• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

রায়বাড়ির পুজোয় ঢাক বাজাবে যমুনা ঢাকি?

yamuna dhaki
ছোটপর্দায় অকালবোধন এই জুলাইয়েই, সেই গন্ধ বয়ে আনবে যমুনা ঢাকি। নিজস্ব চিত্র।

ক্যালেন্ডারের হিসেবে পুজোর এখনও তিন মাস বাকি। ছোটপর্দায় অকালবোধন এই জুলাইয়েই, সেই গন্ধ বয়ে আনবে যমুনা ঢাকি।
 
মহিলা পুরোহিতের মতোই কি এ বছর প্যান্ডেলে মহিলা ঢাকি দেখা যাবে?
 
তার উত্তর না মিললেও এটা নিশ্চিত, বনেদি রায় বাড়িতে এ বছর বাঁধা ঢাকি গঙ্গাপদর বদলে ঢাক বাজাবে তাঁর মেয়ে যমুনা।

আরও পড়ুন: ‘বন্ধুরা বলে,আমাকে দেখলে বাঙালি মনে হয়!’

 
দারুণ একটা গল্পের গন্ধ পাচ্ছেন তো সবাই? ‘কাদম্বিনী’র পর জি বাংলা এ যুগের মেয়েদের জীবনযাত্রার আরও একটি নতুন দিক তুলে আনছে ‘যমুনা ঢাকি’ ধারাবাহিকের মাধ্যমে।
 
বংশ পরম্পরায় গঙ্গাপদ ঢাক বাজান। ‘যন্ত্র পট্টি’তে তার ছোট বাড়ি। সেখানেই একমাত্র মেয়ে আর স্ত্রীকে নিয়ে অভাবের সংসার। মাথা গোঁজার ছাদটুকু থাকলেও এক গলা ঋণে ডুবে গঙ্গাপদ। এর মধ্যেই ধরা পড়ে, কাল ব্যাধিতে ধরেছে তাকে। ডাক্তারের কড়া নিষেধ, আর ঢাক বাজানো চলবে না।

তাহলে সংসার চলবে কী উপায়ে?

পরিবার বাঁচাতে ঢাক বাজানোর জেদ নিয়ে স্ত্রীর সঙ্গে অনেক তর্কের পর গঙ্গাপদ মেয়েকে নিয়ে চলে আসেন কলকাতায়। সেখানেই রায় বাড়ির তিনি বাঁধা ঢাকি। এ বছরেও তিনি ঢাক বাজাবেন স্থির। কিন্তু পুজোর দিন কাঁধে ঢাক তুলে নিতেই আরও অসুস্থ হয়ে পড়ে সে।
বাবার মান বাঁচাতে, সংসারের হাল ধরতে তখনই প্রথম কাঁধে ঢাক তুলে নেয় যমুনা। আর নিমেষেই সে যমুনা ঢাকি।

আরও পড়ুন: লকডাউন পরবর্তী প্রথম বাংলা ছবির শুটিং শুরু করলেন নুসরত-মিমি

 
যদিও রায় বাড়ি কিছুতেই মেনে নিতে পারেনি পুরুষ ঢাকির বদলে মহিলা ঢাকিকে। এত দিনের সংস্কার তাদের আটকেছে একুশের আধুনিকতাকে বরণ করে নিতে। কিন্তু পরিবারেরই ছেলে সঙ্গীত যমুনাকে স্বাগত জানিয়ে যখন সাপোর্ট হয়ে দাঁড়ায় তখন স্বাভাবিক ভাবেই জিতে যায় যমুনা।

রায় বাড়ি কিছুতেই মেনে নিতে পারেনি পুরুষ ঢাকির বদলে মহিলা ঢাকিকে। নিজস্ব চিত্র।

চ্যানেলের প্রোমো সোশ্যাল মিডিয়ার পেজ ছেড়ে ইতিমধ্যেই ছোটপর্দায় কৌতূহলের পারদ চড়াচ্ছে ফি-দিন। প্রোমো বলছে, রায় বাড়ির বর্তমান প্রতিনিধি অভিনেতা কৌশিক বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর স্ত্রী দেবযানী চট্টোপাধ্যায়। যমুনার ভূমিকায় জড়োয়ার ঝুমকো খ্যাত শ্বেতা ভট্টাচার্য। ‘সঙ্গীত’ চরিত্রে অভিনয় করছেন ‘বাঘবন্দি খেলা’র রুবেল দাস।
 
দেবযানী চট্টোপাধ্যায় বনেদি বাড়ির গিন্নি। তাঁর হাতেই বাড়ির সমস্ত দায়। এবারেও কি তিনি জাঁদরেল মহিলা?
 
এই প্রশ্ন স্বাভাবিক ভাবেই এসেছে। শুনেই হেসে ফেলেছেন অভিনেত্রীও। তারপর জানালেন, ‘‘আমি আগেই বলে নিয়েছি, জাঁদরেল হোক। কিন্তু নেগেটিভ আর দেখিও না।’’
 
কথায় কথায় দেবযানী জানিয়েছেন, আগেই চ্যানেল কর্তৃপক্ষকে বলেছিলেন, জুন মাসে শুটিং করবেন না। সেই অনুযায়ী কোনও কাজ করেননি। মেগার লুক টেস্ট দিতে গিয়েছিলেন একদিন।
 
বাড়ির বউমা ঢাকি পরিবারের। মেনে নেবেন শাশুড়ি? এবারেও হেসে জবাব এল, সেটা নিয়েই তো গল্প। দেখতে হবে তার জন্য নতুন মেগা। তবে এটা বলা যাতেই পারে, মেয়েদের জীবনের সম্পূর্ণ ভিন্ন দিক উঠে আসবে যমুনা ঢাকিতে।
 
কথা বললেন ধারাবাহিকের আরেক চরিত্র কাঞ্চনা মৈত্রও। জানালেন, লুক টেস্ট দেওয়ার সময় কানে এসেছেন বনেদি বাড়ির মেয়ে তিনি। অর্থাৎ সঙ্গীতের পিসিমা। ফলে, চরিত্রের গুরুত্ব আছে, দাপটও। প্রোমোতেও তিনি আছেন। তবে এর বেশি কিছুই ভাঙতে চাইলেন না কাঞ্চনা। হেসে বললেন, ‘ক্রমশ প্রকাশ্য’।
 
১৩ জুলাই থেকে সোম থেকে শনি রোজ সন্ধে সাড়ে ৭টায় ঢাকি পরিবারের গল্প বলবে যমুনা। প্রযোজনায় ব্লু। ক্রিয়েটিভ ডিরেক্টর স্নেহাশিস চক্রবর্তী।

 

 

 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন