×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৫ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

মুম্বইয়ে বহুতলের আগুন নেভাতে নামানো হল রোবট

সংবাদ সংস্থা
মুম্বই ২৩ জুলাই ২০১৯ ০৩:২৮
তখনও চলছে আগুন নেভানোর কাজ। সোমবার পশ্চিম বান্দ্রায়। ছবি: পিটিআই।

তখনও চলছে আগুন নেভানোর কাজ। সোমবার পশ্চিম বান্দ্রায়। ছবি: পিটিআই।

ফের বড় মাপের আগুন লাগল মুম্বইয়ের বহুতলে। সোমবার দুপুর ৩টে নাগাদ পশ্চিম বান্দ্রার টেলিফোন ভবন এমটিএনএল-এ আগুন লাগে। অফিসের ছাদে আটকে পড়া ৮৪ জনকেই উদ্ধার করা হয়েছে। এখনও পর্যন্ত কোনও মৃত্যুর খবর মেলেনি। দমকলের তরফে জানানো হয়েছে, আগুন লাগার কারণ স্পষ্ট নয়।

এ দিনের ঘটনাকে দমকলের বড় সাফল্য হিসেবেই দেখা হচ্ছে। এই প্রথম আগুন নেভাতে রোবট (রোবোফায়ার) ব্যবহার করা হয়েছে। ন’তলা বাড়িটিতে সে সময়ে ঠিক কত জন ছিলেন, তা স্পষ্ট নয়।

প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছিল, শতাধিক লোক আটকে থাকতে পারেন। কিন্তু পরে জানা যায়, উদ্ধার হওয়া ওই ৮৪ জনই বাড়িটিতে ছিলেন। ক্রেনের সাহায্যে বহুতলের ছাদ থেকে উদ্ধার করা হয় তাঁদের। তবুও বাড়িটির কোনও তলায় কেউ আটকে আছেন কি না, তা তল্লাশি করে দেখা হচ্ছে।

Advertisement

সপ্তাহের প্রথম দিন। দুপুর তিনটের সময়ে তখন কর্মব্যস্ত অফিস। বাড়িটির তিন ও চার তলায় আগুন লাগে। নীচের তলায় থাকা লোকজন হুড়োহুড়ি করে পালাতে থাকেন। উপরের তলায় আটকে পড়া লোকেরা নামতে পারেননি। তাঁরা বাড়ির ছাদে আশ্রয় নেন। এঁদের প্রায় সকলেই এমটিএনএল-এর কর্মী।

টেলিফোন ভবনের কাছেই দমকল অফিস। ফলে আগুন নেভাতে দ্রুত চলে আসে দমকলের ১৪টি ইঞ্জিন। এ ছাড়াও রোবট ভ্যান, এরিয়াল ল্যাডার ও অ্যাম্বুল্যান্স চলে আসে ঘটনাস্থলে। উদ্ধারকাজের মাঝে প্রবল ধোঁয়ায় অসুস্থ হয়ে পড়েন দুই দমকলকর্মী। জোরে হাওয়া দেওয়ায় ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছিল চারপাশ। আগুন নেভাতে গিয়ে তাই হিমশিম খেতে হয় দমকলকে। জখম দমকল কর্মীদের ভাবা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, তাঁদের অবস্থা স্থিতিশীল।

এ দিন ওই বহুতলের ছাদে আটকে পড়া কর্মীদের মধ্যে ছিলেন এলিজ়াবেথ গঞ্জালভেস নামে এক মহিলা। আগুন লেগেছে বুঝতে পেরেই সিঁড়ি দিয়ে নামার চেষ্টা করেন। কিন্তু তা আর সম্ভব হয়নি। ধোঁয়ায় ঢেকে গিয়েছিল সিঁড়ির পথ। মুখে কাপড় চাপা দিয়ে কোনও মতে ছাদের দিকে দৌড়ন তিনি। দমকলকর্মীরা উদ্ধার করেছেন তাঁকেও। এরই মধ্যে এক মহিলাকে দেখা যায় দমকলের এরিয়াল ল্যাডারে করে নামার সময়ে মোবাইল ফোনে আগুনের দৃশ্য ভিডিয়ো করতে।

গত কালই দক্ষিণ মুম্বইয়ের কোলাবায় একটি চার তলা বাড়িতে আগুনে পুড়ে মারা যান এক ব্যক্তি। গত বছর কমলা মিলস কম্পাউন্ডের দু’টি পানশালায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা এখনও তরতাজা। সে বার আগুনের বলি হয়েছিলেন ১৪ জন। মহারাষ্ট্র সরকার একটি রিপোর্টে জানিয়েছে, গত এক দশকে ৪৯ হাজারেরও বেশি আগুন লাগার ঘটনা ঘটেছে মুম্বইয়ে। তাতে মৃত্যু হয়েছে কমপক্ষে ৬০০ জনের। ঘটনাচক্রে, আজ ভোরেই দিল্লির এমটিএনএল অফিসে আগুন লেগেছিল। সেখানেও কোনও হতাহতের খবর নেই।

এবার শুধু খবর পড়া নয়, খবর দেখাও।সাবস্ক্রাইব করুনআমাদেরYouTube Channel - এ।



Tags:
Mumbai Fire Robot Fireমুম্বইরোবট

Advertisement