×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ই-পেপার

লজ্জার হার দেখে ক্ষোভ সমর্থকদের, পরিবর্তনের দাবি বার্সায়

নিজস্ব প্রতিবেদন
১৬ অগস্ট ২০২০ ০৪:০০
বিপর্যস্ত: লজ্জাজনক হারে কার্যত বাকরুদ্ধ মেসি। গেটি ইমেজেস

বিপর্যস্ত: লজ্জাজনক হারে কার্যত বাকরুদ্ধ মেসি। গেটি ইমেজেস

যেন প্রিয়জনকে হারিয়েছেন! চেষ্টা করেও যন্ত্রণা আড়াল করতে পারছিলেন না লিয়োনেল মেসি। বায়ার্ন মিউনিখের কাছে লজ্জার হারের পরে মাঠেই মুখ দু’হাতে ঢেকে রেখেছিলেন আর্জেন্টাইন কিংবদন্তি। ড্রেসিংরুমের একটি ছবিও খুব ঘুরছে। শূন্য দৃষ্টিতে তাকিয়ে রয়েছেন মেসি। বিহ্বল। পাশে গোলরক্ষক মার্ক-আন্দ্রে তার স্তেগান।

আবার লিসবনে এমন লজ্জাজনক হারের পরে ক্ষিপ্ত সমর্থকদের ধিক্কার হজম করেই টিমবাসে হোটেলে ফিরলেন জেরার পিকেরা। কার্যত সবাইকে লক্ষ্য করে ছুড়ে দেওয়া হল অস্বস্তিকর সব কথাবার্তা। লুইস সুয়ারেসদের ‘নির্লজ্জ’ বলেও কটাক্ষ করা হল। মেসিকে দেখা গেল, একটা হাত উপরে তুলে বাস থেকে নামতে। যেন সমর্থকদের কাছে ক্ষমা চেয়ে নিচ্ছেন। এবং পরিস্থিতি আরও উত্তপ্ত হল, বার্সা ম্যানেজার কিকে সেতিয়েনকে ঘিরে! স্পেনীয় সংবাদমাধ্যমের খবর, তাঁকে সরিয়েও দেওয়া হয়েছে। ক্লাব প্রেসিডেন্ট জোসেফ মারিয়া বার্তোমেউ জানিয়েছেন, অনেক রদবদল হতে চলেছে। তবে তাঁর বিরুদ্ধেও নানা ক্ষোভ রয়েছে।

বার্সেলোনা ডিফেন্ডার জেরার পিকে-কে বলেছেন, ‘‘অনেক দিন থেকেই আমরা ঠিক পথে এগোচ্ছি না। পরিবর্তনের সময় এসেছে। এখানে এখন কোচ আর ফুটবলারেরা আলাদা রাস্তায় হাঁটছে! কে বলবে, একটা সময় ইউরোপীয় স্তরে বহুদিন আমরা দাপট দেখিয়েছি। আজ ভয়ঙ্কর খারাপ খেলল দল। তবু বলব এই হার বড় শিক্ষা দিল।’’ যোগ করলেন, ‘‘ক্লাবে সবার আগে দরকার পরিবর্তন। ফুটবলার বা কোচের কথা বলছি না। বলছি পরিকাঠামোর কথা। দলে নতুন রক্তের দরকার। তেমন হলে বার্সার ভাল জন্য নিজেই সবার আগে সরে যাব।’’ পিকে বহু বছর ক্যাম্প ন্যু-তে খেলছেন। কিন্তু মাত্র এক মরসুম বার্সায় আসা ফ্রেঙ্কি দে জংও ডাক দিলেন পরিবর্তনের।

Advertisement

পিকেরা কি সবার আগে ম্যানেজার বদল চান? স্পেনের খবর, সেতিয়েনের বিদায় অবশ্যম্ভাবী। বার্সা ম্যানেজার অবশ্য বলেছেন, ‘‘পিকে যা বলছে তার মধ্যে যেতে চাই না। ও সারা জীবন এখানে আছে। তবে এটা বুঝছি, বার্সেলোনাকে অস্তিত্ব ফিরে পেতে হবে। আমি থাকব কি, থাকব না এত তাড়াতাড়ি বলা ঠিক নয়। তা ছাড়া এটা আমার হাতেও নেই।’’ কোচ বদলের সম্ভাবনা নিয়ে এখনই কিছু বলা ঠিক নয় জানিয়েও বার্সা প্রেসিডেন্ট জোসেপ মারিয়া বার্তোমেউ লজ্জার হারের জন্য ক্ষমা চেয়ে নিলেন সমর্থকদের কাছে। সোমবারেই তিনি বৈঠক ডেকেছেন। সেখানে নানা পরিবর্তনের কথা ঘোষণা করা হতেই পারে।

যদিও স্পেনীয় সংবাদমাধ্যমে জোরাল ইঙ্গিত, ইতিমধ্যেই সেতিয়েনকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছেন শীর্ষ কর্তা। নতুন ম্যানেজার হতে পারেন মাউরিসিয়ো পোচেত্তিনো। মাদ্রিদ আর বার্সেলোনা সংবাদপত্রে শনিবার প্রথম পাতায় বার্সার বিপর্যয় ছাড়া কোনও খবরই নেই। সঙ্গে বড় করে রাখা হয়েছে বিধ্বস্ত মেসির ছবি। সেতিয়েনের ছবি দিয়ে লিখে দেওয়া হয়েছে, ‘বহিষ্কৃত’! ২০০৮–এর পরে এই প্রথম বার্সেলোনার হাতে কোনও ট্রফি নেই।

Advertisement