‘জিরো’। শাহরুখ খানের ‘জিরো’। আনন্দ এল রাইয়ের ‘জিরো’। সদ্য মুক্তিপ্রাপ্ত এ ছবি যেন আক্ষরিক অর্থেই ‘জিরো’। অন্তত সোশ্যাল মিডিয়ায় দর্শকের একটা বড় অংশ তেমন রিপোর্টই দিয়েছেন।

শুক্রবার মুক্তি পেয়েছে এই ছবি। শোনা গিয়েছিল, এ ছবি নাকি বলিউড বাদশার কেরিয়ারের অন্যতম। অনেক আশা নিয়ে সিনেমা হলে গিয়ে নাকি হতাশই হয়েছেন বেশিরভাগ দর্শক।

এ ছবিতে এক বামনের চরিত্রে অভিনয় করেছেন শাহরুখ। এক মাদকাসক্ত অভিনেত্রীর ভূমিকায় রয়েছেন ক্যাটরিনা কইফঅনুষ্কা শর্মা এক বিজ্ঞানীর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। যার জীবনটা আটকে হুইলচেয়ারে। সোশ্যাল অডিয়েন্সের একটা বড় অংশের মতে, পরিচালনা, অভিনয়, সম্পাদনা কোনও বিভাগেই নাকি পাশ মার্কসও দেওয়া যায় না এই ছবিকে।

আরও পড়ুন, বিয়ে করলেন অরিত্র-মহুয়া

কেউ বলেছেন, ‘জিরো’ এতই খারাপ যে অনুষ্কা শর্মা অভিনয় করা সত্বেও বিরাট কোহালি এর বিন্দুমাত্র প্রোমোশন করেননি। কেউ আবার ব্যবহার করেছেন শাহরুখেরই একটি পুরনো ভিডিয়ো। যেখানে একটি কাগজ ছিঁড়ে মুখে পুরে দিচ্ছেন নায়ক। ‘জিরো’ দেখার পর টিকিট নিয়ে ঠিক ওই আচরণই করা উচিত বলে মত জনৈক দর্শকের। কেউ লিখেছেন ‘জিরো’ দেখলেই পালাতে হবে। আবার কেউ লিখেছেন, এ ছবির রেটিংও জিরো।

সিনেমার প্রথম শো শেষ হওয়ার আগেই সিনেমাহল থেকেই দর্শকরা নেতিবাচক মন্তব্য লিখে টুইট করেছেন। ফলে প্রথম দিনই সিনেমার ভাগ্য নির্ধারিত হয়ে গিয়েছিল। শাহরুখ, অনুষ্কা শর্মা ক্যাটরিনা কইফ ছবির সাফল্য এনে দিতে পারেননি। অনেকেরই প্রশ্ন, গল্প বলতে কি ভুলে গেলেন আনন্দ এল রাই?

(মুভি ট্রেলার থেকে টাটকা মুভি রিভিউ - রুপোলি পর্দার সব খবর জানতে পড়ুন আমাদের বিনোদন বিভাগ।)