Advertisement
১৩ জুন ২০২৪
Sushant Singh Rajput

সুশান্ত কাণ্ডে মাদক যোগ, জেরা করা হতে পারে সারা-শ্রদ্ধাকেও

জেরায় বলিউডের বেশ কয়েক জনের নাম ফাঁস করে দেন রিয়া। তাতে সারা এবং শ্রদ্ধার নামও ছিল বলে জানা গিয়েছে।

—ফাইল চিত্র।

—ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০ ১৩:৪৫
Share: Save:

ক্রমশ ঘোরাল হচ্ছে অভিনেতা সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর তদন্ত। প্রয়াত অভিনেতাকে মাদক সরবরাহের অভিযোগে ইতিমধ্যেই তাঁর বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তীকে গ্রেফতার করেছে নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরো (এনসিবি)। তা নিয়ে এ বার সুশান্তের দুই সহকর্মী সারা আলি খান এবং শ্রদ্ধা কপূরকেও জিজ্ঞাসাবাদ করা হতে পারে। চলতি সপ্তাহেই দুই অভিনেত্রীকে ডেকে পাঠানো হতে পারে বলে এনসিবি সূত্রে খবর।

রিয়ার হোয়াটসঅ্যাপ চ্যাট থেকেই সুশান্তের মৃত্যুতে মাদক যোগ সামনে আসে। তার পর একে একে রিয়ার ভাই শৌভিক চক্রবর্তী, সুশান্তের দুই কর্মচারী এবং মাদক সরবরাহে যুক্ত থাকা মোট ন’জনকে গ্রেফতার করে এনসিবি। টানা তিন দিন ধরে জেরার পর রিয়া চক্রবর্তীকেও গ্রেফতার করা হয়। এনসিবি সূত্রে খবর, জেরায় বলিউডের বেশ কয়েক জনের নাম ফাঁস করে দেন রিয়া। তাতে সারা এবং শ্রদ্ধার নামও ছিল। তদন্তের স্বার্থেই তাঁদের ডেকে পাঠানো হতে পারে।

গত ১৪ জুন বান্দ্রার বাড়ি থেকে সুশান্ত সিংহ রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। তিনি আত্মহত্যা করেছেন বলে অনুমান করেই প্রথমে তদন্ত শুরু করে মুম্বই পুলিশ। কিন্তু সুশান্তের পরিবারের তরফে রিয়ার বিরুদ্ধে টাকা নয়ছয়ের অভিযোগ দায়ের করা হয়। রিয়া সুশান্তকে আত্মহত্যায় প্ররোচনা দিয়েছেন বলেও অভিযোগ করেন তাঁরা। এমনকি তদন্তে মুম্বই পুলিশের ভূমিকা নিয়েও প্রশ্ন তোলেন তাঁরা।

আরও পড়ুন: ‘আমাকে চুপ করানোর চেষ্টা করতে এত সময় লেগে গেল!’​

তার পর সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর তদন্তভার ওঠে কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা সিবিআইয়ের হাতে। টাকা তছরুপের বিষয়টি খতিয়ে দেখার দায়িত্ব পড়ে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেটের (ইডি) হাতে। এনসিবির কাঁধে পড়ে মাদক যোগ খতিয়ে দেখার দায়িত্ব। দায়িত্ব হাতে পেয়ে সুশান্তের বাড়ি ও ফার্ম হাউস-সহ একাধিক জায়গায় তল্লাশিও চালায় এনসিবি। তার পর সুশান্তের পরিচিত এক মাদক ব্যবসায়ীর কাছ থেকে ৫৯ গ্রাম গাঁজা উদ্ধার হয়। তার পরই রিয়া এবং তাঁর ভাই শৌভিকের বিরুদ্ধে তদন্ত এগোয়।

রিয়াকে ওই মাদকচক্রের এক জন অত্যন্ত সক্রিয় সদস্য বলে নিজেদের রিপোর্টে উল্লেখ করেছেন এনসিবি। গ্রেফতার হওয়ার পর বেশ কয়েক বার আদালতে জামিনের আর্জি জানিয়েছিলেন রিয়া। কিন্তু জামিন দিলে তিনি বাকিদের সতর্ক করে দিতে পারেন, তাতে প্রমাণ লোপাট হয়ে যতে পারে বলে আশঙ্কা করে তাঁর সেই আর্জি খারিজ করে দেওয়া হয়। জোর করে তাঁকে বয়ান দিতে বাধ্য করা হয়েছে বলেও আদালতে দাবি করেন রিয়া। কিন্তু তাঁর সেই দাবিও খারিজ করে দেয় আদালত।

আরও পড়ুন: মাস্ক পরা বিষণ্ণ জয়া আহসান, প্রকাশ্যে অভিনেত্রীর নতুন খবর!​

সুশান্তের ম্যানেজার শ্রুতি মোদী এবং তাঁর প্রাক্তন ট্যালেন্ট এজেন্ট জয়া সাহাকে রবিবার জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠিয়েছে এনসিবি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE