Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২১ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

শাহিন বাগের শুটারকে আপ সদস্য বলছে পুলিশ, দাবি খারিজ পরিবারের

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ১১:২২
বাঁ দিকে শাহিন বাগে ধৃত কপিল গুজ্জর। ডান দিকে আপ-এর কর্মসূচিতে কপিল।

বাঁ দিকে শাহিন বাগে ধৃত কপিল গুজ্জর। ডান দিকে আপ-এর কর্মসূচিতে কপিল।

পুলিশের দাবি শাহিন বাগে গুলি চালানোর ঘটনায় ধৃত কপিল গুজ্জর আম আদমি পার্টি (আপ)-এর সদস্য। অথচ ঠিক তার উল্টো দাবিই করছেন কপিলের পরিবারের সদস্যরা। কপিলের বাবা গজে গুজ্জরের দাবি, তাঁর ছেলে বা তাঁদের পরিবারের সঙ্গে আপের কোনও যোগাযোগই নেই।

গত শনিবার দক্ষিণ দিল্লির শাহিন বাগে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) বিরোধী জমায়েতে গুলি চালানোর অভিযোগ ওঠে বছর পঁচিশের যুবক কপিলের বিরুদ্ধে। সে সময় কপিল ‘জয় শ্রী রাম’ বলে স্লোগানও দেন। তাঁকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এর পরই, মঙ্গলবার চাঞ্চল্যকর দাবি করে বসে দিল্লি পুলিশ। তদন্তকারীরা জানিয়ে দেন, কপিল স্বীকার করে নিয়েছেন যে তিনি এক জন আপ সদস্য। এর প্রমাণ হিসাবে একটি ছবিও সংবাদ মাধ্যমের সামনে তুলে ধরে দিল্লি পুলিশ। সেই ছবিতে আপ নেতা সঞ্জয় সিংহের সঙ্গে দলীয় টুপি পরা অবস্থায় কপিলকে দেখা গিয়েছে। পুলিশের আরও দাবি, বছর খানেক আগেই আপ-এ যোগ দিয়েছিলেন কপিল।

ওই ছবিটি সম্পর্কে অবশ্য কপিলের বাবা বলছেন, ‘‘গত লোকসভা নির্বাচনের সময় আপ নেতারা প্রচারে এসেছিলেন। তাঁরা আপের যে দলীয় টুপি তা কপিলকে পরিয়ে দিয়েছিলেন। সেটাই ওই ছবিতে দেখা গিয়েছে।’’

Advertisement

আরও পড়ুন: ট্যাংরায় পুত্রবধূকে অপহরণের চেষ্টা, বাধা দিতে গিয়ে নিহত শ্বশুর

গজে গুজ্জর আরও বলছেন, ‘‘আমি বিএসপি-র সমর্থক। ২০১২ সালে বিএসপির হয়ে ভোটেও লড়েছিলাম। তার পর আমি রাজনীতি ছেড়ে দিই। রাজনীতির সঙ্গে আমাদের কোনও সম্পর্ক নেই। এ বার যখন বিজেপি প্রার্থী প্রচারে এসেছিলেন, তখন আমি তাঁকে মালা পরিয়ে দিয়েছিলাম। অবশ্য যে কোনও প্রার্থীকেই আমি এমন ভাবে অভিবাদন জানাবো।’’

আরও পড়ুন: এখনও সিদ্ধান্ত হয়নি, দাবি প্রতিমন্ত্রীর, এনআরসি ব্যাখ্যা ঘিরে শুরু জল্পনা

জামিয়া মিলিয়া ও শাহিন বাগে সিএএ-বিরোধী বিক্ষোভে গুলি চালানোর ঘটনা নিয়ে দিল্লি নির্বাচনের মুখে চাপে বিজেপি। তবে কপিলের আপ-যোগের যে তত্ত্ব দিল্লি পুলিশ গত কাল তুলে ধরেছে তা কিছুটা হলেও অক্সিজেন দিয়েছে গেরুয়া শিবিরকে। সেই সঙ্গে এই হাতিয়ার দিয়ে আপ-কে আক্রমণও শুরু করেছে বিজেপি। যদিও, আপ নেতা সঞ্জয় সিংহ চক্রান্তের ইঙ্গিত করে বলেছেন, দিল্লি পুলিশ অমিত শাহের মন্ত্রকের নির্দেশেই চলে।

আরও পড়ুন

Advertisement