শুটিং বন্ধ, বকেয়া নিয়ে টানাপড়েন— বিশৃঙ্খলা লেগেই রয়েছে। ইন্ডাস্ট্রি সূত্রে খবর, ‘করুণাময়ী রানি রাসমণি’ ও ‘ঠাকুমার ঝুলি’ ধারাবাহিকের অভিনেতা ও টেকনিশিয়ানদের বকেয়া টাকা না পাওয়ার কারণে প্রায় শুটিং বন্ধ হওয়ার পরিস্থিতি হয়েছিল। ‘...রাসমণি’র অভিনেতা গৌরব চট্টোপাধ্যায় বললেন, ‘‘আর্টিস্ট ফোরামকে চিঠি দিয়ে ঠিক হয়, মাসের ১৫ তারিখের মধ্যে টাকা পেয়ে যাবেন শিল্পীরা। পরে কখনও ১৮ তারিখ, কখনও বা পরের মাসের ২ তারিখ অবধি সমস্যা গড়ায়। নির্মাতাদের জানিয়েছিলাম, এ ভাবে চললে শুটিং বন্ধ করে দিতে হবে। তখন বকেয়া মিটিয়ে দিয়েছেন নির্মাতারা।’’ তবে টাকা পাওয়ার অনিশ্চয়তা যে শিল্পীদের অস্বস্তিতে ফেলেছে, তা স্পষ্ট। কেউ কেউ মনে করছেন, এতে কাজেরই ক্ষতি হবে। ‘ঠাকুমার ঝুলি’র সোহিনী সেনগুপ্ত জানান, চ্যানেলই তাঁকে ধারাবাহিকে নিয়েছিল। তাই সমস্যা হয়নি। তাঁর কানেও ঝামেলার কথা এসেছে। তবে প্রযোজক নিসপাল সিংহ সমস্যাটি মেটানোর চেষ্টা করছেন।