• সংবাদ সংস্থা 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

করোনা রোগীর বাড়িতে চুরি করতে এসে মাংস-ভাত রেঁধে খেল চোর!

representative
প্রতীকী ছবি।

করোনায় আক্রান্ত হয়ে বাড়ির মালিক ভর্তি রয়েছেন হাসপাতালে। সেই সুযোগে দরজা ভেঙে বাড়িতে ঢুকে ৫০ হাজার টাকা নগদ ও সোনার গয়না চুরি করল চোর। তবে চুরি করাই নয়। ফাঁকা বাড়ি পেয়ে চোর রীতিমতো পিকনিক করে নিল সেখানে। মাংস, ভাত, রুটি বানিয়ে খেয়ে দেয়ে তার পর চম্পট দিল। বৃহস্পতিবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে ঝাড়খণ্ডের জামশেদপুরে। এই ঘটনার কথা শনিবার জানিয়েছে পুলিশ।

ওই বাড়িটি এক জন শিক্ষকের। কোভিডে আক্রান্ত হয়ে তিনি জামশেদপুরের টাটা মেন হাসাপাতালে ভর্তি রয়েছেন। ওই ব্যক্তির ভাই শুক্রবার বিকালে এসে দেখতে পান, চুরি হয়েছে বাড়িতে। তার পর শুক্রবার রাতে পুলিশে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন তিনি। তাঁর দাবি, ‘‘পালানোর আগে চোরেরা খাসির মাংস, ভাত, রুটি রান্না করে খেয়েছে। গোটা বাড়ি লন্ডভন্ড করেছে।’’ তিনি জানিয়েছেন তাঁর দাদা করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর বাড়ি সিল করে দেওয়া হয়েছিল। তাঁর বউদি ও ভাইপো গত এক মাস ধরেই তাঁদের গ্রামের বাড়িতে থাকছিলেন।

ঘটনা নিয়ে জামশেদপুর পুলিশের ডেপুটি সুপার অলোক রঞ্জন বলেছেন, ‘‘চোরের নগদ ৫০ হাজার টাকা ও প্রায় সমমূল্যের গয়না চুরি করেছে। বাড়ির মালিক কোভিডে আক্রান্ত হয়ে টাটা মেন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। ওই ব্যক্তি আক্রান্ত হওয়ার পর ওই এলাকাকে কন্টেনমেন্ট জোন হিসাবে চিহ্নিত করা হয়েছে। সেখানে নিরাপত্তারক্ষীও মোতায়েন করা হয়েছে। আমরা ঘটনার তদন্ত করছি।’’

জামশেদপুরের অন্য একটি চুরির ঘটনায় চোর মোবাইল ফোন, নগদ টাকার সঙ্গে স্যানিটাইজার নিয়েও পালিয়েছে চোরেরা।

আরও পড়ুন: ২৪ ঘণ্টায় ৪০ হাজার! দেশে মোট আক্রান্ত ১১ লক্ষ ছাড়াল

আরও পড়ুন: প্রবল বৃষ্টিতে দিল্লিতে ভেঙে পড়ল বাড়ি, ভাসল জলের তোড়ে

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন