Advertisement
০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩

রাহুলের ডাকে জোট ১৩ দলের যুবদের, নেই তৃণমূল

নরেন্দ্র মোদীকে হারানোর লক্ষ্যে বিরোধী জোটকে পোক্ত করতে সব দলের যুব সংগঠনকে এক মঞ্চে আনলেন রাহুল গাঁধী। যদিও এখনও সে মঞ্চে দেখা গেল না তৃণমূলকে।

রাহুল গাঁধী। — ফাইল চিত্র।

রাহুল গাঁধী। — ফাইল চিত্র।

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ০৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮ ০৩:৪৮
Share: Save:

নরেন্দ্র মোদীকে হারানোর লক্ষ্যে বিরোধী জোটকে পোক্ত করতে সব দলের যুব সংগঠনকে এক মঞ্চে আনলেন রাহুল গাঁধী। যদিও এখনও সে মঞ্চে দেখা গেল না তৃণমূলকে।

Advertisement

কংগ্রেস, সমাজবাদী পার্টি, এনসিপি, আরজেডি, ডিএমকে ও বামেদের যুব সংগঠনগুলি মিলে আজ একটি যৌথ ফ্রন্ট গঠন হল দিল্লিতে। কাল থেকেই সেই ফ্রন্ট আন্দোলনে নামছে পেট্রোল ও ডিজেলের বর্ধিত দামের বিরুদ্ধে। এমনকি যে রাফাল দুর্নীতি নিয়ে এত দিন অন্য বিরোধী দলগুলি সে ভাবে সরব হচ্ছিল না, যৌথ ফ্রন্টের তা নিয়েও দিল্লিতে বড় জনসভা করার কথা রয়েছে ২৮ সেপ্টেম্বর। মোদী জমানার বেকারি, দুর্নীতি আর বিভাজনের রাজনীতির প্রতিবাদে দেশ জুড়ে লাগাতার আন্দোলন করে যাবে এই যৌথ ফ্রন্ট। ‘মুখোশ’ খুলবে মোদীর ‘অচ্ছে দিন’ আনার প্রতিশ্রুতির।

কিন্তু তৃণমূল নেই কেন ?

যুব কংগ্রেসের সভাপতি কেশব যাদবের বক্তব্য, ‘‘আমরা এখনও যোগাযোগ করে উঠতে পারিনি। আজকের বৈঠকে আরজেডি, জেডিএস, ডিএমকে, জেএমএম-এর প্রতিনিধিরা আসতে পারেননি নিজেদের অন্য কাজ থাকায়। তবে মোট ১৩ দলের যুব মোর্চা এক মঞ্চে এসেছে। এই যৌথ মঞ্চ গড়ার জন্য রাহুল গাঁধী কথা বলেছেন বাকি দলের নেতাদের সঙ্গে।’’

Advertisement

আরও পড়ুন: কংগ্রেস-কমরেড যোগ, ‘নথি’ তুলে বিপাকে বিজেপি

তৃণমূলের এক সাংসদ অবশ্য বিস্ময় প্রকাশ করেেছেন। তিনি বলেন, ‘‘কংগ্রেসের উদ্যোগে এমন একটি পদক্ষেপ করা হচ্ছে, আর আমাদের একবারও তা জানানো হয়নি! লোকসভা ভোট আমরা একসঙ্গে মিলেই লড়তে চাইছি। সম্প্রতি ডিএমকের অনুষ্ঠানেও সব বিরোধী দল শামিল হয়েছি। আমাদের জানালে না যাওয়ার তো কোনও কারণ নেই!’’

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.