Advertisement
২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৪
Telangana Assembly Election 2023

‘বিদায় কেসিআর’, গণনার আগে জগন্মোহনের বোন শর্মিলার মুখে কংগ্রেসের জয়ের বার্তা তেলঙ্গানায়

ওয়াইএসআর তেলঙ্গানা পার্টির সভানেত্রী ওয়াইএস শর্মিলা আগেই জানিয়েছিলেন, তাঁর দল তেলঙ্গানার নির্বাচনে প্রার্থী দিলে সুবিধা পাবেন কেসিআর। তাই তাঁরা লড়বেন না।

ওয়াইএস শর্মিলা।

ওয়াইএস শর্মিলা। ছবি: সংগৃহীত।

আনন্দবাজার অনলাইন ডেস্ক
হায়দরাবাদ শেষ আপডেট: ০২ ডিসেম্বর ২০২৩ ১৯:৪৪
Share: Save:

তেলঙ্গানার বিধানসভা ভোটে মুখ্যমন্ত্রী কে চন্দ্রশেখর রাও (কেসিআর)-এর দল ভারত রাষ্ট্র সমিতি (বিআরএস)-এর ভরাডুবি হবে বলে দাবি করলেন ওয়াইএসআর তেলঙ্গানা পার্টির সভানেত্রী ওয়াইএস শর্মিলা। শনিবার সমাজমাধ্যমে পোস্টে তাঁর বার্তা— ‘‘তেলঙ্গানার মানুষ বলছে ‘বিদায় কেসিআর’।”

বিধানসভা ভোটের আগে জল্পনা তৈরি হয়েছিল, অন্ধ্রপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী ওয়াইএস জগন্মোহন রেড্ডির বোন শর্মিলা কংগ্রেসে যোগ দিতে চলেছেন। দিল্লিতে গিয়ে রাহুল গান্ধী, মল্লিকার্জুন খড়্গের সঙ্গে বৈঠকও করেছিলেন অবিভক্ত অন্ধ্রের প্রয়াত মুখ্যমন্ত্রী ওয়াইএস রাজশেখর রেড্ডির কন্যা। যদিও শেষ পর্যন্ত তা হয়নি। তবে বিআরএস বিরোধী ভোটের বিভাজন লড়তে বিধানসভা ভোটে প্রার্থী না দেওয়ার কথা ঘোষণা করেছিলেন শর্মিলা।

জগনের সঙ্গে মতবিরোধের জেরে শর্মিলা বছর দুয়েক আগে ওয়াইএসআর কংগ্রেস ছেড়ে প্রয়াত বাবার নামে নতুন দল গড়েছিলেন। হায়দরাবাদবাসী নেত্রী জানিয়েছিলেন, অন্ধ্রপ্রদেশ নয়, তেলঙ্গানাকেই রাজনৈতিক কর্মকাণ্ডের ঠিকানা করতে চান তিনি। জগন-শর্মিলার মা তথা প্রাক্তন কংগ্রেস বিধায়ক বিজয়াম্মাও পরে সেই দলে শামিল হন। শর্মিলা শিবিরের দাবি, হায়দরাবাদ নিবাসী নেত্রী অন্ধ্রপ্রদেশের তুলনায় তেলঙ্গানার স্বার্থরক্ষাকে বেশি গুরুত্ব দিতে চান। তাই নতুন দল গড়েন তিনি।

প্রসঙ্গত, ২০০৯ সালে হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় মারা গিয়েছিলেন অখণ্ড অন্ধ্রের তৎকালীন মুখ্যমন্ত্রী তথা কংগ্রেস নেতা রাজশেখর রেড্ডি। তাঁর মৃত্যুতে খালি হওয়া কাড়াপা জেলার পুলিভেন্ডুলা বিধানসভা কেন্দ্রের উপনির্বাচনে জেতেন বিজয়াম্মা। কংগ্রেস শীর্ষ নেতৃত্বের সঙ্গে মতবিরোধের জেরে ২০১১ সালে নয়া দল ওয়াইএসআর কংগ্রেস গড়েন রাজশেখর-পুত্র জগন। সে সময় পাশে পেয়েছিলেন মা বিজয়াম্মা এবং বোন শর্মিলাকে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement

Share this article

CLOSE