• নিজস্ব প্রতিবেদন 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পরিচালক বলেছিলেন, আমার জন্য কিউ কি সাস ভি কভি... ফ্লপ হবে: স্মৃতি ইরানি 

smriti irani
স্মৃতি তখন (বাঁ দিকে), স্মৃতি এখন (ডান দিকে)

হিন্দি ধারাবাহিকে কাল্ট হয়ে রয়েছে স্মৃতি ইরানি অভিনীত ধারাবাহিক ‘কিউকি সাস ভি কভি বহু থি’। ২০ বছর পার করল সেই ধারাবাহিক। প্রথম দিনের শুটের ছবি শেয়ার করে নস্টালজিক স্মৃতি ইরানি। অথচ শুনলে অবাক হবেন, তাঁর অভিনয় দেখে নাকি পরিচালক প্রথম দিন স্মৃতিকে বলেছিলেন, এই সিরিয়াল ফ্লপ হবে। জবাবে কী বলেছিলেন স্মৃতি?

তাঁর কথায়, ‘‘বছর কুড়ি আগে শুরু হয়েছিল এই জার্নি। এখনও মনে পড়ে, একতাকে ফোন করে শুটিং ফ্লোরে ডেকে পরিচালক বলেছিলেন, এই প্রজেক্ট ফ্লপ হবে। যে মেয়েটি তুলসীর চরিত্রে রয়েছে তার চরিত্রটা ফুটিয়ে তোলার ক্ষমতাই নেই।আমি একতাকে একটা কথাই বলেছিলাম আমায় যে ভাবে চরিত্রটি করার কথা বলা হচ্ছে তার বদলে আমি কি নিজের মতো করে চরিত্রটি করতে পারি প্লিজ?’’

একতা শুনেছিলেন। আর স্মৃতিও জমিয়ে খেলেছিলেন ফ্লোরে। ৮ বছর ধরে, ১৮৩৩টা এপিসোড পার করা মুখের কথা নয়। জনপ্রিয়তার শীর্ষে পৌঁছেছিল সেই ধারাবাহিক। স্মৃতি ওরফে তুলসী রাতারাতি হয়ে গিয়েছিলেন মা-কাকিমার ঘরের মেয়ে। প্রযোজক একতা কপূরের কেরিয়ারেও ওই সিরিয়াল এনেছিল ঐতিহাসিক বদল। সে কথা মনে করেই একতা বললেন, ‘‘এখনও মনে আছে গুজরাতে যে বার ভূমিকম্প হল, মানুষ কিন্তু তখনও, অত অসুবিধের মধ্যেও সিরিয়ালটি দেখতেন।’’

‘কিউকি সাস ভি কভি বহু থি’-র এত সাফল্যের রসায়ন কী? সমালোচকদের মতে, স্মৃতি-মন্দিরার অনবদ্য অভিনয়, এবং একই সঙ্গে সিরিয়ালের নামটি। শাশুড়ি-বউয়ের বস্তাপচা ধারাবাহিকের ভিড়ে এ ছিল এক মুক্ত বাতাস। সত্যিই তো, শাশুড়িও যে একসময় বউমার ভূমিকা পালন করে এসেছেন...সে কথা প্রথম ফুটিয়ে তুলেছিলেন একতাই। জনপ্রিয়তা এতটাই ছিল যে বিভিন্ন পাত্র-পাত্রীর বিজ্ঞাপনে ‘তুলসী’র মতো মেয়ে চাইতেন পাত্রপক্ষ। 

স্মৃতির পোস্ট 

 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 
 

20 years ago this was possibly one of my first scenes with Sudha Aunty. I raced through my lines ,nervous as hell coz @ektarkapoor was called to the shooting floor by the director who told her the project was a sure shot flop since the girl cast as Tulsi did not have the talent to see it through. Upon enquiring why I was not unleashing my full potential as an actor I told her “ can I play the character as I deem fit instead of being told how to emote?” I promised her I’d take help of every colleague possible if I felt I can’t measure up alone. EK said done and the rest was TV history. Today 2 decades later in absentia I say thank you for the belief @ektarkapoor , thank you @monishasinghkatial for first refusing to cast me & then supporting me all the way. Thank you to the ever changing Mihir from @amarupadhyay_official to dada @ronitboseroy . To kids like @karishmaktanna @ihansika @masumimewawalla @mounirooy & all those I have not been able to name. To bahus ranging from @gpradhan @shilpa_saklani_official & sons @meetsumeet18 @hitentejwani , Sandeep Baswana... & many more relationships I lived on screen who are friends for life. To @mandirabedi & @jaya.bhattacharya who were the best on screen villains possibly and absolute sweethearts off screen. Many more who were a part of the journey .. I cherish every moment & specially am grateful to the viewers who kept our passions alive.#20yearsofkyunkiisaasbhikabhibahuthi 🙏🙏🙏🙏

A post shared by Smriti Irani (@smritiiraniofficial) on

তবে ২০০০ থেকে ২০০৮, আট বছর ধরে চলা এই ধারাবাহিকের শেষটা মধুর হয়নি। একতার সঙ্গে বিবাদে সিরিয়াল ছাড়েন স্মৃতি। তাঁর জায়গায় আসেন গৌতমী কপূর। কিন্তু দর্শক তাঁকে প্রত্যাখান করে। যে কাল্ট স্মৃতি স্থাপন করে দিয়ে গিয়েছিলেন সে জায়গায় অন্য কেউ জুতো গলাবে, মানতে চাননি দর্শক। হুড়মুড়িয়ে পড়তে থাকে শো-র টিআরপি। অবশেষে নানা আইনি জটিলতার মধ্যে ২০০৮-এর নভেম্বরে বন্ধ হয়ে যায় ‘কিউকি সাস ভি কভি বহু থি’। 

 

 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন