Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৭ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

নোটবন্দির দু’বছর: প্রধানমন্ত্রীকে ‘ঠগস অব হিন্দোস্তান’ বলে খোঁচা কংগ্রেসের

সরকারের প্রতি মনমোহনের পরামর্শ,  ভারতের মতো বিশাল দেশে কোনও গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে যথেষ্ট প্রস্তুতি ও ভাবনা চিন্তা করার প্রয়োজন আ

নিজস্ব প্রতিবেদন
০৮ নভেম্বর ২০১৮ ১৩:৫৯
Save
Something isn't right! Please refresh.
নরেন্দ্র মোদী ও মনমোহন সিংহ। ফাইল চিত্র।

নরেন্দ্র মোদী ও মনমোহন সিংহ। ফাইল চিত্র।

Popup Close

নোটবন্দির দুই বছর পূর্ণ হওয়ার দিনে সরকারের এই অর্থনৈতিক সিদ্ধান্তকে তীব্র সমালোচনায় বিদ্ধ করলেন অর্থনীতিবিদ ও প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহ। তাঁর দাবি, নোটবন্দির প্রভাব থেকে এখনও মুক্ত হতে পারেনি দেশ। সরকারের এই বেহিসেবি সিদ্ধান্তের জন্য এখনও দুর্ভোগে দেশের অসংখ্য মানুষ। শুধু মনমোহন সিংহ নন, নোটবন্দির দ্বিতীয় বর্ষপূর্তিতে দেশ জুড়েই সমস্ত বিরোধী দলের সমালোচনার মুখে পড়েছে মোদী সরকার।

মনমোহন সিংহের বক্তব্য, ‘‘সময়ের সঙ্গে নোটবন্দির ক্ষত বেড়েই চলেছে। তা শুধু গড় জাতীয় উপাদন কমিয়ে দেওয়াতেই সীমাবদ্ধ নেই। মাইক্রো, ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোগীরা এখনও নোটবন্দির ধাক্কা সামলে উঠতে পারেননি। ভারতীয় অর্থনীতিতে নোটবন্দীর ধাক্কা প্রভাব ফেলছে কর্মসংস্থানের হারেও। ভারতীয় অর্থনীতিতে নোটবন্দির ধাক্কা কতটা, তা এখনও হিসেব করা যায়নি ’’

একই সঙ্গে সরকারের প্রতি মনমোহনের পরামর্শ, ভারতের মতো বিশাল দেশে কোনও গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে যথেষ্ট প্রস্তুতি ও ভাবনা চিন্তা করার প্রয়োজন আছে। তা না হলে ফল ভুগতে হয় ভারতীয় অর্থনীতিকেই, আর ক্ষতিগ্রস্ত হন দেশের কোটি কোটি সাধারণ মানুষ।

Advertisement

আরও পড়ুন: সেনার কাছে গিয়েও সঙ্ঘের কথা মোদীর

শুধু মনমোহন নন, নোটবন্দির দু’বছর পেরিয়ে সারা দেশ জুড়েই বিরোধীদের তীব্র সমালোচনার বিদ্ধ হচ্ছে মোদী সরকার। নোটবন্দির সিদ্ধান্তকে ‘তুঘলকি ফরমান’ নাম দিয়েছে কংগ্রেস। নোটবন্দির দ্বিতীয় বর্ষপূর্তিতেই বলিউডে মুক্তি পেয়েছে ‘ঠগস অব হিন্দোস্তান’। সেই প্রসঙ্গ তুলে মোদীকে কটাক্ষ করেছেন কংগ্রেস নেতা মণীশ তিওয়ারি।


পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রীও টুইটারে এই দিনটিকে বলেছেন ‘অন্ধকার দিন’।


বিরোধীদের তীব্র সমালোচনার মুখে শেষ পর্যন্ত সরকারের হয়ে ব্যাট করতে নেমেছেন অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি। তাঁর সাফাই, ভারতীয় অর্থনীতিকে সঠিক পথে চালনা করতে একাধিক গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্তের মধ্যে একটি হল নোটবন্দি। এর ফলে আরও সুশৃঙ্খল হয়েছে দেশের কর ব্যবস্থা। নোটবন্দির সিদ্ধান্তের পর সারা দেশেই বেড়েছে ডিজিটাল লেনদেনের পরিমাণ। কর আদায় বেশি হওয়ার ফলে দেশের পরিকাঠামো, গ্রামোন্নয়নে ব্যবহার করা সম্ভব হচ্ছে।

আরও পড়ুন: আইনি পথে রামমন্দির গড়তে সরব যোগী

যদিও নোটবন্দির মূল উদ্দেশ্য ছিল কালো টাকা উদ্ধার। আর সরকারের বাতিল করে দেওয়া টাকার ৯৯.৩ শতাংশ টাকাই ব্যাঙ্কে ফেরত আসায় আদতে কোনও কালো টাকা উদ্ধার করতে পারেনি সরকার। এ নিয়ে অবশ্য কোনও সাফাই দেননি কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী।

মনমোহনের পর কেন্দ্রের আর্থিক নীতিকে তীব্র সমালোচনায় বিদ্ধ করেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদম্বরমও। কলকাতায় একটি সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি বলেন, রিজার্ভ ব্যাঙ্কের কাছে কেন্দ্রের টাকা চাওয়ার ঘটনা অভূতপূর্ব এবং দেশের অর্থনীতিতে এই ঘটনার সুদূরপ্রসারী প্রভাব থাকবে।

(ভারতের রাজনীতি, ভারতের অর্থনীতি- সব গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে আমাদের দেশ বিভাগে ক্লিক করুন।)



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement