Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৬ জুন ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

Pep Guardiola: নিজেদের কিংবদন্তি বলছেন গুয়ার্দিওলা, থাকল বিতর্কও

নিজস্ব প্রতিবেদন
কলকাতা ২৪ মে ২০২২ ০৬:১১
Save
Something isn't right! Please refresh.
স্বপ্নপূরণ: ইপিএল ট্রফি নিয়ে উচ্ছ্বসিত পেপ গুয়ার্দিওলা।

স্বপ্নপূরণ: ইপিএল ট্রফি নিয়ে উচ্ছ্বসিত পেপ গুয়ার্দিওলা।
ছবি রয়টার্স।

Popup Close

গত পাঁচ বছরে চার বারই তারা ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন। রবিবার ঘরের মাঠ এতিহাদ স্টেডিয়ামে ০-২ পিছিয়ে থেকে ৩-২ জিতে এই মরসুমে ইপিএল ট্রফি হাতে নিয়েছে ম্যাঞ্চেস্টার সিটি। জয়ের পরে গোটা শিবিরই আনন্দে উদ্বেল। তার মধ্যেই নিজেদের কিংবদন্তি বলে দিলেন ম্যান সিটি ম্যানেজার পেপ গুয়ার্দিওলা।

রবিবার রাতে ম্যাচের পরে গুয়ার্দিওলা সংবাদমাধ্যমে বলেন, ‍‘‍‘শেষ ম্যাচ সব সময়েই বিশেষ ম্যাচ হিসেবে চিহ্নিত হয়। অনেকের আবেগই এই ম্যাচের সঙ্গে জড়িয়ে থাকে। অ্যাস্টন ভিলা সব সময়েই কঠিন প্রতিপক্ষ। জেতার জন্য ওরা নিজেদের সর্বস্ব দিয়ে ঝাঁপিয়েছিল। কিন্তু আমরা প্রথম গোল করার পরেই ম্যাচ নিজেদের হাতে নিয়ে নিই।’’ যোগ করেন, ‍‘‍‘আমরা কিংবদন্তি। এই ইংল্যান্ডে পাঁচ বছরের মধ্যে চার বার ইপিএল খেতাব জয়ের অর্থ আমাদের ছেলেরা প্রত্যেকেই বিশেষ একজন ফুটবলার। আমাদের এই কৃতিত্ব সবাই মনে রাখবেন।’’

ম্যান সিটি ম্যানেজার সচরাচর সাফল্যে কম উদ্বেলিত হন। কিন্তু এ বার চতুর্থ ইপিএল খেতাব জিতে তিনি আনন্দে মাতোয়ারা। বলেছেন, ‍‘‍‘ঘরের মাঠে সমর্থকদের সামনে খেতাব জয়ের মুহূর্তই সেরা। আমরা ০-২ পিছিয়ে থাকার পরে ব্যবধান প্রথমে কমাতেই বুঝে গিয়েছিলাম, তৃতীয় গোলও হয়ে যাবে।’’

Advertisement

এর পরেই প্রতিদ্বন্দ্বী লিভারপুলকে উদ্দেশ্য করে গুয়ার্দিওলা বলেন, ‍‘‍‘আমাদের এই কৃতিত্বের পিছনে প্রতিদ্বন্দ্বী লিভারপুলেরও অবদান রয়েছে। আমার জীবনে লিভারপুলের মতো দুর্দান্ত দল দেখিনি। ওদের ধন্যবাদ। ওরাই আমাদের প্রতি সপ্তাহে আমাদের আরও ভাল খেলার প্রেরণা দিয়েছে।’’

সাংবাদিকেরা গুয়ার্দিওলার কাছে জানতে চেয়েছিলেন, আগামী মরসুমের জন্য কী চমক দিতে চলেছেন তিনি। তার উত্তরে পেপ বলেন, ‍‘‍‘এই মুহূর্তে আমার পরবর্তী মরসুম সম্পর্কে চিন্তা করার ইচ্ছা বা শক্তি, কোনওটাই নেই। আমরা ফের চ্যাম্পিয়ন। এখন এই আনন্দের মুহূর্তটা উপভোগ করতে চাই।’’

এ দিকে, ঘরের মাঠে এই জয়ের পরে ম্যাঞ্চেস্টার সিটি সমর্থকেরা মাঠে নেমে আনন্দ করতে শুরু করে দেন। যে উৎসবের মাঝে পড়ে ম্যান ইউ সমর্থকদের হাতে নিগৃহীত হন অ্যাস্টন ভিলা গোলকিপার রবিন ওলসেন। যে ঘটনার তীব্র নিন্দা করা হয়েছে ম্যাঞ্চেস্টার সিটির তরফে। শুরু হয়েছে এই ঘটনার তদন্ত। যদিও এতে ক্ষোভ কমেনি অ্যাস্টন ভিলার। দলের ম্যানেজার স্টিভন জেরার বলেছেন, ম্যান সিটি সমর্থকেরা অকারণেই নিগ্রহ করেন তাঁদের গোলকিপারকে। উল্লেখ্য, সমর্থকেরা মাঠে ঢুকে যেন খেলোয়াড়দের বিরক্ত না করে, তার জন্য ইপিএলের আয়োজক ও ইংল্যান্ডের ফুটবল নিয়ামক সংস্থা এফএ শুক্রবারেই কড়া নির্দেশ দিয়েছিল। তার পরেও আনন্দের মাঝে এই ঘটনায় বিব্রত ম্যান সিটি শিবির।

জেরার সাংবাদিকদের বলেছেন, ‍‘‍‘আমার দলের গোলকিপারকে আক্রমণ করা হয়েছিল। এর উত্তর ম্যান সিটি ও পেপ গুয়ার্দিওলাকে দিতে হবে। আমাদের এ বার দেখতে হবে আমাদের সেই গোলকিপার শারীরিক ভাবে এখন কেমন আছে।’’ জেরার এই কথা বলেন ম্যাচ শেষ হওয়ার পরেই।

এর পরেই ম্যান সিটি ক্লাবের তরফে এক বিবৃতি প্রকাশ করে বলা হয়, ‍‘‍‘অ্যাস্টন ভিলা গোলকিপার রবিন ওলসেনের কাছে ক্ষমা চাইছি আমরা। আমাদের সমর্থকেরা ম্যাচের পরে মাঠে ঢোকায় তাঁকে নিগৃহীত হতে হয়েছে। ক্লাব ইতিমধ্যেই তদন্ত শুরু করেছে। যদি কেউ দোষী সাব্যস্ত হয়, তা হলে সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের স্টেডিয়ামে ঢোকার ব্যাপারে নিষেধাজ্ঞা জারি হবে।’’ ম্যাচের পরে সমর্থকেরা যে দিকের গোলপোস্টে ইলখাই গুন্দোয়ানেরা গোল করেছিলেন, সেই বার ধরে ঝুলে পড়েন ভক্তেরা। যার ফলে সেই গোলপোস্টও ভেঙে গিয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement