ফুটব্রিজটার নামই হয়ে গিয়েছে ‘কসাব ব্রিজ’। ২৬/১১-তে মুম্বইয়ের ছত্রপতি শিবাজি টার্মিনাস স্টেশন (সিএসটি)-এ তাণ্ডব চালানোর পরে এই সেতু পেরিয়েই নাকি কামা হাসপাতালে গিয়েছিল লস্কর জঙ্গি আজমল কসাব। 

আজ সন্ধে সাড়ে সাতটায় সেই ব্রিজেরই কংক্রিটের পাটাতনের একটা বড় অংশ ভেঙে পড়ল নীচের রাস্তায়। মারা গেলেন দুই মহিলা-সহ ৬ জন। আহত অন্তত ৩৪। নিহত দুই মহিলা নিকটবর্তী জি টি হাসপাতালের কর্মী বলে স্থানীয় সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে। 

সিএসটি-র ১ নম্বর প্ল্যাটফর্মের উত্তর প্রান্তের সঙ্গে এই ব্রিজই জুড়েছে উল্টো দিকের বি টি লেনকে। কাছেই একটি ইংরেজি সংবাদপত্রের দফতর। ১৯৮৪ সালে তৈরি এই ফুটব্রিজ দিয়ে কয়েক লক্ষ মানুষ পারাপার করেন রোজ। আজ দুর্ঘটনার সময়েও ব্রিজে ছিল অফিস টাইমের ভিড়। ভেঙে পড়া চাঙড়ের আঘাতে রাস্তাতেও জখম হয়েছেন অনেকে।

আরও পড়ুন: দিল্লি দখলের লড়াই, লোকসভা নির্বাচন ২০১৯ 

এলফিনস্টন রোড, অন্ধেরীর মতো স্টেশনের ফুটব্রিজে পরপর দুর্ঘটনার পরে প্রায় সাড়ে চারশো সেতুর কাঠামো পরীক্ষা করে রিপোর্ট দিয়েছিল বৃহন্মুম্বই পুরসভা। আজ প্রশ্নের মুখে সেই রিপোর্ট। সেতুটিতে গত ক’দিন ধরে মেরামতির কাজ চললেও লোক চলাচল কেন বন্ধ রাখা হয়নি, খতিয়ে দেখছে মহারাষ্ট্র সরকার। 

আরও পড়ুন:জঙ্গি তালিকায় উঠলেও মাসুদ শাস্তি পেত কি?