×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

০৪ অগস্ট ২০২১ ই-পেপার

আইপিএলে প্রচুর টাকা পাওয়ায় পিটারসেনকে ঈর্ষা করত ইংল্যান্ড ক্রিকেটাররা!

সংবাদ সংস্থা
লন্ডন ২৩ এপ্রিল ২০২০ ১৫:৪৪
২০০৯ সালের আইপিএলে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরে খেলেন কেভিন পিটারসেন। —ফাইল চিত্র।

২০০৯ সালের আইপিএলে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরে খেলেন কেভিন পিটারসেন। —ফাইল চিত্র।

আইপিএলে বিশাল অঙ্কের চুক্তির জন্য কেভিন পিটারসেনকে ঈর্ষা করতেন ইংল্যান্ডে তাঁর সতীর্থরা। এমনই দাবি করলেন ইংল্যান্ডের প্রাক্তন অধিনায়ক মাইকেল ভন

২০০৯ সালের আইপিএল নিলামে সবচেয়ে দামি ক্রিকেটার ছিলেন কেভিন পিটারসেন। তাঁকে ৯ কোটি ৮০ লক্ষ টাকায় নিয়েছিল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর। আর এই বিশাল অঙ্কের জন্যই সতীর্থদের ঈর্ষার শিকার হন তিনি। ‘ফক্স স্পোর্টস’-এ ভন বলেছেন, “আমার মনে হয় প্রচুর ঈর্ষা ছিল সেই সময়। এখন অবশ্য তা সম্পূর্ণ অস্বীকার করবে ক্রিকেটাররা। কিন্তু, কেভিন যখন বড় অঙ্কের চুক্তি পেল, তখন সবার মধ্যেই হিংসা কাজ করছিল।”

আরও পড়ুন: ‘আমরা খেলতাম দেশের জন্য আর ভারতীয়রা নিজেদের জন্য’, ইনজামামের মন্তব্যে বিতর্ক​

Advertisement

আরও পড়ুন: ম্যাজিক দেখালেন হরমনপ্রীত, অবাক নেটাগরিকরা​

সেই সময় ইংল্যান্ড দলের অধিনায়ক অ্যান্ড্রু স্ট্রসের সঙ্গে তর্কাতর্কিতে জড়িয়ে পড়েছিলেন পিটারসেন। আইপিএলে ক্রিকেটারদের অংশগ্রহণের অনুমতি দিতে ইচ্ছুক ছিল না ইংল্যান্ড ও ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি)। সেই প্রসঙ্গে ভন বলেছেন, “কেভিন সেই সময় আইপিএলে অংশ নিতে চাইছিল। তাতেই মতপার্থক্য চরমে ওঠে। কেপি বলেছিল যে বিশ্বের সেরা ক্রিকেটারদের সঙ্গে আইপিএলে খেললে তা ইংল্যান্ডের এক দিনের দলের উন্নতি ঘটাবে। এক দিনের দলে থাকা প্রত্যেক ক্রিকেটার এর ফলে নিজেদের উন্নতি ঘটাতে পারবে।”

যদিও দলের বাকিদের মনে হয়েছিল আর্থিক কারণেই আইপিএলে খেলতে চাইছেন পিটারসেন। ভনের দাবি, “অনেকে বলেছিল যে টাকার জন্যই আইপিএলে খেলতে চাইছে ও। ওর বড় অঙ্কের চুক্তি ছিল আইপিএলে। কিন্তু, বাকিদের তা ছিল না। ফলে, পুরো দলে একা হয়ে পড়েছিল কেভিন।”

Advertisement