Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

০৯ ডিসেম্বর ২০২১ ই-পেপার

মুখোমুখি দুই ফেলুদা

২৩ নভেম্বর ২০১৬ ০০:০০
‘৭২ ঘণ্টা’ ছবির ফার্স্ট লুক: সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় ও আবীর চট্টোপাধ্যায়

‘৭২ ঘণ্টা’ ছবির ফার্স্ট লুক: সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় ও আবীর চট্টোপাধ্যায়

শহরে এক বৃদ্ধের আত্মহত্যা নিয়ে মুখোমুখি দুই ফেলুদা! সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় আর আবীর চট্টোপাধ্যায়। ‘‘এমন একটা ধুরন্ধর লোকের চরিত্র চাইছিলাম যার বুদ্ধি ও ছলের সঙ্গে এঁটে ওঠা বেশ শক্ত। প্রখর বুদ্ধিমান, মেধাবী মানুষ (আবীর) কোনও মতেই তাকে বাগে আনতে পারছে না। আর সেখানেই এই চরিত্রের মজা,’’ বললেন সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়।

দাবার ছকের বোর্ড নিয়ে খেলতে বসছেন সৌমিত্র আর আবীর। ‘‘সদ্যই একটা পার্টিতে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় যখন বললেন অতনুর নতুন ছবিতে দুই ফেলু মিলে আমরা কিন্তু জমিয়ে দেব। মনে হল এর চেয়ে বড় পুরস্কার আর কী হতে পারে!’’ উত্তেজিত আবীর। ‘অ্যাবি সেন’-য়ের পর তিনি আবার অতনু ঘোষের ছবিতে।

‘গার্জেন কল’, ‘রিয়েলিটি শো’, ‘সাদা কালো’, ‘শিল্পী’, ‘ভাঙা-গড়া’ ও ‘ভূত’ এই ছটি গল্পকে সিনেমায় নিয়ে আসছেন পরিচালক। আবীর আর সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় থাকছেন ‘রিয়েলিটি শো’ নামের গল্পটিতে।

Advertisement

এক বৃদ্ধের মৃত্যুর কিনারা করতে গিয়ে সকাল থেকে দুপুর, দুপুর থেকে রাত, রাত থেকে পরের দিন সকাল, ‘৭২ ঘণ্টা’য় ঘটছে নানান ঘটনা।

হবে কি রহস্যের কিনারা?

প্রত্যেক গল্পেই দুটি করে চরিত্র। যারা পরষ্পর কেউ কাউকে চেনে না। অথচ প্রশ্ন নিয়ে পরষ্পর মুখোমুখি।

‘গার্জেন কল’ গল্পে স্কুল থেকে প্রিন্সিপাল ডেকে পাঠান ঋতুপর্ণা সেনগুপ্ত আর ইন্দ্রাণী হালদারকে। স্কুল ছুটির পর তাঁদের ছেলেমেয়েদের ফাঁকা ক্লাসরুমে অস্বস্তিকর অবস্থায় দেখা গিয়েছে। তারপর...

পরিচালক যদিও জানালেন, ‘‘ঋতুপর্ণা স্ক্রিপ্ট শুনে ডেট দিলেও, কনট্রাকচুয়াল ফরম্যালিটি এখনও বাকি রয়েছে।’’ মোট ছটি গল্প থাকলেও সেগুলো আলাদা আলাদা করে দেখানো হচ্ছে না। একটা ঘটনা আরেকটার সঙ্গে মিশে গিয়ে শেষে রহস্যের সমাধান করছে।

‘সাঁঝবাতির রূপকথারা’-র পর সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায় আর ইন্দ্রাণী হালদার আবার একসঙ্গে। ইন্দ্রাণী বললেন, ‘‘অনেক দিন পর সৌমিত্রদা আর আমি এক ছবিতে। তবে আমাদের একসঙ্গে কোনও দৃশ্য নেই। বরং আমি আর ঋতু ‘আরও এক বার’য়ের পর আবার ফ্লোরে। এই গল্প নতুন প্রজন্মকে মা-বাবার দৃষ্টিভঙ্গি থেকে বোঝার গল্প। ফর্মটাই এ ছবির ইউএসপি।’’ ছবিতে রহস্য সমাধানের ভারটা পরিচালক কিন্তু দুই ‘ফেলুদা’কে নয়, দিয়েছেন পরাণ বন্দ্যোপাধ্যায়কে। আর তাঁর সঙ্গে জুটি বেঁধেছেন খরাজ মুখোপাধ্যায়। ঋত্বিক চক্রবর্তী ও সুদীপ্তা চক্রবর্তী থাকছেন বিশেষ চরিত্রে। ‘‘আমার চরিত্র ছবিতে কম কথা বলে। সমকালীন রাজনীতি আর মিডিয়ার ভূমিকা যে ভাবে এসেছে, সেটা খুব ইন্টারেস্টিং,’’ বললেন ঋত্বিক।

মাল্টি-স্টারার কাস্টিং, সঙ্গে নতুন প্রযোজক। ‘‘ছবির ফর্মটা ভাঙতে চেয়েছিলাম। আর কম্বিনেশন করে কাস্ট করেছি। এই ছবিতে নো অ্যাক্টিং ফর্মটাই সবচেয়ে ইম্পর্ট্যান্ট। তাই জাত অভিনেতা-অভিনেত্রীদের নিয়েছি,’’ বলছেন অতনু। প্রযোজনার দায়িত্ব বন্ধুদের সঙ্গে ভাগ করে নিয়েছেন পরিচালক নিজেও। ছবিতে সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়ের নাতি রণদীপ বসু, নিনা চক্রবর্তী ও রিয়া বণিকের মতো এক ঝাঁক নতুন অভিনেতাকে দেখা যাবে।

শমীক হালদারের ক্যামেরা আর দেবজ্যোতি মিশ্রের সুরে ‘৭২ ঘণ্টা’ খুব শিগগির ফ্লোরে আসছে।

আরও পড়ুন

Advertisement