Advertisement
০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩
Jhulan Goswami

Jhulan Goswami: বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি, পর্দার ঝুলন অভিনন্দন জানালেন বাস্তবের ঝুলনকে

মহিলা বিশ্বকাপে ৪০ উইকেট নিয়ে সব থেকে বেশি উইকেটশিকারী হয়ে গেলেন ঝুলন গোস্বামী। ৩১টি ম্যাচে ৪০টি উইকেট হয়ে গেল তাঁর।

অনুষ্কা শুভেচ্ছা পাঠালেন ঝুলনকে

অনুষ্কা শুভেচ্ছা পাঠালেন ঝুলনকে

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ১২ মার্চ ২০২২ ১৫:৩৯
Share: Save:

৪০ উইকেট নিয়ে মহিলা বিশ্বকাপে সব থেকে বেশি উইকেটশিকারি হয়ে গেলেন ঝুলন গোস্বামী। ৩১টি ম্যাচে ৪০টি উইকেট হয়ে গেল তাঁর। বাংলার চাকদহের মেয়ের বিশ্বরেকর্ডে ভারতের ক্রিকেটপ্রেমীরা উত্তাল। বাস্তবের ঝুলনকে শনিবার রাতে অভিনন্দন জানালেন পর্দার ঝুলন অনুষ্কা শর্মা।

Advertisement

নেট মাধ্যমে অনুষ্কা লিখেছেন, ‘মহিলাদের বিশ্বকাপে সর্বোচ্চ উইকেটশিকারি হল ঝুলন। অভিনন্দন চ্যাম্পিয়ন।’ বল হাতে ঝুলনের একটি সাদা-কালো ছবি পোস্ট করেছেন অভিনেত্রী।

সম্প্রতি ঝুলনের জীবনী নিয়ে বলিউডে নির্মিত হয়েছে চলচ্চিত্র। সেখানেই তাঁর ভূমিকায় অভিনয় করেছেন অনুষ্কা, যিনি ভারতের প্রাক্তন অধিনায়ক বিরাট কোহলীর ঘরণী। শনিবার ১০১তম টেস্ট খেলতে নেমেছেন কোহলীও। বেঙ্গালুরুতে সেই ম্যাচে কোহলীর ক্রিকেটজীবনের ৭১তম আন্তর্জাতিক শতরান আসবে কিনা, সেই নিয়ে জল্পনা চলছিল। অনুষ্কা নিজেও কি সেটা নিয়েই চিন্তিত ছিলেন? তাই জন্যই কি শুরুতে ঝুলনকে অভিনন্দন জানানোর সময় পাননি? হয়ত সেই কারণে অপেক্ষা বেড়েছে। কারণ প্রথম ইনিংসে শতরান তো দূর, অর্ধশতরানও পাননি কোহলী। ২৩ রান করে ফিরে গিয়েছেন।

গত ৩ মার্চ বিকেল পাঁচটা নাগাদ মহিলা বিশ্বকাপের আগে ভারতীয় দলকে শুভেচ্ছা জানিয়ে একটি টুইট করেছিলেন অনুষ্কা। রোমান হরফে হিন্দিতে লেখা সেই টুইটে ভারতের মহিলারা যে বিশ্বকাপ জিতে ফিরবেন, সেই আশা প্রকাশ করেছিলেন অনুষ্কা। তার এক সপ্তাহ পর একটি বিজ্ঞাপনী প্রচারের ভিডিয়ো টুইট করেন। গত দু’দিনে আর কোনও টুইট করতে দেখা যায়নি বিরাট-ঘরণীকে। তবে তাঁর টুইটার প্রোফাইলে এখনও ‘পিন’ করা টুইট হিসেবে রয়েছে নেটফ্লিক্সে মুক্তি পাওয়া ‘চাকদহ এক্সপ্রেস’ সিনেমার ট্রেলার।

Advertisement

বেশ কয়েক বছর আগে আচমকাই এক সন্ধেয় ইডেনে হাজির হয়েছিলেন অনুষ্কা। সঙ্গে ছিলেন ঝুলন। ফ্লাডলাইটের আলোয় গোটা ইডেন গার্ডেন্স ঘুরে দেখেছিলেন অনুষ্কা। তখনই জানা যায়, ঝুলনের জীবনীচিত্র তৈরি হতে চলেছে। তার পর অবশ্য বেশ কিছু কারণে সেই সিনেমার কাজ থমকে যায়। অনুষ্কা বিয়ে করেন কোহলীকে। বেশ কিছু দিন সিনেমা থেকে দূরে ছিলেন তিনি। ঝুলনের জীবনীচিত্র আদৌ দিনের আলো দেখবে কিনা, সেটা নিয়েও তৈরি হয়েছিল সংশয়। এমনকী, এটাও শোনা গিয়েছিল যে, অনুষ্কা নিজেকে এই সিনেমা থেকে সরিয়ে নিয়েছেন। তবে সব জল্পনার অবসান করেন অনুষ্কা নিজেই। গত ৬ জানুয়ারি মুক্তি পায় ‘চাকদহ এক্সপ্রেস’ সিনেমার ট্রেলার। এর কিছুদিন পরেই সিনেমাটি মুক্তি পায় ওটিটি প্ল্যাটফর্ম নেটফ্লিক্সে।

সিনেমাটি নিয়ে বিতর্কও কম হয়নি। মুক্তি পাওয়ার পরেই চলচ্চিত্র এবং ক্রিকেটপ্রেমীরা প্রশ্ন করতে থাকেন, কেন সিনেমায় ঝুলনরূপী অনুষ্কাকে এত ফর্সা দেখানো হয়েছে? কেনই বা তিনি হিন্দি বলছেন, সেই প্রশ্নও তোলা হয়েছে। তবে ঝুলন বা অনুষ্কা, কেউই এই নিয়ে মুখ খোলেননি। নিজের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে সম্প্রতি ছবির পিছনের গল্প তুলে ধরেছেন অনুষ্কা। কিন্তু সপ্তাহের ছ’দিন দু’-তিন ঘণ্টা ধরে ক্রিকেটের অনুশীলন করার সেই ভিডিয়ো প্রকাশ করেছেন।

কোহলীর খেলার সুবাদে এখন মেয়ে ভামিকাকে নিয়ে বেঙ্গালুরুতেই রয়েছেন অনুষ্কা। বেঙ্গালুরু তাঁর এবং কোহলী— দু’জনের কাছেই প্রিয় শহর। প্রযুক্তির এই যুগে ঝুলনের কীর্তির কথা তাঁর কানে পৌঁছয়নি, এটা বিশ্বাস করা মুশকিল। এখন দেখার, কখন পর্দার ঝুলন বাস্তবের ঝুলনকে শুভেচ্ছাবার্তা পাঠান।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.