Advertisement
২৭ নভেম্বর ২০২২
AIMIM

Asaduddin Owaisi: এ ভারত মোদী-শাহের নয়, নিজেদের বলতে পারে দ্রাবিড় আর আদিবাসীরা: ওয়াইসি

মুম্বইয়ের জনসভা থেকে বিজেপিকে আক্রমণ করেন ওয়েইসি। তাঁর নিশানায় এনসিপি নেতা শরদও। তাঁর দাবি, মুসলিম নেতাদের জেলে ঢোকানো হচ্ছে।

এআইএমআইএম প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়েইসি।

এআইএমআইএম প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়েইসি। ফাইল চিত্র।

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই শেষ আপডেট: ২৯ মে ২০২২ ১৯:০০
Share: Save:

এই ভারত মোদী-শাহের ভারত নয়। ভারত যদি কারও হয় তবে তা দ্রাবিড় ও আদিবাসীদের। জ্ঞানবাপী বিতর্কের মধ্যে বিজেপি ও আরএসএস-কে আক্রমণ করে এমনই বললেন এআইএমআইএম প্রধান আসাদুদ্দিন ওয়েইসি। রবিবার মহারাষ্ট্রের ভিবান্ডির একটি জনসভায় তিনি বলেন, ‘‘ভারত না আমার, না ঠাকরেদের, না মোদী-শাহের। যদি ভারত কারও হয় তবে তা দ্রাবিড় আর আদিবাসীদের। কিন্তু বিজেপি ও আরএসএস তা অস্বীকার করছে।

Advertisement

ওয়েইসির দাবি, ‘‘মুঘলরা এ দেশে আসার পরের ঘটনাগুলির কথা বিজেপি বলছে। তারা তার আগের কথা বলছে না। আফ্রিকা, ইরান, মধ্য এশিয়া, পূর্ব এশিয়া থেকে মানুষরা আসার ফলে এ দেশটা তৈরি হয়েছে। কিন্তু এই বিজেপি যেন ভারতকে নিজেদের মনে করছে।’’ ওয়েইসির এই মন্তব্য ঘিরে পাল্টা আক্রমণ করে বিজেপিও। বিজেপির এক কেন্দ্রীয় নেতার কথায়, ‘‘ভারত কারও একার নয় এটা তো সবাই জানে। বিজেপি সে দাবি কখনও করেওনি। যারা ভারতের সংস্কৃতি এবং ঐতিহ্যকে নষ্ট করেছেন আমরা তাঁদের কাঠগড়ায় তুলেছি। কেউ এটাকে ব্যক্তিগত ভাবে নিলে কোনও কারণ আছে কি না দেখতে হবে।’’

বিজেপির পাশাপাশি এনসিপি প্রধান শরদ পওয়ারের কড়া সমালোচনা করেন ওয়াইসি। সংখ্যালঘুদের জেলে পাঠানো হচ্ছে বলেও তাঁর দাবি। ওয়াইসি বলেন, "সঞ্জয় রাউত গ্রেফতার হতে শরদ পওয়ার প্রধানমন্ত্রীর দ্বারস্থ হলেন। কিন্তু নবাব মালিকের বেলায় তা দেখা গেল না। কারণ, নবাব মুসলিম বলে? না কি সঞ্জয়ের থেকে গুরুত্ব কম?" তাঁর মতে, "বিজেপি, এনসিপি, কংগ্রেস, সপা-এরা সব ধর্মনিরপেক্ষ দল। তারা মনে করে।তাদের জেলে যাওয়া উচিত নয়। কিন্তু মুসলিম দলের কোনও নেতা।জেলে গেলে ঠিক আছে। সব চুপ!"

Advertisement
(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.