ভারতীয় সেনাবাহিনীরই এক অফিসারের স্ত্রীয়ের সঙ্গে বিবাহ বহির্ভূত সম্পর্ক রাখার অভিযোগে কোর্ট মার্শালের নির্দেশ দেওয়া হল সেনাবাহিনীরই এক কর্নেলের বিরুদ্ধে। অভিযুক্ত দিল্লিতে যখন কর্মরত ছিলেন, সেই সময়েই এই সম্পর্ক শুরু হয় বলে জানা গিয়েছে।

নিজের স্ত্রীয়ের ফোনে অভিযুক্ত কর্নেলের মোবাইল থেকে আপত্তিকর বিষয়বস্তু দেখতে পেয়েই তিনি এই অভিযোগ করেন বলে জানা গিয়েছে। প্রায় দু’বছর ধরে তদন্ত চলার পরে সেই অভিযুক্তের বিরুদ্ধে কোর্ট মার্শালের নির্দেশ দেন কর্তৃপক্ষ। সেনা আইনের ৪৫ নম্বর ধারা অনুযায়ী তাঁর বিরুদ্ধে এই অভিযোগ আনা হয়েছে।

তদন্ত চলাকালীন অভিযুক্তের মোবাইলটিও বাজেয়াপ্ত করা হয়েছিল। তদন্তকারী অফিসারেরা দেখতে পান যে ওই ব্যক্তি রীতিমতো পর্নোগ্রাফিক ছবি-ভিডিয়ো পাঠাতেন ওই ব্যক্তির স্ত্রীকে। দু’জনের মধ্যে যৌন ইঙ্গিতপূর্ণ মেসেজও চালাচালি হত বলে তদন্তে উঠে এসেছে।

চণ্ডীগড়ে এই কোর্ট মার্শাল শুরু হবে। ভারতীয় সেনা যে কোনও রকম যৌন নির্যাতনের বিরুদ্ধে বরাবরই খুব শক্ত হাতে রাশ ধরেছে। এ ক্ষেত্রেও তাঁর অন্যথা হবে না বলে জানানো হয়েছে সেনার তরফে।

আরও পড়ুন: বিজ্ঞাপনী ভুল নাকি চমক?

আরও পড়ুন: বুলন্দশহর কাণ্ডে মূল অভিযুক্ত নেতাকে পুলিশে দিল বজরং দল