• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

‘লড়াইয়ে অহিংসার পথ ভুললে চলবে না’, প্রজাতন্ত্র দিবসে দেশবাসীকে মনে করিয়ে দিলেন রাষ্ট্রপতি

ramnath
রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ। -ফাইল চিত্র।

Advertisement

কোনও বিষয় নিয়ে লড়াই করার সময় মহাত্মা গাঁধীর অহিংসা নীতিকে ভুললে চলবে না, কারণ এই নীতিই আমাদের দেশের মূল ভিত্তি। ৭১তম প্রজাতন্ত্র দিবসে জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেওয়ার সময় বারবারই অহিংসার কথা দেশবাসীকে স্মরণ করিয়ে দিলেন রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ

 প্রজাতন্ত্র দিবসের প্রাক্কালে শনিবার রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ দেশবাসীর উদ্দেশে ভাষণ দেন। তিনি সংবিধান থেকে শুরু করে গণতন্ত্র রক্ষা, সরকার-বিরোধীপক্ষ সম্পর্ক, চিকিত্সক থেকে শুরু করে শিক্ষক— দেশ গঠনে তাঁদের ভূমিকা, এমন বিভিন্ন বিষয় তাঁর ভাষণে এ দিন উঠে এসেছে।

তিনি বলেন, “সংবিধান আমাদের গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রের নাগরিক হওয়ার অধিকার প্রদান করেছে, তাই সংবিধান রক্ষার দায়িত্ব এ দেশের নাগরিকদেরই। কোনও বিষয় নিয়ে দেশের তরুণরা যখন আন্দোলন করেন, মহাত্মা গাঁধীর কাছ থেকে আমরা যে অহিংসা উপহার পেয়েছি, তা যেন না ভুলে যাই।” তিনি আরও বলেন, “জাতির জনকের মূল্যবোধগুলো মনে রাখলেই সংবিধান মেনে চলা আমাদের পক্ষে অনেক সহজ হয়ে যাবে। জাতির জনকের এই ভাবনাগুলো মেনে চললেই আমাদের দেশ আরও সমৃদ্ধ হবে।” মহাত্মা গাঁধীর অহিংসা নীতি যে আমাদের দেশের কাঠামো, তা মনে করিয়ে দিয়ে রাষ্ট্রপতি সরকার এবং বিরোধী দু’পক্ষকেই কড়া বার্তা দিয়ে বলেছেন, “সরকার এবং বিরোধী দুপক্ষেরই এই বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। নিজেদের রাজনৈতিক মূল্যবোধ প্রয়োগের আগে তাদের ভেবে দেখা জরুরি, তা দেশের উন্নয়নে এবং দেশবাসীর জন্য কতটা প্রয়োজনীয়।”

আরও পড়ুন: মৃত ৫৬, আক্রান্ত প্রায় দু’হাজার, ভাইরাস আতঙ্কে কাঁপছে চিন

দেশের প্রতিরক্ষা বাহিনীর কাজের প্রশংসা করে তাঁদের কুর্নিশ জানিয়েছেন রাষ্ট্রপতি। কুর্নিশ জানিয়েছেন মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ইসরোকেও। সম্প্রতি মহাকাশে মানুষ পাঠাতে উদ্যোগী হয়েছে ইসরো। ইসরোর এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন তিনি। এ ছাড়া দেশ গঠনে চিকিত্সক, কৃষক থেকে শিক্ষক এবং শিল্পপতি- সকলেরই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকার কথা ভাষণে উল্লেখ করেন তিনি।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন