Advertisement
২১ মে ২০২৪
Deep Fake Controversy

আবারও বিজেপিকে নিশানা! আমির খানের পরে ডিপফেকের কবলে রণবীর সিংহ

রণবীর সিংহের কণ্ঠস্বর বদলে দিয়ে ভিডিয়ো ভাইরাল সমাজমাধ্যমে। মোদী সরকারকে নিশানা। রণবীর জানালেন, ডিপফেক ভিডিয়ো থেকে বাঁচতে হবে।

ডিপফেকের কবলে রণবীর সিংহ।

ডিপফেকের কবলে রণবীর সিংহ। —ফাইল চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৯ এপ্রিল ২০২৪ ২৩:০০
Share: Save:

আমির খানের পরে ডিপফেকের কবলে রণবীর সিংহ। সম্প্রতি রণবীরের একটি ভিডিয়ো প্রকাশ্যে আসে। সেখানে নরেন্দ্র মোদী ও কেন্দ্রীয় সরকারের সমালোচনা করতে দেখা যায় তাঁকে। মুহূর্তে ভাইরাল হয় ভিডিয়োটি। রণবীরের সেই ভিডিয়োয় শোনা গিয়েছে, “দেশের জনগণের যাবতীয় সমস্যা, বেকারত্ব উদ্‌যাপন করাই কেন্দ্রীয় সরকারের মূল উদ্দেশ্য।”

তবে পরে জানা যায়, ভিডিয়োটি ভুয়ো। রণবীর বারাণসীতে বিশ্বনাথ দর্শনের অভিজ্ঞতার কথা বলেছিলেন আসল ভিডিয়োয়। রণবীরের কণ্ঠস্বর সরিয়ে কেন্দ্রীয় সরকার সংক্রান্ত কথা বসিয়ে দেওয়া হয়। শুক্রবার অভিনেতা নিজের এক্স হ্যান্ডেলে ভাইরাল ভিডিয়ো সম্পর্কে লিখেছেন, “ডিপফেক থেকে নিজেদের বাঁচান বন্ধুরা।”

সম্প্রতি আমির খানের একটি ডিপফেক ভিডিয়ো ভাইরাল হয়। যেখানে অভিনেতাকে বলতে শোনা গিয়েছে, ‘‘ভারত কোনও গরিব দেশ নয়। ভারতের প্রতিটি নাগরিক লাখপতি। প্রত্যেকের কাছে কম পক্ষে ১৫ লাখ টাকা থাকবেই।’’ ভিডিয়ো নজরে আসার পরে আমিরের টিমের তরফে মুম্বই পুলিশের সাইবার অপরাধ দমন শাখায় অভিযোগ জানানো হয়েছিল। আমিরের মুখপাত্রের তরফে বিবৃতি জারি করে জানানো হয়, ভিডিয়োটি নকল। বুধবার মুম্বইয়ের খার থানায় পুলিশ অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির নামে ৪১৯ ও ৪২০ ধারায় অভিযোগ দায়ের করেছে।

কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার দৌলতে প্রায়শই এই ধরনের ঘটনা ঘটছে। এর আগে ক্যাটরিনা কইফ, রশ্মিকা মন্দানার বিকৃত ছবি ভাইরাল হয়েছে সমাজমাধ্যমে। নির্বাচনী পরিস্থিতিতে আমির খান ও রণবীর সিংহের ডিপফেক ভিডিয়ো তৈরি করে যে রাজনৈতিক প্রচারের কাজে লাগানোর চেষ্টা করা হয়েছে, কার্যত তা স্পষ্ট।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Ranveer Singh
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE