• সংবাদ সংস্থা  
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কলেজের অনুষ্ঠানে শাড়ি পরে এসে বিশেষ বার্তা তিন ছাত্রের

Sarre Student
শাড়ি পরে কলেজের বার্ষিক অনুষ্ঠানে তিন ছাত্র। ছবি টুইটার থেকে সংগৃহীত।

Advertisement

পুণের ফার্গুসন কলেজের বার্ষিক অনুষ্ঠানের দিন। অধিকাংশ ছাত্রী শাড়ি বা সালোয়ার-কুর্তা পরে। ছাত্ররাও ফর্ম্যাল পোশাকে উপস্থিত হয়েছিলেন অনুষ্ঠানে যোগ দিতে। কিন্তু শনিবারের সেই অনুষ্ঠানের আকর্ষণের কেন্দ্রবিন্দু হয়ে উঠলেন তৃতীয় বর্ষের তিন ছাত্র। আকাশ, সুমিত, রুশিকেশ—অনুষ্ঠানে পরে এসেছিলেন শাড়ি। লিঙ্গ বৈষম্য নিয়ে বিশেষ বার্তা তুলে ধরতেই তাঁদের এই পোশাক পরা, বলে জানানো হয়। সেই ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়তেই এখন প্রশংসার বন্যায় ভাসছেন ওই তিন ছাত্র।

শাড়ি পরে আসা ছাত্ররা এক সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘‘কোথাও লেখা নেই ছেলেরা ছেলেদের পোশাকে আর মেয়েরা মেয়েদের পোশাকে আসবে। তাই মাথায় আসে, আমরা যদি সচেতনার বার্তা দিতে একটু অন্য রকম পোশাকে পরি। সে জন্যই শাড়ি পরে এসেছি আমরা।’’ শাড়ি পরে আসা তিন ছাত্রের এক জন আকাশ পওয়ার সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন, ‘‘শাড়ি জোগাড় করতে গিয়ে বেশ সমস্যায় পড়তে হয়েছে আমাদের। শাড়ি পরার জন্য আমরা আমাদের বন্ধু শ্রদ্ধার সাহায্য নিয়েছি। তবে শাড়ি পরার পর বুঝতে পারলাম, এটা কতটা ঝামেলার জিনিস।’’

শাড়ি পরে এসে ওই তিন ছাত্র লিঙ্গ-সমতার বার্তা দিয়েছেন। তাঁদের এই প্রয়াসকে শুধু পড়ুয়ারা নয়, শিক্ষকরাও সমর্থন করেছেন। শাড়ি পরতে গিয়ে নাকানিচোবানি খাওয়া নিয়ে ওই তিন ছাত্রের সরস মন্তব্য, ‘‘এ বার বুঝতে পারছি, সাজতে গিয়ে কেন মেয়েদের এত সময় লাগে।’’

আরও পড়ুন: প্রবল শীতে কম্বল মুড়ি দিয়ে রিকশায় চড়েছে কুকুর!

আরও পড়ুন: স্বাধীনতার কোজাগরী শাহিনবাগ, জামিয়ায়

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন