Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ধর্ষণের পর খুন, দেহ ঝুলছিল গাছে, অসমে দুই নাবালিকার মৃত্যুর কিনারা ৭২ ঘণ্টায়

গত শনিবার কোকরাঝাড় জেলায় গাছ থেকে ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়েছিল দুই নাবালিকার। সেই ঘটনায় মোট ৭ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সংবাদ সংস্থা
গুয়াহাটি ১৬ জুন ২০২১ ১০:১১
উদ্ধার হওয়া ২ নাবালিকার দেহ।

উদ্ধার হওয়া ২ নাবালিকার দেহ।
ফাইল ছবি।

৭২ ঘণ্টার মধ্যে দুই নাবালিকার রহস্যজনক মৃত্যুর কিনারা করল অসম পুলিশ। গত শনিবার কোকরাঝাড় জেলায় গাছ থেকে ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়েছিল ওই দুই নাবালিকার। সেই ঘটনায় মোট ৭ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, নাবালিকাদের ধর্ষণের পর খুন করে দেহ ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছিল গাছে, যাতে দেখে মনে হয়, তাঁরা আত্মহত্যা করেছে।

কোকরাঝাড়ের পুলিশ সুপার প্রতীক বিজয় কুমার থুবে বিষয়টি নিয়ে বলেছেন, ‘‘আমরা মোট ৭ জন অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেছি। এর মধ্যে তিনজন ধর্ষণ করেছিল। তার পর খুন করে দেহ গাছে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছিল। অভিযুক্তরা নিজেদের দোষ স্বীকার করেছে। ঘটনার পর রবিবারই আমরা বিশেষ তদন্তকারী দল গঠন করেছিলাম। ৭২ ঘণ্টার মধ্যে এই মামলার নিষ্পত্তি করা হল।’’ নাবালিকা ধর্ষণে অভিযুক্তদের গ্রেফতার নিয়ে টুইট করেছেন অসমের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্ব শর্মাও।

অসমের কোকরাঝাড় জেলার প্রত্যন্ত গ্রাম থেকে শনিবার উদ্ধার হয় ১৪ এবং ১৬ বছরের দুই নাবালিকার ঝুলন্ত দেহ। রবিবার নির্যাতিতাদের বাড়িতে যান অসমের মুখ্যমন্ত্রী এবং তাদের পরিবারের লোককে ন্যায়বিচারের আশ্বাস দেন। ওই দুই নাবালিকা একই পরিবারের সদস্য ছিল।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisement