মনে আছে হরিদ্বারের সেই ভয়াল জলোচ্ছ্বাসের ছবি? পাহাড়ের কোল বেয়ে প্রবল বেগে নেমে আসছে জলধারা।

সেই ‘জল-দানবের’ স্মৃতিই যেন ভেসে উঠল উত্তরাখণ্ডের মুসৌরিতে। প্রবল বৃষ্টিতে এমনই ভয়ঙ্কর রূপে দেখা গিয়েছে মুসৌরির কেম্পটি জলপ্রপাতকে। একেবারে নিজের চেনা রূপের বিপরীত।

গত কয়েক দিন নাগাড়ে বৃষ্টি চলছে উত্তরাখণ্ডে। আর তাতেই রীতিমতো ফুলেফেঁপে উঠেছে কেম্পটি জলপ্রপাত।

দেখুন ভিডিয়ো

 

 

 

প্রতি বছরই এই জলপ্রপাতটি দেখতে ভিড় জমান পর্যটকেরা। কিন্তু, এ বার প্রচণ্ড বৃষ্টিতে জলের পরিমাণ স্বাভাবিকের থেকে অনেকটাই বেড়ে গিয়েছে। নাগাড়ে বৃষ্টি এবং জলপ্রপাতের তাণ্ডবের হাত থেকে পর্যটকদের রক্ষা করতে নামানো হয় পুলিশ ও বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনীকেও। রবিবারই পুলিশ ১৮০ জন পর্যটককে উদ্ধার করেছে।

৪০ ফুটের এই জলপ্রপাতটি বৃষ্টির জেরে ভয়ঙ্কর চেহারা নিয়েছে। কেম্পটি জলপ্রপাতের সামনেই দোকান নগেন্দ্র পানওয়ারের। তাঁর কথায়, ‘‘আমি এই ভয়ঙ্কর রূপ আগে কখনও দেখিনি। এটি দেখার পর পুলিশকে খবর দিই। আটকে পড়া পর্যটকদের উদ্ধার করে পুলিশ।’’ গত তিন দিন ধরেই প্রবল বৃষ্টি হচ্ছে উত্তরাখণ্ডে। পরিস্থিতি নিয়ে ইতিমধ্যেই সতর্কতা জারি করা হয়েছে। তৈরি থাকতে বলা হয়েছে পুলিশকে।

আরও পড়ুন: নিকাহ্ হালালা’র জন্য চাপ, শ্বশুরের ধর্ষণের শিকার হলেন উত্তরপ্রদেশের মহিলা

কেম্পটি জলপ্রপাত যখন পর্যটকদের কাছে আকর্ষণ।— ফাইল চিত্র।

সাধারণ ভাবে জুনের প্রথম দিকে এই জলপ্রপাতটি দেখার উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। পর্যটকদের পাশাপাশি বন্ধ রাখা হয় আশপাশের দোকানও।

(কাশ্মীর থেকে কন্যাকুমারী, গুজরাত থেকে মণিপুর - দেশের সব রাজ্যের গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে আমাদের দেশ বিভাগে ক্লিক করুন।)