পদ্মশ্রী পুরস্কার ফিরিয়ে দিলেন ওড়িশার মুখ্যমন্ত্রী নবীন পট্টনায়েকের বোন লেখিকা গীতা মেহতা।

২৫ জানুয়ারি পদ্মশ্রী প্রাপকদের নাম ঘোষণা করা হয়। সব মিলিয়ে মোট ১১৩ জনের নাম ঘোষণা করা হয়। তার মধ্যে লেখিকা গীতা মেহতা অন্যতম। গীতা বর্তমানে নিউ ইয়র্কে থাকেন। নিউ ইয়র্ক থেকেই এক বিবৃতি দিয়ে তিনি এই পুরস্কার নেওয়ার কথা অস্বীকার করেছেন।

ওই বিবৃতিতে গীতা জানিয়েছেন, “ভারত সরকার আমাকে পদ্মশ্রীর জন্য যোগ্য মনে করেছেন, আমি কৃতজ্ঞ। কিন্তু খুব দুঃখের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, এই সম্মান আমি নিতে পারব না। কারণ সামনেই লোকসভা নির্বাচন। এই সময়ে এই সম্মান ভুল বার্তা দিতে পারে, তাতে ভারত সরকার এবং আমি, দু’জনেই বিব্রত হব। যা আমার পক্ষে আরও বেশি দুঃখজনক।’’

আরও পড়ুন: গৌতম গম্ভীর থেকে কাদের খান, খেলা এবং বিনোদন জগতের যাঁরা এ বার পদ্ম পুরস্কার পেলেন

রাজনীতিকদের অনুমান, ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের আগে ওড়িশায় ক্ষমতায় থাকা বিজেডি নেতা নবীন পট্টনায়েকের বোনকে পদ্মশ্রী সম্মান দিয়ে বিজেডির মন পেতে চান প্রধানমন্ত্রী।

আরও পড়ুন: ভোটের মুখে প্রণব ভারতরত্ন

সূত্রের খবর, পদ্মশ্রী সম্মান ঘোষণার মাস খানেক আগে প্রকাশক স্বামী সোনি মেহতার সঙ্গে দিল্লিতে এসেছিলেন তিনি। তখনই প্রধানমন্ত্রীর আমন্ত্রণে তাঁর সঙ্গে দেখা করতেও যান দু’জন। প্রায় ৯০ মিনিট ধরে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে গীতার বৈঠক হয়েছিল।