Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২১ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

IAS Deputation: মোদীকে দু’বার চিঠি মমতার, কী রয়েছে কেন্দ্রের আইএএস ক্যাডার রুল সংশোধনী প্রস্তাবে

চলতি সপ্তাহে আইএএস ক্যাডার সংশোধনী নিয়ে দ্বিতীয় বার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ২০ জানুয়ারি ২০২২ ২০:৪১
Save
Something isn't right! Please refresh.
চলতি সপ্তাহে আইএএস ক্যাডার সংশোধনী নিয়ে দ্বিতীয় বার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

চলতি সপ্তাহে আইএএস ক্যাডার সংশোধনী নিয়ে দ্বিতীয় বার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

Popup Close

আইএএস ক্যাডার রুল সংশোধনে কেন্দ্র অনড়। শুধু অনড়ই নয়, বাংলা-সহ একাধিক অ-বিজেপি শাসিত রাজ্যের তরফে তীব্র আপত্তি সত্ত্বেও আরও একটি খসড়া প্রস্তাব পাঠিয়েছে কেন্দ্র। যে কারণেই চলতি সপ্তাহে এই বিষয়ে দ্বিতীয় বার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে চিঠি লিখেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

ক্যাডার রুলে সংশোধন চেয়ে গত ১২ জানুয়ারি রাজ্যের কাছে দ্বিতীয় প্রস্তাব পাঠিয়েছিল কেন্দ্র। তাই নিয়েই বৃহস্পতিবারের চিঠিতে বাংলার মুখ্যমন্ত্রী লিখেছেন, ‘নয়া ক্যাডার রুল সংশোধনী প্রস্তাব আগের চেয়ে অনেক বেশি দমনমূলক এবং তা সহযোগিতামূলক যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোর পরিপন্থী।’ কিন্তু ওই প্রস্তাবে কী রয়েছে?

আমলাদের পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণের ক্ষমতা নিজেদের হাতে রাখতে কেন্দ্রের প্রস্তাবে একটি নতুন সংস্থান জুড়ে দেওয়া হয়েছে। তাতে বলা হয়েছে, জনস্বার্থে এবং কোনও নির্দিষ্ট পরিস্থিতিতে কেন্দ্র কোনও আমলাকে ডেকে পাঠালে রাজ্যকে নির্দিষ্টি সময়ের মধ্যে ওই আমলাকে ছেড়ে দিতে হবে। রাজ্য তাতে সম্মতি না দিলে কেন্দ্র ওই আমলাকে দায়িত্ব থেকে অব্যহতি দেবে।

Advertisement

কেন্দ্রের এই নিয়মেই আপত্তি জানিয়ে চিঠিতে মমতা লেখেন, ‘আমলাদের ডেপুটেশনের ক্ষেত্রে কেন্দ্র ও রাজ্যের মধ্যে পারস্পরিক সহযোগিতা এবং সম্মতি থাকা প্রয়োজন যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোর স্বার্থে। আমলাদের যখন তখন সরিয়ে নেওয়া হলে রাজ্যে জনস্বার্থ বিঘ্নিত হতে পারে এবং আধিকারিকদেরও মনোবল ভাঙতে পারে। আমলাদের নিয়ন্ত্রণ করার ক্ষমতা থেকে রাজ্যকে বঞ্চিত করলে ভবিষ্যতে দেশের শাসনব্যবস্থার উপর বড় প্রভাব পড়বে। এটা ভুলে গেলে চলবে না, কেন্দ্রে যে দলই ক্ষমতায় থাকবে, তারাই এই প্রস্তাবিত সংশোধনীর অপব্যবহার করবে।’



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement