Advertisement
২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Junior Mahmood Death

প্রয়াত বর্ষীয়ান কৌতুক অভিনেতা ‘জুনিয়র মেহমুদ’, ক্যানসার আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল ৬৭ বছরে

পাঁচ দশকের অভিনয় জীবনে ২৫০টিরও বেশি ছবিতে কাজ করেছিলেন নঈম। এর মধ্যে ‘কাটি পতঙ্গ’, ‘মেরা নাম জোকার’, ‘পরওয়ারিশ’, এবং ‘দো অর দো পাঁচ’-এর মতো বহু সফল ছবিতে তিনি অভিনয় করেছেন।

নইম সইদ ওরফে জুনিয়র মেহমুদ।

নইম সইদ ওরফে জুনিয়র মেহমুদ। —ফাইল চিত্র।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৮ ডিসেম্বর ২০২৩ ০৭:৫৯
Share: Save:

প্রয়াত হলেন বর্ষীয়ান অভিনেতা নঈম সৈয়দ। চলচ্চিত্র জগতে তিনি পরিচিত ছিলেন ‘জুনিয়র মেহমুদ’ নামে। ক্যানসার আক্রান্ত হয়ে দীর্ঘ দিন হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন নঈম। কিছু দিন আগে পরিবারের সদস্যরা তাঁকে হাসপাতাল থেকে বাড়ি নিয়ে যান। বৃহস্পতিবার রাতে তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়। বাড়িতেই মৃত্যু হয় তাঁর। মৃত্যুর সময় নঈমের বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর।

পাঁচ দশকের অভিনয় জীবনে ২৫০টিরও বেশি ছবিতে কাজ করেছিলেন নঈম। এর মধ্যে ‘কাটি পতঙ্গ’, ‘মেরা নাম জোকার’, ‘পরওয়ারিশ’, এবং ‘দো অর দো পাঁচ’-এর মতো বহু সফল ছবিতে তিনি অভিনয় করেছেন।

১৯৬৭ সালে সঞ্জীব কুমার, বলরাজ সাহানী এবং ইন্দ্রাণী মুখোপাধ্যায় অভিনীত ‘নৌনিহাল’ ছবিতে শিশু অভিনেতা হিসাবে আত্মপ্রকাশ করেন নঈম। শিশু কৌতুক অভিনেতা হিসাবে বিস্তর জনপ্রিয়তাও পেয়েছিলেন। নঈমের চলাফেরা বা কথাবার্তায় বলিউডের বিখ্যাত কৌতুক অভিনেতা মেহমুদের সঙ্গে হুবহু মিল ছিল। মেহমুদই, ‘জুনিয়র মেহমুদ’ নাম দেন নঈমকে। অভিনয়ের পাশাপাশি বেশ কয়েকটি মারাঠি ছবি পরিচালনা করেছিলেন নঈম। কৌতুক অভিনেতা হিসাবে দেশের পাশাপাশি বিদেশের মাটিতে বহু অনুষ্ঠানও করতেন।

মৃত্যুর আগে বর্ষীয়ান অভিনেতা জিতেন্দ্র এবং সচিন পিলগাঁওকরের সঙ্গে দেখা করার ইচ্ছাপ্রকাশ করেছিলেন নঈম। জিতেন্দ্র এবং সচিনের সঙ্গে বেশ কয়েকটি ছবিতে অভিনয় করেছিলেন তিনি। দু’জনেই তাঁর সঙ্গে দেখা করে আসেন। তাঁর সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন কৌতুক অভিনেতা জনি লিভারও। সপ্তাহ দুয়েক আগে, নঈমের ক্যানসারে আক্রান্ত হওয়ার বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE