আগে বলেছিলেন, কংগ্রেস ‘না’ করে দিয়েছে। আর এ বার অরবিন্দ কেজরীওয়াল নিজেই সিদ্ধান্ত নিলেন, ‘দিল্লিতে মহাজোট হবে না।’ অর্থাৎ আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে কংগ্রেসের সঙ্গে আম আদমি পার্টির (আপ) জোট হচ্ছে না। কংগ্রেসের তরফে আগেই ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছিল। এ বার জোটের সব দরজা কার্যত বন্ধ করে দিলেন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী। কিন্তু নিষ্ফল মহাজোটের দুই দলের এমন বার্তা আদপে বিজেপি বিরোধী মহাজোটের পক্ষে খারাপ বার্তা বলেই মনে করছেন রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা।

দিল্লিতে সোমবার একটি সাক্ষাৎকারে আপ সুপ্রিমো বলেন,  ‘‘আমরা চেষ্টা করছি, দিল্লির সব আসনে একা লড়াই করার। কারণ কংগ্রেস যে মহাজোট গড়তে নারাজ সেটা আগেই জানিয়ে দিয়েছে। এখনও মনে হচ্ছে, ওরা এই সিদ্ধান্তে অনড়।’’

দিল্লিতে কংগ্রেসের সঙ্গে আপের তিক্ত সম্পর্কের কথা রাজনৈতিক শিবিরে অপরিচিত নয়। এ দিন সেই প্রসঙ্গ টেনে কেজরীওয়াল বলেন, ‘‘আমাদের দু’পক্ষের তিক্ত বিরোধিতা সত্ত্বেও আমি মহাজোটের পক্ষেই ছিলাম। কারণ আমি মনে করি, মোদী-অমিত শাহ জুটিকে ক্ষমতা থেকে সরানোই এখন দেশবাসীর কাছে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ। কিন্তু কংগ্রেস বার বার আমার সেই আর্জি খারিজ করে দিয়েছে। তাই সব দরজা বন্ধ এবং আমরা একার ক্ষমতাতেই লোকসভার সব আসনে লড়াইয়ের প্রস্তুতি নিচ্ছি।’’

 আপনার জ্ঞানভাণ্ডার যাচাই করুন, খেলুন কুইজ

আরও পডু়ন: ফের তথ্যপ্রমাণ চেয়েও মোদীর কাছে ‘শান্তির সুযোগ’ চাইলেন ইমরান

আরও পড়ুন: ‘স্বামীর ইউনিফর্ম-স্টার পরেই স্যালুট জানাব’! সেনায় যোগ দেওয়ার আগে বললেন নিহত মেজরের স্ত্রী

মোদী সরকারকে হঠাতে দেশ জুড়ে কংগ্রেস এবং আঞ্চলিক দলগুলিকে নিয়ে মহাজোট গড়ার যে প্রচেষ্টা চলছে, তাতে রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকরা মনে করছিলেন, তিক্ততা ভুলে দু’পক্ষ কাছাকাছি সমঝোতার রাস্তায় আসতে পারে। কিন্তু সেই সম্ভাবনা খারিজ করে কেজরীওয়াল কার্যত কংগ্রেসের ঘাড়েই দোষ চাপালেন।

শুধু দোষ চাপানোই নয়, কংগ্রেসকে আক্রমণ করতেও ছাড়েননি কেজরীওয়াল। আপ সুপ্রিমোর তোপ, ‘‘কংগ্রেস কি চায়? উত্তরপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ, দিল্লিতে ওরা একা লড়ে বিরোধীদের দুর্বল করছে।’’ তবে দিল্লিতে সাতটি আসনই তাঁর দল জিতবে বলেও দাবি করেন  কেজরীওয়াল। ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে দিল্লির সাতটি আসনই ছিল বিজেপির দখলে।

(ভোটের খবর, জোটের খবর, নোটের খবর, লুটের খবর- দেশে যা ঘটছে তার সেরা বাছাই পেতে নজর রাখুন আমাদের দেশ বিভাগে।)