Advertisement
১৯ জুলাই ২০২৪
T20 World Cup 2022

রোহিত, বিরাটরা সাদা বলের ক্রিকেট খেলতেই পারেন না, বলে দিলেন প্রাক্তন ইংরেজ অধিনায়ক

রোহিত, বিরাটরা যে ভাবে খেলছেন, সেটাকে পুরনো ঘরানার খেলার ধরন বলে মনে করেন ভন। আইসিসি প্রতিযোগিতায় বার বার নক আউট পর্বে এসে হারতে হচ্ছে ভারতকে।

ইংল্যান্ডের প্রাক্তন ক্রিকেটার মনে করেন বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মারা খেলতেই পারেন না।

ইংল্যান্ডের প্রাক্তন ক্রিকেটার মনে করেন বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মারা খেলতেই পারেন না। —ফাইল চিত্র

সংবাদ সংস্থা
লন্ডন শেষ আপডেট: ১২ নভেম্বর ২০২২ ১৮:১৯
Share: Save:

ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে ১০ উইকেটে হার। এর পর একাধিক প্রাক্তন ক্রিকেটার ভারতের মুণ্ডপাত করছেন। বাদ গেলেন না মাইকেল ভনও। ইংল্যান্ডের প্রাক্তন ক্রিকেটার মনে করেন বিরাট কোহলি, রোহিত শর্মারা খেলতেই পারেন না।

রোহিত, বিরাটরা যে ভাবে খেলছেন, সেটাকে পুরনো ঘরানার খেলার ধরন বলে মনে করেন ভন। আইসিসি প্রতিযোগিতায় বার বার নক আউট পর্বে এসে হারতে হচ্ছে ভারতকে। ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে বিরাটরা যে ১০ উইকেটে হেরে যাবেন, তা ভাবতেই পারেননি অনেকে। ইংল্যান্ডের এক সংবাদ মাধ্যমে ভন লেখেন, “সাদা বলের ক্রিকেট ইতিহাসে ভারত সব থেকে খারাপ দল। যে ক্রিকেটাররা আইপিএল খেলতে যায়, তারা বলে তাদের খেলার উন্নতি হয়েছে। কিন্তু ভারত কী তাতে ট্রফি জিতেছে? ২০১১ সালে ঘরের মাঠে বিশ্বকাপ জেতা ছাড়া ভারত কী করেছে? কিচ্ছু না। ভারত এমন একটা সাদা বলের ক্রিকেট খেলছে, যা অতীতে খেলা হত।”

ভন মনে করেন ঋষভ পন্থকে বেশি করে ব্যবহার করা উচিত ছিল। তিনি বলেন, “পন্থকে ওরা ব্যবহারই করল না। অবাক কাণ্ড। এই যুগে ওকে আরও উপরে নামানো উচিত। দলে বিরাট প্রতিভা নিয়ে ভারত যে ভাবে খেলছে সেটা দেখে আমি অবাক। ওদের দলে ভাল ক্রিকেটার আছে। কিন্তু তাদের সঠিক ভাবে ব্যবহার করা হচ্ছে না। মারতে হবে। কেন বিপক্ষের বোলারদের প্রথম ৫ ওভারে থিতু হওয়ার সময় দেওয়া হবে।”

ভারতীয় দলে অলরাউন্ডারের অভাব দেখছেন ভন। তিনি বলেন, “ভারতের মাত্র পাঁচটা বোলার কেন? ১০ থেকে ১৫ বছর আগেও ভারতের শুরুর দিকে ৬ জনের কেউ না কেউ বল করতে পারতেন। সচিন তেন্ডুলকর, সুরেশ রায়না, বীরেন্দ্র সহবাগ এমন কী সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ও বল করতে জানত। এখন কোনও ব্যাটার বল করতে পারে না। তাই অধিনায়কের হাতে মাত্র পাঁচটা বোলার।”

পুরো বিশ্বকাপে যুজবেন্দ্র চহালকে না খেলানোর সিদ্ধান্ত ভারতের বিপক্ষে গিয়েছে বলেও মনে করেন ভন। তিনি বলেন, “টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটের পরিসংখ্যান বলে যে, এমন স্পিনার প্রয়োজন যে দু’দিকেই বল ঘোরাতে পারে। ভারতীয় দলে এমন স্পিনার প্রচুর আছে। কিন্তু কোথায় তারা? ভারতীয় দলে বাঁহাতি পেসার আরশদীপ সিংহ আছে। ডানহাতি ব্যাটারদের ক্ষেত্রে তাঁর বল সুইং করে ভিতরে ঢোকে। কিন্তু ১৬৮ রান রক্ষা করতে নেমে ভারত কী করল? ওরা ভুবনেশ্বর কুমারকে বল দিল। যার বল বাটলার এবং হেলসের কাছে সুইং করে বাইরের দিকে যায়। প্রথম ওভারেই কেন বাঁহাতি পেসারকে এনে আক্রমণ করা হবে না। এটা পাগলের মতো কাজ। শুরু থেকেই আক্রমণ করা উচিত। ক্রিজে থিতু হওয়ার সময় কেন দেওয়া হবে।”

ভারতের জেতা উচিত ছিল বলে মনে করেন ভন। তিনি বলেন, “বিশ্ব ক্রিকেটের জন্য ভারত খুব গুরুত্বপূর্ণ। কিন্তু ওরা আশানুরূপ খেলতে পারেনি। ওদের আরও ম্যাচ জেতা উচিত ছিল। নিজেদের মাঠেও ২০১৬ সালে জিততে পারেনি ভারত। গত বছর তো খেলতেই পারেনি। এ বার বিরাট কোহলি অসাধারণ খেলছিল। গ্রুপ পর্বে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে মনে হয় সেরা টি-টোয়েন্টি ইনিংসটা খেলেছিল। কিন্তু বাকিরা নিজেদের প্রতিভা অনুযায়ী খেলতে পারেনি।”

ভনের মতে ভারতের নামে খারাপ কথা বলতে পণ্ডিতরা ভয় পান। ইংল্যান্ডের প্রাক্তন অধিনায়ক বলেন, “ভারতকে নিজেদের সম্পর্কে সত্যি কথাটা বুঝতে হবে। কেউ ভারতকে নিয়ে খারাপ বলে না। কারণ জানে তাতে নেটমাধ্যমে সমর্থকরা ছিঁড়ে খাবে। তারা ভয় পায় ভারতে গিয়ে হয়তো আর কাজ করতে পারবে না। ভারতীয় দলে না আছে বেশি বোলার, না আছে ব্যাটিং গভীরতা। সে রকম ভাল স্পিনারও নেই।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement

Share this article

CLOSE