পেদ্রো। ১৫ বছর বয়সী ওই বক্স কচ্ছপের নেই পিছনের দু’টি পা। তাই কোনও মতে সামনের পা দিয়ে নড়াচড়া করার চেষ্টা করত সে। কিন্তু ভাল পারত না। কিন্তু চিকিৎসা বিজ্ঞানের সহায়তায় ও সান্দ্র ট্রেলর নামের নামের এক মহিলার উদ্যোগে ‘বিশেষ পা’ পেল পেদ্রো। তার পর থেকে সেই ‘পা’ ব্যবহার করে দিব্যি হেঁটে চলে বেড়াচ্ছে সে।

পেদ্রোর পায়ের ওই অবস্থা দেখে তার পালক সান্দ্র ট্রেলর তাকে নিয়ে যান লুইজিয়ানা স্টেট ইউনিভার্সিটি ভেটেনারি টিচিং হাসপাতালে। সেখানকার চিকিৎসকরা পেদ্রোর জন্য বিশেষ ব্যবস্থার পরিকল্পনা করেন। তার পরই পায়ের বদলে পেদ্রোর পিছনের দিকে লাগিয়ে দেওয়া হয় দুটি চাকা। সেই চাকার সাহায্যে ‘হুইল চেয়ারের’ কায়দায় এখন দিব্যি হেঁটে বেড়াচ্ছে পেদ্রো।

ওই পশু চিকিৎসা হাসপাতালের কমিউকেশন ম্যানেজার জিঞ্জার গাটনার বলেছেন, ‘‘পেদ্রোর কোনও শারীরিক সমস্যা নেই। ওর শুধু পিছনের পা ছিল না। সেই সমস্যা এখন মিটে গিয়েছে।’’ চাকা লাগানো সেই পা পেয়ে এখন দিব্যি নড়ে চড়ে বেড়াচ্ছে পেদ্রো। দেখুন সেই ভিডিয়ো- 

 

 

আরও পড়ুন: ইনি নাকি ইমরান খান! দাবি করছেন তাঁরই বিশেষ সহায়ক

আরও পড়ুন: শরণার্থী তাড়াও অভিযানে পিছু হটলেন ট্রাম্প