লোকসভায় বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর বলেছেন, কুলভূষণ যাদবকে দেশে ফেরানোর চেষ্টা জারি থাকবে। আন্তর্জাতিক ন্যায় আদালতের রায় মেনে কুলভূষণের সঙ্গে ভারতীয় কূটনীতিকদের দেখা করতে (কনস্যুলার অ্যাকসেস) দেবে পাকিস্তান। কার্যত সেই সুরেই এ বার বিদেশ মন্ত্রক জানাল, আন্তর্জাতিক আদালতের রায় মানতে বাধ্য পাকিস্তান। বৃহস্পতিবার সাংবাদিক বৈঠকে বিদেশসচিব রবীশ কুমার বলেন, ‘‘কুলভূষণকে পাকিস্তান কনস্যুলার অ্যাকেসস দিতে বাধ্য। আমরা আশা করি পাকিস্তান সেটাই করবে।’’

বুধবারই দ্য হেগে আন্তর্জাতিক আদালত রায় দিয়েছে, কুলভূষণের মূত্যুদণ্ড রদ করে পুনর্বিবেচনাকরুক পাকিস্তান। সামরিক আদালত নয়, ফৌজদারি আদালতে কুলভূষণের পুনর্বিচার করা উচিত বলেও রায়ে উল্লেখ করেন বিচারপতিরা। একই সঙ্গে ১০ বিচারপতির প্যানেলের পর্যবেক্ষণ ছিল, কুলভূষণকে কনস্যুলার অ্যাকসেস না দিয়ে পাকিস্তান ভিয়েনা চুক্তি লঙ্ঘন করেছে।

এই প্রেক্ষিতেই বৃহস্পতিবার সাংবাদিক সম্মেলনে আন্তর্জাতিক আদালতের এই রায়কে ‘চূড়ান্ত’ এবং অবশ্যপালনীয় বলে মন্তব্য করেন রবীশ কুমার। তিনি বলেন, ‘‘পাকিস্তান এ বার কনস্যুলার অ্যাকসেস দিতে বাধ্য। আমরা আশা করি পাকিস্তান সেটাই করবে। এর বাইরে আর কিছু চাই না। আশা করি পাকিস্তান নিজে থেকেই কনস্যুলার অ্যাকসেস দেবে।’’

আন্তর্জাতিক আদালত পাকিস্তানের বিরুদ্ধে রায় দিলেও পাকিস্তানের দাবি, তাদেরই জয় হয়েছে। এমনকি, খোদ প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানও টুইট করে রায়কে স্বাগত জানান। লেখেন, আন্তর্জাতিক আদালত কুলভূষণকে বেকসুর খালাস ঘোষণা করেনি বা দেশে ফেরানোর নির্দেশ দেয়নি। পাকিস্তানের এই দাবিকে কটাক্ষ করে বিদেশসচিবের মন্তব্য: ‘‘মনে হচ্ছে ওরা (পাকিস্তান) সম্পূর্ণ অন্য একটা রায় পড়েছে। যদি ৪২ পাতার রায় পড়ার ধৈর্য ওদের না থাকে, তাহলে অন্তত সাত পাতার প্রেস বিজ্ঞপ্তিও পড়ে নিতে পারত।’’

আরও পডু়ন: হিজাব পরে হনুমান চালিসা পাঠ! প্রাণনাশের হুমকিতে বাড়িছাড়া হাওড়ার ইসরত জহান

আরও পডু়ন: কাজিরাঙায় ঘরে ঢুকে সোজা বিছানায় বাঘ

বুধবারই মুম্বই হামলার মূল চক্রী তথা জামাত উদ দাওয়া প্রধান হাফিজ সইদকে গ্রেফতার করেছে পাক প্রশাসন। কিন্তু এটা পুরোটাই পাকিস্তানের লোক দেখানো বলে আক্রমণ শানিয়েছেন রবীশ কুমার। তিনি বলেন, ‘‘আমরা হাফিজ সইদের গ্রেফতারি সংক্রান্ত রিপোর্ট দেখেছি। গ্রেফতার করেও ছেড়ে দেওয়ার নাটক বহু দিন থেকেই আমরা দেখছি। অন্তত আট বার একই চিত্রনাট্য দেখেছে গোটা বিশ্ব। কিন্তু প্রশ্ন হল, এবার কি অন্তত লোক দেখানোর থেকে বেশি কিছু হবে?’’

বৃহস্পতিবার সংসদের দুই কক্ষেই বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর জানিয়েছেন, কুলভূষণকে দেশে ফেরত আনার চেষ্টা জারি রাখবে ভারত। ভারতীয় নৌবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত অফিসার কুলভূষণ যাদবকে পাকিস্তান ‘অবৈধ ভাবে’গ্রেফতার করেছিল এবং পাক সামরিক আদালতে কুলভূষণের ফাঁসির আদেশ একতরফা বলেও সংসদে মন্তব্য করেন বিদেশমন্ত্রী।