×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৪ অগস্ট ২০২১ ই-পেপার

৪ বছরে ৪০০ বার ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ ভারতে, ঘণ্টায় ২ কোটি টাকা করে ক্ষতি

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ১১:২৮
ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখায় রেকর্ড ভারতের।

ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখায় রেকর্ড ভারতের।
—ফাইল চিত্র।

শিক্ষা, ধর্ম এবং স্বাধীনতার মতো ইন্টারনেট পরিষেবাও মানুষের মৌলিক অধিকারের মধ্যে পড়ে। জম্মু-কাশ্মীরকে গোটা দেশ থেকে বিচ্ছিন্ন করে রাখা নিয়ে একটি আবেদনের শুনানির সময় বছর খানেক আগে এমনই মন্তব্য করেছিল সুপ্রিম কোর্ট। কিন্তু গত ৪ বছরে ঠিক উল্টো ছবিই ধরা পড়েছে ভারতে। কারণ এই ৪ বছরে দেশে ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখা হয়েছে ৪০০-রও বেশি বার। বিশ্বব্যাপী ইন্টারনেট পরিষেবা সংক্রান্ত হিসেব রাখে যে সংস্থা, সেই টপ টেন ভিপিএন তাদের একটি রিপোর্টে এমনই তথ্য দিয়েছে।

ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখায় ভারতের অর্থনীতিতেও ব্যাপক প্রভাব পড়েছে বলে ওই রিপোর্টে জানানো হয়েছে। তাদের হিসেব অনুযায়ী, ২০২০ সালে মোট ৮ হাজার ৯২৭ ঘণ্টা ইন্টারনেট বন্ধ ছিল ভারতে। তাতে ভারতের প্রায় ২৭০ কোটি ডলার ক্ষতি হয়েছে। ডলার পিছু মূল্য যদি ৭৩ টাকা করে ধরা হয়, সেই হিসেবে প্রতি ঘণ্টায় ২ কোটি টাকা করে ক্ষতি হয়েছে ভারতের।

৪ জানুয়ারি প্রকাশিত ওই রিপোর্টে বলা হয়েছে, গত ১ মাসেই ৭ বার ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখা হয়েছে ভারতে, যার মধ্যে ৫ টিই ছিল হরিয়ানা, দিল্লি, সোনিপত এবং পালওয়ালের মতো জেলায় কৃষক আন্দোলন ঠেকানোর উদ্দেশে। ২৬ জানুয়ারি লালকেল্লার ঘটনার পর হিংসা রুখতেই ইন্টারনেট বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে ভারতের তরফে যদিও সাফাই দেওয়া হয়। কিন্তু আমেরিকাও এই সিদ্ধান্তের তীব্র সমালোচনা করেছে। তাদের বিদেশমন্ত্রকের তরফে একটি বিবৃতিতে বলা হয়, ‘যে কোনও গণতান্ত্রিক দেশেই অবিচ্ছিন্ন ইন্টারনেট পরিষেবা পাওয়া মানুষের মৌলিক অধিকারের মধ্যে পড়ে’।

Advertisement
গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।

গ্রাফিক: শৌভিক দেবনাথ।


২০১৯ সালের ৫ অগস্ট জম্মু-কাশ্মীরের জন্য সংরক্ষিত সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বাতিল করে কেন্দ্রীয় সরকার। তার পর ২৩৩ দিন উপত্যকায় ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ ছিল। বিশ্বের আর কোনও দেশে এত দিন ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখার নজির নেই। ২০১৯-এর ৩ অগস্ট থেকে ২০২০-র ৪ মার্চ পর্যন্ত উপত্যকায় ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ ছিল।

তবে শুধু টপ টেন ভিপিএনই নয়, অন্য গণতান্ত্রিক দেশগুলোর তুলনায় ভারতই সবচেয়ে বেশি এবং সবচেয়ে ঘন ঘন ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ রাখে বলে এর আগে আন্তর্জাতিক ফোর্বস ম্যাগাজিনের একটি রিপোর্টে দাবি করা হয়েছিল। বলা হয়েছিল, জম্মু-কাশ্মীরের পর রাজস্থান, উত্তরপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ, হরিয়ানা এবং মহারাষ্ট্রে সবচেয়ে বেশি ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ থাকে। অনেক ক্ষেত্রে পর পর বেশ কিছু দিন ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ থাকে। ২০১৭ সালে একটানা ২১ দিন, ২০১৮ সালে একটানা ৫ দিন এবং ২০১৯ সালে একটানা ৩ দিনের বেশি সময় ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ ছিল।

Advertisement