Advertisement
২০ জুন ২০২৪
Presents
Personal Finance 2023

মানসিক অসুস্থতাও বিমার আওতায়, বিমা নিয়ন্ত্রকের নতুন নির্দেশে আরও সহজ হচ্ছে এই বিমার সুবিধা

রোগ নির্ণয় থেকে শুরু করে ওষুধ, চিকিৎসার খরচ, ঘর ভাড়া, অ্যাম্বুল্যান্স-সহ অন্যান্য অনেক খরচকেই এই বিমার আওতায় আনা হয়েছে। অবশ্য এই বিমা চিকিৎসার অঙ্গ হিসাবে কাউন্সেলিং-এর খরচ বহন করবে না।

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

নিজস্ব সংবাদদাতা
শেষ আপডেট: ০৪ জানুয়ারি ২০২৩ ১৭:৪৯
Share: Save:

মানসিক অসুস্থতাকে বিমার আওতায় নিয়ে আসার নির্দেশ দিয়েছে বিমা নিয়ন্ত্রক ইনশিওরেন্স রেগুলেটরি অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অথরিটি অফ ইন্ডিয়া (আইআরডিএআই)। এর আগে কয়েকটি মাত্র সংস্থাই তাদের সুবিধা মতো মানসিক অসুস্থতাকে বিমার আওতায় অন্তর্ভুক্ত করেছিল। এদের কয়েকটির পরিষেবা নিয়ে নানা প্রশ্নও উঠেছিল। বিমা নিয়ন্ত্রক সংস্থার সাম্প্রতিক এই পদক্ষেপ বহু পরিবারের কাছেই এক নতুন আশার আলো নিয়ে এসেছে বলে মনে করা হচ্ছে। তার কারণ, এই রোগের ধরন বিবিধ। তার চিকিৎসাও দীর্ঘমেয়াদী এবং সেই কারণেই বেশ খরচসাপেক্ষ।

বিমা নিয়ন্ত্রক সংস্থার এই নির্দেশ অনুযায়ী, এই প্রকল্পে মানসিক অসুস্থতার কারণে রোগীর পরিচর্যা ও চিকিৎসার প্রয়োজনে হাসপাতালের যাবতীয় খরচের দায় শর্তসাপেক্ষে মেটানো সম্ভব। রোগ নির্ণয় থেকে শুরু করে ওষুধ, চিকিৎসার খরচ, ঘর ভাড়া, অ্যাম্বুল্যান্স-সহ অন্যান্য অনেক খরচকেই এই বিমার আওতায় আনা হয়েছে। অবশ্য এই বিমা চিকিৎসার অঙ্গ হিসাবে কাউন্সেলিং-এর খরচ বহন করবে না।

মানসিক স্বাস্থ্য বিমার সুবিধা পেতে হলে রোগীকে হাসপাতালে অন্তত ২৪ ঘণ্টা ভর্তি থাকতে হবে। বাইপোলার ডিসঅর্ডার, সিজোফ্রেনিয়া, তীব্র বিষণ্ণতা বা উদ্বেগজনিত ব্যাধি, সাইকোটিক ডিসঅর্ডার, মুড ডিসঅর্ডার, ওসিডি, এডিএইচডি, পিটিএসডি ইত্যাদি রোগে আক্রান্ত্ররা এই বিমার আওতায় আসবেন।

বিশেষজ্ঞদের কাছে সমাধান খুঁজতে সঞ্চয় নিয়ে আমাদের প্রশ্ন পাঠান — takatalk2023@abpdigital.in এই ঠিকানায় বা হোয়াটস অ্যাপ করুন এই নম্বরে — ৮৫৮৩৮৫৮৫৫২আপনার আয়, খরচ এবং সঞ্চয় জানাতে ভুলবেন না। পরিচয় গোপন রাখতে চাইলে অবশ্যই জানান।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE