Advertisement
১৬ জুলাই ২০২৪
UP School

স্কুলে রূপচর্চায় ব্যস্ত প্রধান শিক্ষিকা! দেখে ফেলতেই কামড়ে রক্তাক্ত করলেন সহ-শিক্ষিকাকে

অভিযুক্ত প্রধানশিক্ষিকার নাম সঙ্গীতা সিংহ। সহ-শিক্ষিকা আনাম খানের হাতে কামড়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে।

(বাঁ দিকে) রূপচর্চায় ব্যস্ত প্রধানশিক্ষিকা (বাঁ দিকে)। আক্রান্ত শিক্ষিকা (ডান দিকে)। ছবি: সংগৃহীত।

(বাঁ দিকে) রূপচর্চায় ব্যস্ত প্রধানশিক্ষিকা (বাঁ দিকে)। আক্রান্ত শিক্ষিকা (ডান দিকে)। ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ১৯ এপ্রিল ২০২৪ ১৩:৩৩
Share: Save:

পঠনপাঠন শিকেয় তুলে দিয়ে স্কুলে ‘ফেসিয়াল’ করতে ব্যস্ত ছিলেন প্রধানশিক্ষিকা। কিন্তু এই কর্মকাণ্ড দেখে ফেলায় এক সহ-শিক্ষিকাকে মারধরের পর কামড়ে রক্তাক্ত করলেন। উত্তরপ্রদেশের উন্নাওয়ের একটি স্কুলের ঘটনা।

অভিযুক্ত প্রধানশিক্ষিকার নাম সঙ্গীতা সিংহ। সহ-শিক্ষিকা আনাম খানের হাতে কামড়ে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে তাঁর বিরুদ্ধে। পুলিশ সূত্রে খবর, উন্নাওয়ের বিঘাপুর ব্লকের ডান্ডামু গ্রামের একটি স্কুলে এই ঘটনা ঘটেছে। জানা গিয়েছে, ক্লাসে পড়াতে না গিয়ে ওই সময় স্কুলের রান্নাঘরে যান প্রধানশিক্ষিকা। সেখানে এক মহিলাকে দিয়ে ফেসিয়াল করাচ্ছিলেন তিনি।

ক্লাসের সময় হয়ে যাওয়ায় প্রধানশিক্ষিকা না আসায় তাঁর খোঁজ পড়ে। তখনই সহ-শিক্ষিকা আনাম স্কুলের রান্নাঘরের দিকে যেতেই প্রধানশিক্ষিকাকে সেখানে দেখতে পান। তখন তিনি রূপচর্চায় ব্যস্ত ছিলেন। তাতে ব্যাঘাত ঘটতেই মেজাজ হারিয়ে ফেলেন প্রধানশিক্ষিকা। সহ-শিক্ষিকা সেই রূপচর্চার ভিডিয়োও করেছেন। আর এই ঘটনা দেখে সহ-শিক্ষিকার দিকে তেড়ে আসেন প্রধানশিক্ষিকা। কেন ছবি তুলছেন, কেন রূপচর্চায় ব্যাঘাত ঘটানো হয়েছে, সেই প্রশ্ন করতেই তর্কবিতর্ক শুরু হয়ে যায়। অভিযোগ, আচমকাই সহ-শিক্ষিকার উপর ঝাঁপিয়ে পড়েন প্রধানশিক্ষিকা। তাঁকে মারধরের পর হাতে কামড়ে দেন। সেই ঘটনার ভিডিয়ো প্রকাশ্যে এসেছে। যদিও ভিডিয়োটির সত্যতা যাচাই করেনি আনন্দবাজার অনলাইন।

ব্লক শিক্ষা আধিকারিক এই ঘটনার তদন্তের নির্দেশ দিয়েছেন। বিঘাপুর থানায় প্রধানশিক্ষিকার বিরুদ্ধে একটি অভিযোগও দায়ের করা হয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

UP School Teacher
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE