান, তাঁরা ওয়াটারপ্রুফ ফাউন্ডেশন ব্যবহার করতে পারেন। ওয়াটারপ্রুফ আই মেক আপ, আই পেন্সিল আর মাস্কারা সঙ্গে রাখুন। লাগাতে পারেন টিন্টেড লিপগ্লস। ‘‘ত্বকে গ্লসি লুক রাখবেন,’’ বলছেন মিকি।

বৃষ্টির সঙ্গে রোম্যান্স

মাছের রাজা তো আছেনই।
কাঁটা লাগলে? কেন বোনলেস ইলিশ

জল খেলুক শরীরে। সি থ্রু শিফনে
‘মিস্টার ইন্ডিয়া’র শ্রীদেবীর মতো

‘শাওন রাতে যদি’। ভিজুন মান্না দে-র গানেও

বৃষ্টির মধ্যে লং ড্রাইভ মানেই রোমাঞ্চ। পাশে যদি...

বাগানে বা ছাদে রেনপার্টি করতে ক্ষতি কী!

জুঁইয়ের মালাতেই তো প্রেম

ফ্যাশন টিপস দিয়েছেন অভিষেক দত্ত, অনিতা ডোগরে।

আরও পড়ুন

Advertisement