×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৯ জুলাই ২০২১ ই-পেপার

ট্র্যাক্টরের স্টিয়ারিংয়ে রাহুল, কৃষি আইনের বিরোধিতায় মিছিল কেরলের রাস্তায়

সংবাদ সংস্থা
ওয়েনাড ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ০০:১২
ওয়েনাডে রাহুল গাঁধীর ট্র্যাক্টর র‌্যালি।

ওয়েনাডে রাহুল গাঁধীর ট্র্যাক্টর র‌্যালি।

কৃষি আইন নিয়ে নরেন্দ্র মোদীর মুখে কুলুপ কেন? ফের প্রশ্ন তুললেন রাহুল গাঁধী। কৃষি আইন প্রত্যাহারের দাবিতে সোমবার তিনি ট্র্যাক্টর র‌্যালি করেন নিজের লোকসভা কেন্দ্র ওয়েনাডে। আর সেখানেই রাহুল ফের টেনে আনলেন ‘হম দো হমারে দো’ প্রসঙ্গ।

প্রায় ২০০টি ট্র্যাক্টর নিয়ে সোমবার ৬ কিলোমিটার রাস্তা মিছিল করে যান কংগ্রেস নেতা এবং সাংসদ রাহুল। তাঁর প্রশ্ন, দেশের কৃষক আন্দোলন নিয়ে যখন বিদেশের পপতারকারা সরব হচ্ছেন তখন দেশের প্রধানমন্ত্রী নীরব কেন?

কেরলে আসন্ন বিধানসভা নির্বাচন উপলক্ষে নিজের লোকসভা কেন্দ্র ওয়েনাডে এসেছিলেন রাহুল। সেখানেই কৃষি আইন প্রত্যাহারের দাবিতে মিছিল করেন রাহুল। কৃষি আইন নিয়ে অবশ্য এর আগেও সংসদে সরব হয়েছেন রাহুল। ‘হম দো, হমারে দো’ স্লোগান ব্যবহার করে কেন্দ্রকে কটাক্ষ করেছেন।

Advertisement

সোমবারও সেই প্রসঙ্গ টেনে আনেন তিনি। রাহুলের অভিযোগ, কেন্দ্রীয় সরকারের দুই শীর্ষ ব্যক্তিত্ব সম্পূর্ণ নিজেদের সুবিধার স্বার্থে বন্ধুত্ব করেছেন সরকারের বাইরের দুই প্রভাবশালী ব্যক্তিত্বের সঙ্গে। কৃষি আইন বানিয়ে কেন্দ্র আদতে সেই পুঁজিপতি ‘বন্ধু’দেরই সুবিধা করে দিচ্ছে। সরকারের লক্ষ্য একটাই। যে ভাবে হোক দেশের সমস্ত কৃষককে যেন এই পুঁজিপতিদের কাছেই কৃষিপণ্য বিক্রি করতে হয়।

রাহুলের কথায়, ভারতের মতো দেশের বিপুল কৃষিক্ষেত্রকে নিয়ন্ত্রণ করতে চায় এই চার জন। সেই লক্ষ্যেই ধীরে ধীরে এগোচ্ছে তারা।

কেরলে মুখ্যমন্ত্রী পিনারাই বিজয়নের নেতৃত্বাধীন বাম সরকার এবং বিরোধী কংগ্রেসের নেতৃত্বাধীন ইউনাইটেড ডেমোক্র্যাটিক ফ্রন্ট কেন্দ্রের কৃষি আইনের তীব্র বিরোধিতা করেছে।

Advertisement