×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৩ মার্চ ২০২১ ই-পেপার

বাড়িওয়ালা-ভাড়াটের তরজা

মধুমন্তী পৈত চৌধুরী
২৩ মে ২০২০ ০২:৫৬
ছবির দৃশ্য

ছবির দৃশ্য

এমনিতেই বাড়িওয়ালার সঙ্গে ভাড়াটের সম্পর্ক সব সময়ে সর্বাঙ্গীণ মধুর হয় না। পাশাপাশি থাকতে থাকতে কখনও লেগে যায় খটামটি, কখনও বা আবার স্নেহের প্রশ্রয়। সেই সম্পর্কের কাঁচা-মিঠে আবেগকেই বড় পর্দায় এনেছেন সুজিত সরকার। সদ্য মুক্তিপ্রাপ্ত ‘গুলাবো সিতাবো’র ট্রেলারে সেটা অন্তত স্পষ্ট।

লখনউয়ের প্রেক্ষাপটে ফাতিমা মহলকে কেন্দ্র করে জমে উঠেছে মির্জ়া এবং বাঁকের নিত্যদিনের কাজিয়া। মির্জ়ার চরিত্রে অমিতাভ বচ্চন এখানে বাড়িওয়ালা হলেও, বাঁকে অর্থাৎ আয়ুষ্মান খুরানার দাপট অক্ষুণ্ণ। মির্জ়া সাধের মকান বিক্রি করতে চাইলে বাধা হয়ে দাঁড়ায় ভাড়াটেদের প্রতিবাদ। তার উপরে ছোটখাটো অশান্তি তো লেগেই আছে। তবে শুধু ‘গুলাবো সিতাবো’র ট্রেলারেই দ্বন্দ্ব স্পষ্ট নয়। ট্রেলার লঞ্চের ঘোষণাতেও নজর কেড়েছে অমিতাভ-আয়ুষ্মানের ছোট ছোট ঝগড়া। অমিতাভ ইংরেজিতে দর্শককে সম্বোধন করলে তা চক্ষুশূল হয় আয়ুষ্মানের। অন্য দিকে আয়ুষ্মান দেরি করে ভিডিয়ো কলে সাড়া দিলে অথবা কল চলাকালীন উঠে গিয়ে জ্যাকেট পরে এলে বিরক্ত হন অমিতাভ। স্পষ্টতই বলে ফেলেন, ‘‘এই আজকালকার জেনারেশন... সারা দিন ফোনে ব্যস্ত...’’ কখনও কে জুনিয়র, কে সিনিয়র... তা নিয়েও লেগে যায় দু’জনের কথা কাটাকাটি। দুই অভিনেতার বাগবিতণ্ডার মাঝে পড়ে ফাঁসেন ছবির পরিচালক সুজিত সরকার।

Advertisement
Advertisement