Advertisement
০১ মার্চ ২০২৪
Nawazuddin Siddiqui

অসুস্থ মাকে দেখতে নিজের বাড়িতে ঢুকতেই পারলেন না নওয়াজ়! দরজা থেকেই ফেরানো হল তাঁকে

নওয়াজ়ের মায়ের শরীর বেশ কিছু দিন ধরেই খারাপ। অবস্থার আরও অবনতির খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার নওয়াজ় এসেছিলেন বাড়িতে। মুখে মাস্ক ছিল তাঁর। আশায় ছিলেন, মাকে এক বার দেখতে পাবেন।

 Nawazuddin Siddiqui Stopped from Meeting Ailing Mother at His Own Bungalow in Versova

নিজের বাড়িতেই ঢুকতে বাধা নওয়াজ়কে। ছবি: সংগৃহীত।

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ০৩ মার্চ ২০২৩ ১২:৪৬
Share: Save:

মুম্বইয়ে নিজের বাংলোয় গিয়েও অসুস্থ মায়ের সঙ্গে দেখা করতে পারলেন না নওয়াজ়উদ্দিন সিদ্দিকি। মাঝরাতে দরজা থেকেই তাঁকে ফিরিয়ে দিলেন ভাই ফজিউদ্দিন সিদ্দিকি। সংবাদমাধ্যমের ক্যামেরায় ধরা পড়েছে সেই দৃশ্য। যা নিয়ে ফের শোরগোল নেটদুনিয়ায়।

নওয়াজ় আর তাঁর স্ত্রী আলিয়া সিদ্দিকির দাম্পত্য কলহের জটিলতা দিনে দিনে বাড়ছে। তার মধ্যেই এমন এক কাণ্ডে পরিস্থিতি অন্য দিকে মোড় নিল। নওয়াজ়ের মায়ের শরীর বেশ কিছু দিন ধরেই খারাপ। অবস্থার আরও অবনতির খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার নওয়াজ় এসেছিলেন বাড়িতে। মুখে মাস্ক ছিল তাঁর। আশায় ছিলেন, মাকে এক বার দেখতে পাবেন, কিন্তু ভাই এবং আরও কয়েক জন মিলে অভিনেতাকে বাধা দেওয়ায় তিনি ঢুকতে পারেননি। অনেক বুঝিয়েও লাভ হয়নি, লোকে তাঁকে বুঝিয়ে দেন, নিজের বাড়িতেও প্রবেশাধিকার হারিয়েছেন তিনি।

সপ্তাহ কয়েক আগে আন্ধেরির বাংলোয় সন্তানদের সঙ্গে দেখা করতে গেলেও তাঁকে ঢুকতে দেননি স্ত্রী আলিয়া। নওয়াজ় থাকছেন হোটেলেই। অভিযোগ-পাল্টা অভিযোগ, পারস্পরিক কাদা ছোড়াছুড়ির আবহে সম্প্রতি আলিয়াকে ডেকে পাঠিয়েছিল ভারসোভা থানার পুলিশ। প্রাক্তন স্বামী নওয়াজ়ের বিরুদ্ধে একগুচ্ছ অভিযোগ এনেছেন তিনি। সন্তানদের নিজের কাছেই রাখতে চান, সেই সঙ্গে চান সম্পত্তি সংক্রান্ত সমস্যার সমাধান। আদালতের রায়ের উপরই নির্ভর করছে এই পরিস্থিতির মীমাংসা।

গত সপ্তাহে মুম্বই হাই কোর্টের দুই বিচারপতি এ এস গডকরী ও পি ডি নায়েকের ডিভিশন বেঞ্চ নওয়াজ় ও আলিয়াকে তাঁদের দুই সন্তানের অভিভাবকত্ব নিয়ে সমস্যার সমাধান করতে কথা বলার নির্দেশ দেয়। তাঁদের দুই সন্তানের এক জনের বয়স ১২ বছর, অন্য জনের ৭ বছর। নওয়াজ় যদিও তাঁর ১২ বছরের কন্যার ভরণপোষণের দায়িত্ব নিজেই নিতে চাইছিলেন আর অস্বীকার করছিলেন ৭ বছরের পুত্রকে। সেই পরিস্থিতিতে বেঁকে বসেন আলিয়া। আলিয়ার আইনজীবী আদালতে জানিয়েছিলেন, সন্তানরা তাঁদের মায়ের সঙ্গেই রয়েছে। মাকে ছেড়ে তারা দুবাইতে ফিরতে চায় না।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE