Advertisement
২৩ এপ্রিল ২০২৪
ATK Mohun Bagan

ATK Mohun Bagan: আইএফএ-র থেকে বকেয়া টাকা না পেলে কলকাতা লিগে খেলবে না এটিকে মোহনবাগান

আইএফএ-র থেকে ৬০ লাখ টাকা পাওনা রয়েছে মোহনবাগানের। সেই টাকা না পেলে সবুজ-মেরুন অংশ নেবে না কলকাতা লিগে।

কলকাতা লিগের ব্যাপারে অবস্থান স্পষ্ট করল মোহনবাগান।

কলকাতা লিগের ব্যাপারে অবস্থান স্পষ্ট করল মোহনবাগান। ফাইল ছবি

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা শেষ আপডেট: ২২ অগস্ট ২০২২ ১৯:০৪
Share: Save:

আইএফএ-র থেকে তাদের বকেয়া প্রায় ৬০ লাখ টাকা। সেই বকেয়া মেটানো না হলে কলকাতা লিগে খেলবে না এটিকে মোহনবাগান। সোমবার এ কথা স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন মোহনবাগানের সচিব দেবাশিস দত্ত। পাল্টা আইএফএ সচিব অনির্বাণ দত্ত জানিয়েছেন, মোহনবাগানের সঙ্গে আলোচনায় বসতে ইচ্ছুক তাঁরা। সমস্যার সুরাহা হওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী।

সোমবার ক্লাব তাঁবুতে সাংবাদিক বৈঠক করেন দেবাশিস। সেখানে তিনি জানান, রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ক্লাবের অনুষ্ঠানে হাজির হয়ে মোহনবাগানকে কলকাতা লিগ খেলার অনুরোধ করেছিলেন। তার পরে বেশ কয়েক বার ক্রীড়ামন্ত্রী অরূপ বিশ্বাস প্রকাশ্যেই মোহনবাগানকে কলকাতা লিগে খেলার অনুরোধ করেন। সেই প্রেক্ষিতেই ক্লাবের অবস্থান স্পষ্ট করে দিতে চেয়েছেন দেবাশিস।

কোথায় সমস্যা তৈরি হয়েছে?

দেবাশিসের দাবি, গত ১২ মে তৎকালীন আইএফএ সচিব জয়দীপ মুখোপাধ্যায়কে চিঠি পাঠিয়ে তাঁরা বকেয়ার ব্যাপারে জানান। পরে একটি বৈঠকে জয়দীপ স্বীকার করেন মোহনবাগানের বকেয়ার কথা। এর পর ২০ জুন অনির্বাণ সচিব হিসাবে যোগ দেন। পরের দিন তাঁকে মোহনবাগানের তরফে চিঠি পাঠিয়ে ফের বকেয়ার কথা মনে করানো হয়। তিনি চিঠির উত্তর না দিলেও আইএফএ-র সহ-সভাপতি স্বরূপ বিশ্বাস এবং সৌরভ পাল পরে বৈঠক করেন মোহন-সচিবের সঙ্গে। সেই বৈঠকে টাকা মেটানোর ব্যাপারে কোনও আশ্বাস দেওয়া হয়নি।

১৯ জুলাই ফের চিঠি পাঠানো হয় আইএফএ-তে। পরের দিন আইএফএ-র তরফে উত্তর দেওয়া হয়। দেবাশিস জানান, সেই চিঠির মাথামুন্ডু কিছুই বুঝতে পারেননি তাঁরা। সেখানে বলা হয়, মোহনবাগানের টাকা মেটানো হবে কয়েকটি কিস্তিতে। প্রথম কিস্তি ১ সেপ্টেম্বর দেওয়া হবে। তবে কত টাকা বা ক’টি কিস্তিতে দেওয়া হবে তা কিছুই স্পষ্ট করা হয়নি। মোহনবাগানের তরফে ব্যাখ্যা চেয়ে চিঠি পাঠানো হলেও জবাব মেলেনি।

দেবাশিস আরও জানান, ১৩ অগস্ট কলকাতা লিগ নিয়ে ক্রীড়ামন্ত্রী অরূপের সঙ্গে একটি বৈঠক হয়, যেখানে মোহনবাগানের তরফে সত্যজিৎ চট্টোপাধ্যায় এবং মানস ভট্টাচার্য যোগ দেন। সেখানে আইএফএ সচিবকে অরূপ অনুরোধ করেন মোহনবাগানের সঙ্গে বসার জন্যে। তার পরেও আইএফএ-র তরফে কোনও উত্তর পাওয়া যায়নি। দেবাশিস জানিয়েছেন, ৩০ অগস্ট পর্যন্ত তাঁরা অপেক্ষা করবেন। আইএফএ-র তরফে এর পরেও কোনও পদক্ষেপ করা না হলে কলকাতা লিগে খেলবেন না তাঁরা।

আনন্দবাজার অনলাইনকে আইএফএ সচিব অনির্বাণ বলেছেন, “সেপ্টেম্বরে আমরা প্রথম কিস্তি দেওয়ার কথা বলেছি। যেহেতু আমাদের হাতে কোনও স্পনসর নেই, তাই কত টাকা দেওয়া হবে সেটা উল্লেখ করিনি। আমরা চাই যত বেশি সম্ভব বকেয়া মিটিয়ে দিতে। আগামী কয়েক দিনের মধ্যে অবশ্যই মোহনবাগানের সঙ্গে বৈঠকে বসব। আশা করছি সমস্যার সুরাহা হবে।”

কেন এত দিনেও তিনি বসার সুযোগ পেলেন না? আইএফএ সচিবের জবাব, “কলকাতা লিগ চলছে। অনেক কাজকর্ম রয়েছে। তাই বসার সময় পাইনি। তবে মোহনবাগানের মতো ক্লাব কলকাতা লিগে খেলবে না এটা হতে পারে না। আমরা আশাবাদী যে সমাধানসূত্র বেরোবে।”

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, X (Twitter), Facebook, Youtube, Threads এবং Instagram পেজ)
সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের মাধ্যমগুলি:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE