Advertisement
১৬ এপ্রিল ২০২৪
Water Crisis in Bengaluru

জল অপচয় করলে ৫০০০ টাকা জরিমানা, নজরদারি চালাতে রক্ষীও রাখছে বেঙ্গালুরুর আবাসনগুলি

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, গরম পড়তে না পড়তেই গোটা শহর জুড়ে জলসঙ্কট দেখা গিয়েছে। সবচেয়ে খারাপ অবস্থা হোয়াইটফিল্ড, ইয়েলাহাঙ্কা এবং কনকপুরার।

প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
কলকাতা শেষ আপডেট: ০৫ মার্চ ২০২৪ ১৭:১১
Share: Save:

জল অপচয় করলেই দিতে হবে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা। বাসিন্দাদের এমনই হুঁশিয়ারি দিল বেঙ্গালুরুর আবাসনগুলি। জলসঙ্কটে ভুগছে গোটা শহর। জলের জন্য চার দিকে যখন হাহাকার চলছে, সেই পরিস্থিতি সামাল দিতে এ বার শহরের আবাসন কর্তৃপক্ষগুলি পদক্ষেপ করলেন। আবাসনের বাসিন্দাদের জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, কোনও ভাবেই জল অপচয় করা যাবে না। জল কেউ অপচয় করছেন কি না তা নজরদারি চালানোর জন্য রক্ষীও রাখছেন আবাসন কর্তৃপক্ষগুলি।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, গরম পড়তে না পড়তেই গোটা শহর জুড়ে জলসঙ্কট দেখা গিয়েছে। সবচেয়ে খারাপ অবস্থা হোয়াইটফিল্ড, ইয়েলাহাঙ্কা এবং কনকপুরার। হোয়াইটফিল্ডের এক আবাসন কর্তৃপক্ষ বাসিন্দাদের জানিয়ে দিয়েছেন, ব্যাঙ্গালোর ওয়াটার সাপ্লাই অ্যান্ড সিউয়ারেজ বোর্ড (বিডব্লিউএসএসবি) গত চার দিন ধরে জল সরবরাহ করছে না। ফলে স্বাভাবিক ভাবেই একটা সমস্যার মুখে পড়তে হচ্ছে তাঁদের। কিন্তু আবাসনের বাসিন্দাদের যাতে সমস্যা পোহাতে না হয়, তাই নিজেরাই ভূগর্ভস্থ জল সরবরাহ করছেন। কিন্তু এ ভাবে বেশি দিন জল সরবরাহ করা যাবে না বলেও জানিয়েছেন আবাসন কর্তৃপক্ষ। কারণ ভূগর্ভস্থ জলের স্তরও নেমে গিয়েছে।

এই পরিস্থিতির সঙ্গে যুঝতে তাই আবাসনের বাসিন্দাদের জল অপচয় বন্ধ করে অনুরোধ করা হচ্ছে আবাসন কর্তৃপক্ষগুলির তরফে। ২০ শতাংশ জলের ব্যবহার কমানোর জন্যও বলা হয়েছে বাসিন্দাদের। যদি এই পরিস্থিতিতেও তাঁরা জলের ব্যবহার না কমান বা জল অপচয় বন্ধ না করেন, তা হলে ৫০০০ টাকা জরিমানা করা হবে।

এই সুযোগে সক্রিয় হয়ে উঠেছে কিছু অসাধু ব্যবসায়ী। চড়া দামে জল বিক্রির চেষ্টা করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ উঠেছে। এই পরিস্থিতিকে সামাল দিতে স্থানীয় প্রশাসনগুলিকে নজরদারির নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)

অন্য বিষয়গুলি:

Water crisis bengaluru
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE