Advertisement
২৬ নভেম্বর ২০২২
Tanusree Chakraborty

Tonusree: কোভিড কমতেই প্রেমে ফিরছেন তনুশ্রী, তাঁর সুখের চাবিকাঠি কোন পুরুষের কাছে?

‘‘আমি সব সময়েই প্রেমে আছি! প্রেমে না থাকলে ভাল অভিনয় ফোটাব কী করে?’’ দাবি তনুশ্রীর

কোভিড কমতেই প্রেমে ফিরছেন তনুশ্রী।

কোভিড কমতেই প্রেমে ফিরছেন তনুশ্রী।

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২২ ১৮:৩৪
Share: Save:

অতিমারি হাল্কা কাবু করেছিল তনুশ্রী চক্রবর্তীকে। টলিউড বলছে, সুস্থ হয়েই আবার প্রেমে পড়েছেন তিনি! পাশাপাশি, ‘ভাল-বাসা’রও সন্ধান পেয়েছেন পাহাড়ের কোলে। হাওয়া বদলের হাত ধরে খুব শিগগিরিই নাকি বাসা বদলও ঘটতে চলেছে তাঁর।

Advertisement

নির্বাচন, শ্যুটের ব্যস্ততা, ছবি-মুক্তি মিলিয়ে দম ফেলার ফুরসত পাচ্ছিলেন না নায়িকা। অতিমারি তাতে সাময়িক ছেদ টেনেছিল। তনুশ্রী আবার ব্যস্ত জিৎ প্রযোজিত ‘রাবণ’ ছবির ডাবিংয়ে। জীবনে ভালবাসা ফিরতেই চনমনিয়ে উঠেছেন অভিনেত্রী? বহু দিন পরে খোশমেজাজ কি সেই জন্যই! আনন্দবাজার অনলাইনের কাছে নায়িকার কবুল, ভালবাসার পাশাপাশি ভাল-বাসার হদিশও নাকি পেয়েছেন। সব মিলিয়ে তনুশ্রী তৃপ্ত!

পরিচালক অর্ঘ্যদীপ চট্টোপাধ্যায়, অভিনেতা ঈশান মজুমদার।

পরিচালক অর্ঘ্যদীপ চট্টোপাধ্যায়, অভিনেতা ঈশান মজুমদার।

খবরটি এই পর্যন্ত পড়ে যাঁরা তাঁর নতুন প্রেমের খোঁজে নামতে চলেছেন, তাঁদের কিছু সূত্র দিয়েছেন অভিনেত্রী। পরিচালক অর্ঘ্যদীপ চট্টোপাধ্যায়, ‘তিলোত্তমা’ আর ‘চিরসখা হে’-- এই তিনটি বিন্দু মেলালেই নাকি খোঁজ মিলবে সব কিছুর। কী রকম? তখনই ফাঁস, অভিনেত্রীর পরের ছবি ‘চিরসখা হে’। টানা রহস্য-রোমাঞ্চ ছবি করার বহু দিন পরে বিশুদ্ধ ভালবাসার গল্পে ফিরছেন তিনি। পারিবারিক এই ছবির পরিচালক অর্ঘ্যদীপ। তিনিও প্রথম ছবি ‘মণিহারা’ থেকে একের পর এক রহস্য-রোমাঞ্চ ছবিই বানিয়ে এসেছেন। নতুন ছবি দর্শক, অভিনেত্রীর পাশাপাশি স্বাদবদল ঘটাবে তাঁরও।

Advertisement

ছবির গল্পও বেশ অভিনব। স্বামী হারিয়ে বেশ কয়েক বছর ধরে ‘তিলোত্তমা’ নিঃসঙ্গ। জীবন যখন তার কাছে মরুভূমি সমান তখনই আগমন ঈশানের। মিঠে রোদের মতোই যে ভালবাসা ছড়িয়ে দেবে তিলোত্তমামর জীবনে। একতরফা ভালবাসা, মান-অভিমান, এবং সব শেষে মিলন হবে কত দিনে! ঈশান-তিলোত্তমা কি পারবে সমস্ত বাধা কাটিয়ে করে এক সঙ্গে থাকতে? এই নিয়েই ‘চিরসখা হে’। ছবিতে তনুশ্রী ছাড়াও থাকছেন মিঠু চক্রবর্তী, ঈশান মজুমদার, বরুণ চন্দ। গানের দায়িত্বে সৌম্য ঋত। চিত্রনাট্য ও সংলাপে অভীক রায় এবং সুজয়নীল বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রযোজনায় ৬৯ ক্রিয়েটিভ এন্টারটেনমেন্ট। নিবেদনে মোজোপ্লেক্স এন্টারটেনমেন্ট।

ডাবিংয়ের পাশাপাশি নতুন চরিত্রের জন্য নিজেকে তৈরি করছেন তনুশ্রী। মন দিয়ে চিত্রনাট্য পড়ছেন। আলোচনা সেরে নিচ্ছেন পরিচালকের সঙ্গে। খুব শিগগিরিই শ্যুট হবে উত্তরবঙ্গ সহ পাহাড়ি এলাকায়। অর্ঘ্যদীপের দাবি, তিলোত্তমাকে ফোটাতে গভীরতা দরকার। যেটা তনু্শ্রীর মধ্যে প্রবল। তা ছাড়া, তিনি এ দিনেও তনুশ্রীর সঙ্গে কোনও ছবি করে উঠতে পারেননি। সেটাও অভিনেত্রীকে বাছার মুখ্য কারণ। কিন্তু রহস্য-রোমাঞ্চ কাহিনির চিত্রায়নে এই মুহূর্তে যিনি সফল, তিনি কেন সেই বিষয় থেকে সরে যাচ্ছেন? পরিচালকের দাবি, অনেক দিন বিশুদ্ধ প্রেমের ছবি তৈরি হয়নি, তাই। তার পরেই স্বীকারোক্তি, ‘‘আমিও তো প্রেমে পড়ি। ভাল গল্পের। টানটান চিত্রনাট্যের। শীতের মরশুমের! এই ছবি তারই প্রকাশ।’’

আর তনুশ্রী? ‘‘আমি তো সব সময়েই প্রেমে আছি! নিত্য দিন নতুন নতুন প্রেম আসে জীবনে। প্রেমে না থাকলে ভাল অভিনয় ফোটাব কী করে?’’ হাসতে হাসতে আলোচনায় দাঁড়ি টানলেন নায়িকা।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.