সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপ বিতর্কে এ বার রাহুল গাঁধীকে নিশানা করলেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। তাঁকে তীব্র কটাক্ষ করে অমিত বলেন, ‘রাহুল বাবা’ এখন রাজনীতিতে এসেছেন। কিন্তু, কাশ্মীর ও ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপের দাবিতে বিজেপির তিন প্রজন্ম  দিয়েছে। কংগ্রেস কাশ্মীর নিয়ে রাজনীতি করছে বলেও অভিযোগ করেছেন অমিত।

রবিবার, মুম্বইয়ে একটি সেমিনারে যোগ দেন অমিত শাহ। সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপ নিয়ে নরেন্দ্র মোদীর ভূমিকার ভূয়সী প্রশংসা করেন অমিত। বলেন, ‘‘দ্বিতীয় বার ৩০০-র বেশি আসন নিয়ে ক্ষমতায় আসার পর সংসদের প্রথম অধিবেশনেই সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ ও ৩৫এ ধারা বিলোপ করেন প্রধানমন্ত্রী।’’ এর পরই রাহুলকে আক্রমণ করেন বিজেপি সভাপতি। বলেন, ‘‘রাহুল গাঁধী বলেন, সংবিধানের ৩৭০ ধারা বিলোপ একটি রাজনৈতিক বিষয়। রাহুল বাবা, আপনি সম্প্রতি রাজনীতিতে এসেছেন। কিন্তু, বিজেপির তিন প্রজন্ম কাশ্মীর, ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপের জন্য বলিদান দিয়েছেন। এটা আমাদের কাছে রাজনৈতিক বিষয় নয়, ভারত মায়ের অখণ্ডতা বজায় রাখাই আমাদের লক্ষ্য।’’

অমিত আরও বলেন, ‘‘আমরা ৩৭০ অনুচ্ছেদ ও ৩৫এ তোলার দাবিতে উৎসর্গীকৃত যোদ্ধা। জনসঙ্ঘ ও বিজেপি বহুদিন ধরেই এর বিরুদ্ধে বলে আসছে।’’

আরও পড়ুন: ফের ‘সক্রিয়’ বালাকোটের জঙ্গি ঘাঁটি, গোয়েন্দা রিপোর্টে চাঞ্চল্য

বিশেষ মর্যাদা তুলে দিয়ে, দুটি পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চলে ভেঙে দেওয়া হয়েছে জম্মু এবং কাশ্মীরকে। এই প্রসঙ্গ টেনে অমিত বলেন, ‘‘কাশ্মীরে খুব শীঘ্রই নির্বাচন হতে চলেছে। কংগ্রেস যারা জম্মু-কাশ্মীরে রাজনীতি খোঁজে আর বিজেপি যারা দেশপ্রেম দেখে তাদের মধ্যেই প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে।’’

আরও পড়ুন: মার্কিন সংস্থার সঙ্গে ২৫০ কোটি ডলারের মউ, মোদীর বৈঠক শিল্পপতিদের সঙ্গে

কাশ্মীর ইস্যুতে প্রথমে রাহুল, তার পর স্বাভাবিক ভাবেই অমিতের টার্গেট ছিল মেহবুবা মুফতি ও ফারুক আবদুল্লাও। তাঁদের নাম না করেই অমিত বলেন, ‘‘তিন পরিবারের শাসন কখনই দুর্নীতি দমন ইউনিট তৈরি করতে দেয়নি। এখন থেকে জম্মু-কাশ্মীরে অ্যান্টি করাপশন ব্যুরো কার্যকর হল।’’