চলতি মাসে নিলামে উঠছে দুটি পিস্তল। বিশ্বে কত পিস্তলই নিলামে ওঠে। কখনও কখনও তাদের ঐতিহাসিক বা অন্যান্য কারণে দামও ওঠে চমকে দেওয়ার মতো। কিন্তু তা বলে দু’টি পিস্তলের সম্ভাব্য দাম যদি হয় ১০ কোটির উপর তবে চোখ কপালে উঠতে বাধ্য। আসলে পিস্তলগুলি তৈরি হয়েছে ৪৫০ কোটি বছর পুরনো উল্কাপিণ্ডের ধাতু থেকে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ডালাসে হেরিটেজ অকশান নামে একটি নিলাম সংস্থা ২০ জুলাই বন্দুক দু’টি বিক্রির আয়োজন করেছে। পিস্তলের দু’টিরমোট দাম রাখা হয়েছে প্রায় ৬ কোটি টাকা। কেউ চাইলে দু’টি একসঙ্গে কিনতে পারেন। আবার আলাদা আলাদা বিক্রির সুযোগও থাকছে নিলামে। নিলাম সংস্থা মনে করছে, পিস্তল দু’টির দাম উঠতে পারে দেড় মিলিয়ন মার্কিন ডলার। ভারতীয় মুদ্রায় ১০ কোটি ২৬ লক্ষ ৭৫ হাজার টাকার মতো।

বন্দুক দু’টির বেশিরভাগ অংশ ‘মুয়োনিওনালুস্তা’ উল্কাপিণ্ড থেকে পাওয়া ধাতু থেকে তৈরি। এই উল্কা প্রায় ৪৫০ কোটি বছর পুরনো। পৃথিবীতে সব থেকে পুরনো যে উপাদানগুলি পাওয়া যায় এটি তাদের মধ্যে অন্যতম পুরনো। এই উল্কাটি পৃথিবীতে প্রায় ১০ লক্ষ বছর আগে আছড়ে পড়েছিল বলে মনে করছেন বিজ্ঞানীরা।

আরও পড়ুন : গায়ে জড়িয়ে ৬টি পাইথন, মহারানি ব্যস্ত মোবাইলে

আরও পড়ুন : সাজানো, নিরিবিলি এই দ্বীপে গিয়ে থাকতে পারলে মাসে পাবেন ৩৮ হাজার টাকা!

১৯০৬ সালে উল্কাপিণ্ডটি সুইডেনে খুঁজে পাওয়া যায়। আর এই উল্কা থেকে পাওয়া ধাতু দিয়ে ১৯১১ সালে বন্দুক দুটি তৈরি  করা হয়। এগুলি ‘কোল্ট ১৯১১ পিস্তল’-এর মডেলে তৈরি করেন লউ বিওন্দো নামে এক বন্দুক নির্মাতা। তিনি তাঁর অভিজ্ঞতার কথা শোনাতে গিয়ে বলেন, আপনি যদি কার্বন স্টিল, অ্যালুমিনিয়াম, স্টেনলেস স্টিলের সঙ্গে কিছু হিরের টুকরো দিয়ে কিছু তৈরি করেন যেমন অনুভূতি হবে, এক্ষেত্রেও তাই হয়েছিল।